Barta24

মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০১৯, ৮ শ্রাবণ ১৪২৬

English Version

শুক্রবার সন্ধ্যায় মঞ্চে ‘চার্লি’

শুক্রবার সন্ধ্যায় মঞ্চে ‘চার্লি’
‘চার্লি’ নাটকের মহরতের দৃশ্য
বিনোদন ডেস্ক
বার্তা২৪.কম


  • Font increase
  • Font Decrease

জীবন বড় অদ্ভুত! তার চেয়েও অদ্ভুত জীবনের মানেগুলো। এই মানের পেছনেই ছুটে চলেছেন চার্লি। চলচ্চিত্রে যে চার্লি চ্যাপলিনকে দেখে আমরা অট্টহাসিতে ফেটে পড়ি, তার রয়েছে এক গভীর জীবন দর্শন। আর এই দর্শন নিয়েই নাট্যধারার প্রযোজনা ‘চার্লি’।

বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির পরীক্ষণ থিয়েটার হলে শুক্রবার (২৮ জুন) সন্ধ্যা ৭টায় মঞ্চায়িত হবে লিটু সাখাওয়াতের রচনা ও নির্দেশনায় নাটক ‘চার্লি’।

নাটকটি প্রসঙ্গে লিটু সাখাওয়াত বলেন, “আমাদের চার্লি আসলে এক অপূর্ণতা; যার পূর্ণতায় জীবনের মানে খুঁজে পাওয়া যাবে। আট আনার অর্থনৈতিক মুক্তি, আট আনার সাংস্কৃতিক মুক্তি, আট আনার সাম্প্রদায়িক মুক্তি আর আট আনার মানবিক মুক্তি। মোট দুই টাকা। দুই টাকার প্রাপ্তিতে জীবনের মানে মিলবে। তাই তো পুরো নাটকজুড়ে আমরা চার্লিকে দেখি সদা ব্যস্ত দুই টাকার সন্ধানে।”
https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jun/26/1561546380153.jpgজীবনদর্শন ও সামাজিক বাস্তবতাকে কেন্দ্র করে ফুটে উঠেছে ‘চার্লি’ নাটকের প্রধান চরিত্র চার্লি। জীবনের পথে সব ঘাত-প্রতিঘাতে হাসিমুখে বেঁচে থাকার মন্ত্র ছড়িয়েছে চরিত্রটি।

নাটকে চার্লি এক কঠিন বাস্তব। যে জীবন সুন্দর, যে জীবন নান্দনিক, অলংকৃত, সৌম্য-শান্ত-নিবিড়, অপার সম্ভাবনাময়, নিঃস্বার্থ, নিরহংকার, যে জীবন উদ্ভাসিত, উজ্জ্বল, দীপ্তময়, যে জীবন চঞ্চল, গতিময়, উচ্ছ্বল, যে জীবন প্রেমময়, শ্রদ্ধা-স্নেহ, আদর-ভালোবাসায় পরিপূর্ণ, চার্লি সেই জীবনের সাধনা করে, সন্ধান করে, আরাধনা করে। এমন দুর্বার চরিত্র ‘চার্লি’কে ঘিরে গড়ে উঠেছে নাটকের গল্প।

নাটকটির আলোক পরিকল্পনায় আছেন হেন্ডরি সেন, আলোক প্রক্ষেপণে শাকিল আহমেদ, সংগীত পরিচালনায় এজাজ ফারাহ, মঞ্চ পরিকল্পনায় রফিকুল ইসলাম ও হেন্ডরি সেন, কোরিওগ্রাফি করেছেন লিটু সাখাওয়াত ও দীপান্বিতা ইতি।
https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jun/26/1561546404339.jpg‘চার্লি’ নাটকের বিভিন্ন চরিত্রে অভিনয় করেছে লিটু সাখাওয়াত, দীপান্বিতা ইতি, নাসির উদ্দিন ভুঁইয়া, সব্যসাচী চঞ্চল, কামাল হোসেন, রফিকুল ইসলাম, গাজী রহিসুল ইসলাম, হাফসা আক্তার, মিরাজ, নাঈম, রুবেল, ছন্দা রিনা গীতি এবং দলের অন্যান্য কর্মীরা।

আপনার মতামত লিখুন :

