Barta24

রোববার, ২১ জুলাই ২০১৯, ৬ শ্রাবণ ১৪২৬

English Version

কানে বিচারকদের প্রধান মেক্সিকোর ইনারিতু

কানে বিচারকদের প্রধান মেক্সিকোর ইনারিতু
আলেহান্দ্রো গঞ্জালেস ইনারিতু
বৃষ্টি শেখ খাদিজা
নিউজরুম এডিটর


  • Font increase
  • Font Decrease

কান চলচ্চিত্র উৎসবের ৭২তম আসরে বিচারকদের প্রধান থাকছেন ‘বার্ডম্যান’ ও ‘টোয়েন্টি ওয়ান গ্রামস’ পরিচালক আলেহান্দ্রো গঞ্জালেস ইনারিতু। এবারই প্রথম কোনও মেক্সিকান তারকা এই দায়িত্ব পালন করবেন। বুধবার (২৭ ফেব্রুয়ারি) উৎসব আয়োজকরা এই ঘোষণা দিয়েছেন।

কানে ২০০৬ সালে ‘বাবেল’ ছবির জন্য সেরা পরিচালক বিভাগে পুরস্কার পান ইনারিতু। এর গল্পে তিন মহাদেশের সাংস্কৃতিক গোঁড়ামি খুঁজে বেড়িয়েছেন ৫৫ বছর বয়সী এই নির্মাতা।

২০১৪ ও ২০১৫ সালে টানা দু’বার অস্কারে সেরা পরিচালক বিভাগে পুরস্কার জেতেন ইনারিতু। এর মধ্যে ‘বার্ডম্যান’-এর গল্প পরাভূত অভিনেতাকে ঘিরে। আর ‘দ্য রেভেন্যান্ট’ তৈরি হয়েছে কিংবদন্তি অভিযাত্রী হিউ গ্লাসের জীবন অবলম্বনে। ইনারিতুর ‘দ্য রেভেন্যান্ট’-এর মধ্য দিয়ে প্রথমবার অস্কার জেতেন হলিউড হার্টথ্রব লিওনার্দো ডিক্যাপ্রিও।

এক বিবৃতিতে কান উৎসবের সভাপতি পিয়েরে লেসকিউর বলেন, “কান সব ধরনের ছবিকে সাদরে গ্রহণ করে। ‘বাবেল’ খ্যাত এই পরিচালকের উপস্থিতির মাধ্যমে মেক্সিকান সিনেমাকে উদযাপন করা হবে এই উৎসবে।”

২০১৭ সালে অভিবাসীদের ঘিরে ইনারিতুর ভার্চুয়াল রিয়েলিটি ‘ফ্লেশ অ্যান্ড স্যান্ড’ কানের অফিসিয়াল সিলেকশনে উপস্থাপন করা হয়।

৭২তম কান উৎসবের মূল প্রতিযোগিতা বিভাগের অন্য বিচারকদের নাম পরে জানানো হবে। আগামী ১৪ মে শুরু হয়ে উৎসব চলবে ২৫ মে পর্যন্ত।

গত বছর ৭১তম কান উৎসবে বিচারকদের প্রধান ছিলেন অস্ট্রেলিয়ান অভিনেত্রী কেট ব্ল্যানচেট। ওই আসরে সর্বোচ্চ পুরস্কার স্বর্ণ পাম জেতে জাপানের কোরি-ইদা হিরোকাজুর ‘শপলিফটারস’।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Feb/27/1551271769277.jpg
কেট ব্ল্যানচেট

 

সাম্প্রতিক বছরগুলোতে বিশ্বজুড়ে আলাদা বৈশিষ্ট্য তুলে ধরা মেক্সিকান নির্মাতা ত্রয়ীর একজন ইনারিতু। বাকি দু’জনের মধ্যে আলফনসো কুয়ারন এবার ‘রোমা’র জন্য অস্কারে সেরা পরিচালক ও গুইয়ার্মো দেল তোরোর ‘দ্য শেপ অব ওয়াটার’ গত বছর অস্কারে সেরা ছবি হয়।

আপনার মতামত লিখুন :

অভিষেকেই জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার

অভিষেকেই জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার
মিথুন চক্রবর্তী, জায়রা ওয়াসি, ঋষি কাপুর ও শ্রেতা বসু প্রসাদ

চলচ্চিত্র দুনিয়ার সবচেয়ে সম্মানজনক স্বীকৃতি ধরা হয় জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারকে। ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রির সেরা ও প্রতিভাবান অভিনেতা-অভিনেত্রীদের হাতে তুলে দেওয়া হয় এই সম্মাননা। ঠিক তেমনিভাবে ভারতীয় তারকাদেরও নজর থাকে সম্মানজনক এই পুরস্কারের দিকে।

