নগদ আছে ৫ হাজার, প্রচারণা অনুদানের টাকায়

গণসংযোগ করেছেন আইয়ুব আলী। ছবি: বার্তা২৪.কম

রাকিবুল ইসলাম রাকিব, ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম

ময়মনসিংহ-৩ গৌরীপুর আসনে ‘হাতপাখা’ প্রতীক নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ গৌরীপুর শাখার সভাপতি ও চরমোনাই পীর সাহেব মনোনীত প্রার্থী হযরত মাওলানা আইয়ুব আলী ওরফে নূরানী হুজুর। আসনটিতে তিনি ছাড়াও প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন আওয়ামী লীগ, বিএনপি, জাকের পার্টি, সিপিবি ও তরিকত ফেডারেশনের মনোনীত প্রার্থীরা।

হলফনামার তথ্য অনুযায়ী জানা গেছে, আইয়ুব আলীর কাছে মাত্র নগদ ৫ হাজার টাকা আছে। নির্বাচনী প্রচারণার জন্য খরচ যোগাচ্ছেন দলের নেতা-কর্মী ও শুভানুধ্যায়ীরা। এমনকি প্রচারণার মাইকিং থেকে শুরু করে পোস্টার টাঙানো, গণসংযোগ সবকিছু কর্মীরা নিজ উদ্যোগে করছে। তাই তার নির্বাচনী প্রচারণার বিষয়টি ভোটের মাঠে বেশ আলোচনা সৃষ্টি করেছে।

বাংলাদেশ মুজাহিদ কমিটি গৌরীপুর উপজেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক আব্দুল হাই বলেন, ‘দলীয় নেতাকর্মীদের কাছ থেকে ৫৫ হাজার টাকা অনুদান পেয়ে আমরা নির্বাচনে প্রচারণায় নেমেছি। এই টাকা এখন শেষ পর্যায়ে। নতুন করে যদি কেউ অনুদান দেয় তাহলে নির্বাচনী প্রচারণা চলবে। না দিলে, নিজের খরচে যতটুকু সম্ভব কর্মীদের নিয়ে মাঠে প্রচারণা চালিয়ে যাব।’

সোমবার (১৭ ডিসেম্বর) দিনভর নির্বাচনী এলাকার সিধলা ইউনিয়নের মনাটি গ্রামে ভোটারদের দ্বারে দ্বারে ঘুরে হাতপাখা প্রতীকের ভোট চেয়ে গণসংযোগ করেছেন আইয়ুব আলী।

হযরত মাওলানা আইয়ুব আলী বলেন, ‘আমি স্বল্প সম্মানীতে ইমাম ও খতিবের দায়িত্ব পালন করি। নির্বাচনের জন্য কাড়ি কাড়ি টাকা পাবো কোথায়? কর্মীরাই আমার নির্বাচনের প্রাণ।’

ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের স্থানীয় নেতারা জানান, আইয়ুব আলী অত্যন্ত সৎ মানুষ। তার জীবনযাপন খুব সাধারণ। দলীয় নেতাকর্মীরা স্বপ্রণোদিত হয়ে স্বেচ্ছাশ্রমে চালিয়ে যাচ্ছে ‘হাতপাখা’ প্রতীকের নির্বাচনী প্রচারণা।

আইয়ুব আলীর বাড়ি উপজেলার রামগোপালপুর ইউনিয়নের ফতেহপুর গ্রামে। তার বাবার নাম আহাম্মদ আলী। তিনি গাজীপুর জেলার শ্রীপুরের শেখ জামে মসজিদের ইমাম ও খতিবের দায়িত্বে আছেন।

ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলনের সভাপতি মো. কামরুল হাসান বলেন, ‘প্রতীক বরাদ্দের পর থেকে আমি সহ দলের কয়েকজন নির্বাচনী এলাকায় স্বেচ্ছাশ্রমে মাইকিং ও গণসংযোগ করে হাতপাখা প্রতীকের প্রার্থীর পক্ষে প্রচারণা করছি। দলীয় নেতা-কর্মীরাও সহযোগিতা করছে। সুষ্ঠু নির্বাচন হলে আমরা জয়ী হব।’

হযরত মাওলানা আইয়ুব আলী বলেন, ‘হাতপাখা প্রতীক নিয়ে নির্বাচনী এলাকার যেখানেই যাচ্ছি, সেখানেই ভোটারদের ব্যাপক সাড়া পাচ্ছি, এলাকাবাসী আমাদের সঙ্গে ভালো আচরণ করছে। ভোট দেয়ার আশ্বাস দিচ্ছে। এখন পর্যন্ত হাতপাখার নির্বাচনী প্রচারণায় কোনো বাধা আসেনি। নির্বাচন সুষ্ঠু হলে বিজয় নিশ্চিত।

নির্বাচন এর আরও খবর