‘বিএনপি নেতাকর্মীরা সরকারকে একটা মেসেজ দিয়েছেন’

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম, ঢাকা
অপরাজেয় বাংলা আয়োজিত মানববন্ধন কর্মসূচিতে বক্তব্য রাখেন জয়নুল আবদিন ফারুক

অপরাজেয় বাংলা আয়োজিত মানববন্ধন কর্মসূচিতে বক্তব্য রাখেন জয়নুল আবদিন ফারুক

  • Font increase
  • Font Decrease

বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য জয়নুল আবদিন ফারুক বলেছেন, বিএনপির প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর র‌্যালির দিন দলের নেতাকর্মীরা সরকারকে একটা মেসেজ (বার্তা) দিয়েছেন যে, তারা রাস্তায় নামলে সরকার ক্ষমতায় টিকে থাকতে পারবে না।

বুধবার (৪ সেপ্টেম্বর) জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে আয়োজিত মানববন্ধন কর্মসূচিতে এ কথা বলেন তিনি। অপরাজেয় বাংলা নামে একটি সংগঠন এ মানববন্ধনের আয়োজন করে।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে জয়নুল আবদিন ফারুক বলেন, ২ সেপ্টেম্বর পার্টি অফিসের সামনে বিএনপির নেতাকর্মীরা আপনাদের (সরকারকে) একটা মেসেজ দিয়েছে। র‌্যালির জন্য মাত্র কয়েক ঘণ্টা আগে অনুমতি দিয়েছেন, তাতেই কয়েক লাখ মানুষ একত্রিত হয়েছে। এ থেকেই বোঝা যায়—এই লোকেরা রাস্তায় নামলে আপনারা ক্ষমতায় টিকে থাকতে পারবেন না। এত নেতাকর্মীদের সবার মনে একটাই আকাঙ্ক্ষা খালেদা জিয়াকে মুক্ত করা। তাই এই মেসেজটা একটু চিন্তাভাবনা করবেন।

সরকারের সমালোচনা করে বিরোধী দলের সাবেক এই চিফ হুইপ বলেন, দেশের স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠানগুলোর টাকা সরকারের কাছে জমা হচ্ছে। কয়েকদিন আগে দেখলাম ঈদের বোনাস সরকারি কর্মকর্তারা পান নাই। কয়েকদিন আগে বিদ্যুৎ ও গ্যাসের দাম বাড়িয়ে দিলেন। প্রত্যেকটা নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের দাম লাগামহীনভাবে বাড়িয়ে দিচ্ছেন, কোনো প্রতিকার নেই।

জয়নুল আবদিন ফারুক বলেন, ঢাকা শহর ডেঙ্গুতে সয়লাব, প্রতিরোধ করতে পারেনি সরকার। শেয়ারবাজারের লুটকারীদের, ঋণ খেলাপিদের তালিকা প্রকাশ করতে পারেনি। তাই এই সরকারের কাছে প্রশ্ন, এভাবে কয়দিন ক্ষমতায় থাকবেন? সরকারি কোষাগার শূন্য করে, টাকা লুট করে দেশের বাইরে নিয়ে যাচ্ছে, লুট হয়ে যাচ্ছে ব্যাংক। দেশের উন্নয়ন নাই, জনগণের উন্নয়ন নাই, উন্নয়নের নামে হচ্ছে কয়েকটা মেগা প্রজেক্ট, ওই মেগা প্রজেক্ট করা হয় এই কারণে যেন লুটপাট-দুর্নীতি বেশি করতে পারে।

মানববন্ধনে আরও উপস্থিত ছিলেন, বিএনপির নির্বাহী কমিটির সদস্য রাজিয়া আলিম, কৃষকদলের সদস্য লায়ন মিয়া মোহাম্মদ আনোয়ার, কে এম রকিবুল ইসলাম রিপন, চালকদলের সভাপতি জসিম উদ্দিন, আয়োজক সংগঠনের সহ-সভাপতি মোহাম্মদ ইব্রাহিম, সাধারণ সম্পাদক ইসমাইল হোসেন সিরাজী প্রমুখ।

আপনার মতামত লিখুন :