‘স্বপ্নবাজি’তে চুক্তিবদ্ধ হলেন মাহি-পিয়া

‘স্বপ্নবাজি’তে চুক্তিবদ্ধ হলেন মাহি-পিয়া
মাহিয়া মাহি ও পিয়া জান্নাতুল

তরুণ নির্মাতা রায়হান রাফির তৃতীয় সিনেমা ‘স্বপ্নবাজি’। ফ্যাশন জগতের গল্প নিয়ে নির্মিত হবে সিনেমাটি কয়েক মাস আগেই এমনটা ঘোষণা দিয়েছিলেন রাফি।

সোমবার (২২ জুলাই) ছবিটিতে অভিনয়ের জন্য আনুষ্ঠানিকভাবে চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন মডেল-উপস্থাপিকা পিয়া জান্নাতুল। আজ রাতে চুক্তিবদ্ধ হবেন চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি। বার্তাটোয়েন্টিফোর.কমকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন পরিচালক রায়হান রাফি।

শোনা যাচ্ছে, সিনেমাটির নায়ক হিসেবে থাকছেন সিয়াম আহমেদ। তবে এ বিষয়ে এখনও আনুষ্ঠানিকভাবে কোন ঘোষণা দেওয়া হয়নি।
https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jul/23/1563891795510.jpgসিনেমাটিতে আরও দেখা যেতে পারে জয়া আহসান ও নুসরাত ইমরোজ তিশাকে। তারা দু’জন এখনও চুক্তিবদ্ধ হননি।

নির্মাতা সূত্রে জানা গেছে, জোড়া নায়ক–নায়িকার এই সিনেমাটির দৃশ্যধারণের কাজ শুরু হবে আগামী আগস্ট থেকে। পি এইচ এন্টারটেইনমেন্টের ব্যানারে সিনেমাটি প্রযোজনা করছেন পিয়াল হোসাইন।

অক্ষয়ের ২০ বছর আগে দেওয়া অটোগ্রাফ

অক্ষয়ের ২০ বছর আগে দেওয়া অটোগ্রাফ
অক্ষয় কুমার

প্রিয় তারকার জন্য প্রায় সময় ভক্তরা নানা ধরনের পাগলামী করে থাকেন। এমনকি ভক্তের জন্যও অনেক সময় অনেক কিছু করতে দেখা যায় তারকাদের। এরই ধারাবাহিকতায় ২০ বছর আগে এক ভক্তের জন্য একটি উপহার পাঠিয়েছিলেন অক্ষয় কুমার।

মঙ্গলবার (২৩ জুলাই) ২০ বছর আগে অক্ষয়ের দেওয়া সেই উপহারের একটি ছবি তুলে টুইটারে শেয়ার করেছেন আনন্দ গালান্দে নামে এক ব্যক্তি। কিন্তু কী ছিলো সেই উপহার?
https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jul/23/1563890136135.jpgআনন্দর করা টুইটে দেখা যাচ্ছে, অক্ষয় কুমারের সাদা শার্ট পরা বুক খোলা একটি ছবি। আর সেই ছবিটির নীচে রয়েছে তার অটোগ্রাফ। এর ক্যাপশনে লেখা রয়েছে, প্রিয় অক্ষয় কুমার স্যার ১৯৯৭ সালে এই উপহারটি আপনি আমাকে পাঠিয়েছিলেন। সেসময় আমি আপনাকে একটি চিঠি পাঠানোর পর আপনি উপহার হিসেবে আপনার অটোগ্রাফসহ এই ছবিটি পাঠিয়েছিলেন। আশা করছি আপনার মনে আছে।

আনন্দর এই টুইটের জবাব দিয়ে অক্ষয় কুমার টুইটারে লিখেছেন, অবশ্যই আমার মনে আছে। আশা করছি আপনি ভালো আছেন। ঈশ্বর আপনার মঙ্গল করুক।

অক্ষয় কুমার এখন ব্যস্ত রয়েছেন ‘মিশন মঙ্গল’ ছবির প্রচারণা নিয়ে। এছাড়াও তার হাতে রয়েছে ‘সূর্যবংশী’ ও ‘গুড নিউজ’ ছবি দুটির কাজ।

এ সম্পর্কিত আরও খবর

Barta24 News

আর্কাইভ

শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র