হেনস্তার কথা প্রকাশ্যে আনতে নারাজ ফাতিমা



বিনোদন ডেস্ক
ফাতিমা সানা শেখ

ফাতিমা সানা শেখ

  • Font increase
  • Font Decrease

২০১৭ সালের অক্টোবরে নির্মাতা হার্ভে উইনস্টেইনের বিরুদ্ধে যৌন নিপীড়নের দু’টি প্রতিবেদন প্রকাশ করেছিলো নিউইয়র্ক টাইমস ও নিউইয়র্কার। আর এতেই কাঁপুনি ধরে যায় পুরো বিশ্বের রূপালি জগতে।

হলিউডের অনেক খ্যাতিমান তারকারা উইনস্টেইনের যৌন নিপীড়নের শিকার হয়েছেন বলে অভিযোগ তুলতে থাকেন। এরপরই শুরু হয় ‘মিটু’ (#MeToo) শীর্ষক হ্যাশট্যাগ প্রচারণা, যার মাধ্যমে বলা হতে থাকে ‘আমিও নিপীড়নের শিকার হয়েছি’।
https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Mar/14/1552549821378.jpg

হলিউডের পর #MeeToo ঝড় বইতে শুরু করে বলিউড ইন্ডাস্ট্রিতেও। আর শুরুটা করেছিলেন অভিনেত্রী তনুশ্রী দত্ত। অভিনেতা নানা পাটেকরের বিরুদ্ধে যৌন হেনস্তার অভিযোগ তুলে সকলকে তাক লাগিয়ে দিয়েছিলেন ‘আশিক বানায়া’খ্যাত এই তারকা। এরপর একে একে অনেক অভিনেত্রীই নিজেদের যৌন হেনস্তার কথা প্রকাশ্যে আনতে শুরু করে।

একদিকে যখন নিজেদের যৌন হেনস্তার বিরুদ্ধে মুখ খুলে ইন্ডাস্ট্রির বেশিরভাগ নারী রুখে দাঁড়িয়েছেন, কিন্তু এই পথে হাঁটতে নারাজ ফাতিমা সানা শেখ।

সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে ‘দঙ্গল’খ্যাত এই তারকা জানান, “আমি জীবনের এই দিকটি নিয়ে প্রকাশ্যে আলোচনা করতে চাই না। একমাত্র আমার ঘনিষ্ঠ ব্যক্তিদের সঙ্গেই এই বিষয়ে আলোচনা করেছি আমি। অনেকেই নিজের ভয়ংকর অভিজ্ঞতার কথা শেয়ার করেছেন। তবে, আমি আমার ব্যক্তিগত অভিজ্ঞতা শেয়ার না করার জন্যও কারও দ্বারা সমালোচিত হতে চাই না।”
https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Mar/14/1552549833594.jpg

নিজের অভিজ্ঞতা শেয়ার না করতে চাইলেও, #MeToo মুভমেন্টকে স্বাগত জানিয়ে ফাতেমা বলেন- যৌন হেনস্তার কথা প্রকাশ্যে আসার কারণে অনেকেরই লাভ হয়েছে। যারা নিজেদের ক্ষমতার অপব্যবহার করে এতদিন মেয়েদের হেনস্তা করে এসেছেন, তারা এখন সতর্ক হবেন। ভবিষ্যতেও কিছু করার আগে ভাববেন।

শুধু হলিউড-বলিউড নয়, যৌন হেনস্তার শিকার নিয়ে মুখ খুলছিলেন সাবেক ‘মিস আয়ারল্যান্ড’ মাকসুদা আখতার প্রিয়তিও।