জিএম কাদের বিরোধীদের সাইজ করার হুমকি দিলেন রাঙ্গা

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট, বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম, ঢাকা
মশিউর রহমান রাঙ্গা

মশিউর রহমান রাঙ্গা

  • Font increase
  • Font Decrease

সরকারের বিরাগভাজন হওয়ার শঙ্কা প্রকাশ করছেন জাতীয় পার্টির মহাসচিব মসিউর রহমান রাঙ্গা। এ জন্য বাড়িতে স্ত্রীর কাছে কিছু টাকা পয়সা রেখে দেওয়ার পরামর্শ  দিলেন নেতাকর্মীদের।

বৃহস্পতিবার (১ আগস্ট) আইডিইবি মিলনায়তনে এরশাদের স্মরণসভায় তিনি এ মন্তব্য করেন।

রাঙ্গা বলেন, আমি এক সভায় বলেছিলাম দুই নাগিনীর একই বিষ নৌকা আর ধানের শীষ। এই বক্তব্যে পর জবাব দিতে হয়েছে। আমাকে বলা হলো ভালো সম্পর্ক। আমি বললাম আমার দল বাদ দিয়ে সম্পর্ক হতে পারে না। আগে আমার দল।

পার্টির শক্তিশালী হলে অনেকের বিরাগভাজন হতে পারেন। এতে ঝুট ঝামেলা আসতে পারে। আলরেডি আলামত পাওয়া যাচ্ছে। তাই বাড়িতে স্ত্রীর কাছে খরচ বরজ দিতে রাখবেন। আমিও রেডি আছি। আমি হুমকিকে ভয় পাই না। আমরা ছোটো দল নাকি বড় দল ২০২৩ সালে প্রমাণ করে দিবো।

তিনি বলেন, জাতীয় পার্টি জিএম কাদেরের নেতৃত্বে চলবে। এখানে রওশন এরশাদের কোনো কথা নেই।  আমি গতকালও রওশন এরশাদের সঙ্গে কথা বলেছি। উনি বলেছেন জিএম কাদের দল চালাবে। পার্টিতে যারা গ্রুপিং করার চেষ্টা করছে তাদের একটু সাইজ করার দরকার। কার্ট টু সাইজ করতে হবে।

সরকারের সমালোচনা করে বলেন, অর্থমন্ত্রী ডেঙ্গুর কারণে বাজেট বক্তৃতা করতে পারেন নি। এর চেয়ে বড় লজ্জার কিছু নেই। আপনাদের  একটা মশা মারার ক্ষমতা নেই। কেমন আপনারা।

স্বাস্থ্য মন্ত্রীর বিদেশ সফর প্রসঙ্গ টেনে বলেন, আমার মনে হয় উনি ডেঙ্গুর ভয়ে পালিয়েছিলেন। এ অবস্থায় কেউ দেশের বাইরে যায়। পরে সমালোচনার ভয়ে ফিরে এসেছেন। এরশাদের যখন ক্ষমতায় ছিলেন, তখন সকালে বিকেলে ফ্লাগ চেক করতে হতো মন্ত্রীদের। তখন জবাবদিহিতা ছিলো, এখন কোনো জবাবদিহিতা নেই।

রাঙ্গা বলেন, আন্তর্জাতিক রাজনীতির কারণে এরশাদকে ক্ষমতা ছাড়তে হয়েছে। পাকিস্তান যখন এক দিনে ৪২টি প্লেন বাংলাদেশকে দিলো সেদিনে ষড়যন্ত্র শুরু। তখন রাজীব গান্ধী ছিলেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী। উনি বললেন এরশাদকে আর বিশ্বাস করা যায় না। ভারতের কারণে এই পরাজয়।

প্রেসিডিয়াম সদস্য সৈয়দ আবু হোসেন বাবলা বলেন, বাস্তবতা বুঝতে হবে। আমাকে টিকিট দিয়েছে এরশাদ। কিন্তু এমপি বানিয়েছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, এটা রিয়েলিটি। আমরা সরকারের আচার আচরণ দেখছি, সময় কথা বলবে।

প্রেসিডিয়াম সদস্য সৈয়দ আবু হোসেন বাবলার সভাপতিত্বে স্মরণসভায় অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন প্রেসিডিয়াম সদস্য সহিদুর রহমান টেপা, এসএম ফয়সল চিশতী, অ্যাড. রেজাউল ইসলাম ভুইয়া, ভাইস চেয়ারম্যান ইকবাল হোসেন রাজু, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ জাপার সাধারণ সম্পাদক জহিরুল আলম,  সবুজবাগ থানা জাপার সভাপতি এমএ কাইয়ুম প্রমুখ।

আপনার মতামত লিখুন :