সম্মানজনক এই স্বীকৃতি কেউ কেউ পেয়ে থাকেন ক্যারিয়ারের দীর্ঘ সময় পর। আবার যার কপাল ভালো তিনি অভিষেকেই অর্জন করেন এই সম্মান। চলুন জেনে নেওয়া যাক বলিউডের এমন কয়েকজন অভিনেতা-অভিনেত্রীর নাম যারা ইন্ডাস্ট্রিতে পা রেখেই জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার ঘরে তুলেছেন।
https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jul/21/1563717585560.jpgঋষি কাপুর
বাবা রাজ কাপুরের পরিচালিত ‘মেরা নাম জোকার’ ছবির মধ্য দিয়ে বলিউড ইন্ডাস্ট্রিতে পা রাখেন ঋষি কাপুর। যেখানে রাজু চরিত্রে অভিনয় করে জয় করে নেন দর্শকের হৃদয়। সেই সঙ্গে সেরা শিশুশিল্পী হিসেবে ১৯৭০ সালে ঘরে তোলেন জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার।
https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jul/21/1563717599795.jpgমিথুন চক্রবর্তী
রূপালি পর্দায় বলিউডের এই অভিনেতার অভিষেক হয় ১৯৭৬ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত ‘মৃগয়া’ ছবির মধ্য দিয়ে। আর প্রথম ছবিতেই বাজিমাত করে সেরা অভিনেতা হিসেবে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার অর্জন করেন বর্ষীয়ান এই তারকা।
https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jul/21/1563717612824.jpgজায়রা ওয়াসিম
এই ‘দঙ্গল’ কন্যাকে কে ভুলবেন! নীতেশ তিওয়ারি পরিচালিত এই ছবিটির মাধ্যমে জায়রার চলচ্চিত্র ক্যারিয়ার শুরু হয়। আর এই ছবিটি তাকে দিয়েছিল জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার।

বিকাশ বহেল
‘কুইন’ ছবির মাধ্যমে পরিচালক হিসেবে দারুণ জনপ্রিয় অর্জন করেছেন বিকাশ বহেল। কিন্তু বলিউড ইন্ডাস্ট্রিতে তার অভিষেক হয় ‘চিল্লার পার্টি’র মধ্য দিয়ে। এই ছবিটির সুবাদে একটি নয়, দুটি জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার অর্জন করেছেন তিনি।
https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jul/21/1563717629854.jpgশ্রেতা বসু প্রসাদ
‘মাকদে’ দিয়ে ২০০২ সালে চলচ্চিত্র ক্যারিয়ার শুরু করে শ্রেতা। ছবিটিতে তার অভিনয় দর্শকের হৃদয় ছুঁয়ে যায়। তাইতো সেরা শিশুশিল্পী হিসেবে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার অর্জন করে সে।
https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jul/21/1563717646122.jpgহর্ষ মেয়র
প্রতিভাবান এই শিশুশিল্পী ২০১৯ সালে ‘আই অ্যাম কালাম’র মাধ্যমে বলিউডে পা রাখেন। যা তাকে এনে দেয় জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার।
https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jul/21/1563717660416.jpgপার্থ গুপ্ত
পরিচালক আমল গুপ্তের মতোই প্রতিভাবান তার ছেলে পার্থ গুপ্ত। তাইতো ছোট পার্থর অভিনীত ‘স্যানলি কা ডা্ব্বা’ বাজিমাত করে বক্স অফিসে। আর অভিষেক ছবির সুবাদে ২০১১ সালে সেরা শিশুশিল্পী হিসেবে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার ঘরে তোলে সে।

সিগারেটের টানে নিক-প্রিয়াঙ্কা-মধুর আড্ডা

সিগারেটের টানে নিক-প্রিয়াঙ্কা-মধুর আড্ডা
আড্ডা দিচ্ছেন প্রিয়াঙ্কা চোপড়া, নিক জোনাস ও মধু চোপড়া

ক’দিন আগে ৩৭তম জন্মদিনের কেক কেটেছেন প্রিয়াঙ্কা চোপড়া। স্ত্রীর জীবনের বিশেষ এই দিনটিকে আরও বিশেষ করে তোলার জন্য জমকালো এক পার্টির আয়োজন করেছিলেন নিক জোনাস। যেখানে উপস্থিত ছিলেন জোনাস ও চোপড়া পরিবারের সদস্যরা। দেখা গিয়েছিল অভিনেত্রী পরিণীতি চোপড়াকেও।

জন্মদিন উদযাপন শেষে এখন মিয়ামি ঘুরে বেড়াচ্ছেন নিক জোনাস ও প্রিয়াঙ্কা চোপড়া। এই সফরে তাদের সঙ্গে রয়েছেন প্রিয়াঙ্কার মা মধু চোপড়াও। এরইমধ্যে সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়েছে এই তারকা দম্পতির ঘোরাঘুরির বেশ কয়েকটি ছবি। যার মধ্যে ভাইরাল হয়েছে একটি ছবি।

ভাইরাল হওয়া ওই ছবিটির জন্য রীতিমতো সমালোচনার মুখেও পড়তে হয়েছে প্রিয়াঙ্কা চোপড়া, নিক জোনাস ও মধু চোপড়াকে। কিন্তু কী রয়েছে সেই ছবিতে?
https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jul/21/1563707365053.jpgভাইরাল হওয়া ছবিটিতে দেখা যাচ্ছে, একটি সাম্পানে বসে সিগারেট খাচ্ছেন নিক জোনাস, প্রিয়াঙ্কা চোপড়া ও মধু চোপড়া। আর এই ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়তেই শুরু হয় আলোচনা-সমালোচনার। কেননা প্রিয়াঙ্কা নিজেই কিছুদিন আগে ফেসবুকে ধূমপানের বিপক্ষে একটি পোস্ট করেছিলেন।

ছবিটির নীচে মন্তব্য করে একজন লিখেছেন, ‘দিদি তোমার তো অ্যাজমা আছে আবার সিগারেট টানছো। এমন করলে কিভাবে চলবে দিদি?’ আরেকজন লিখেছেন, ‘জুলাইতে দিওয়ালি পালনের অধিকার শুধুমাত্র প্রিয়াঙ্কার চোপড়ারই রয়েছে।’

এ সম্পর্কিত আরও খবর

Barta24 News

আর্কাইভ

শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র