খালেদা জিয়ার শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে দায় সরকারের: মওদুদ



সেন্ট্রাল ডেস্ক ৪

  • Font increase
  • Font Decrease
বিএনপির নেতা মওদুদ আহমদ বলেছেন, খালেদা জিয়ার শারীরিক অবস্থার কোনো অবনতি হলে এর দায় সরকারকে নিতে হবে। তাঁকে কারাগারে যেভাবে রাখা হয়েছে, তাতে তিনি মানসিকভাবে অসুস্থ হয়ে পড়ছেন বলে অভিযোগ করেন মওদুদ। বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য আজ শনিবার কারাগার থেকে হাসপাতালে আনা হয়েছে। এ উপলক্ষে হাসপাতালের সামনে বিএনপির শীর্ষ স্থানীয় নেতা মওদুদ আহমদ, মাহবুব উদ্দিন খোকনসহ শতাধিক নেতা-কর্মীকে দেখা যায়। সেখানেই মওদুদ সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন। মওদুদ বলেন, খালেদা জিয়ার চিকিৎসার ভার সরকারে নেওয়ার প্রয়োজন নেই। তাঁকে মুক্তি দিলে তিনি নিজেই নিজের চিকৎসা করাতে পারবেন। তিনি যে সত্যিকারের অসুস্থ, আজকের এ অবস্থায় তা প্রমাণিত হয়েছে। তাঁকে হাটিয়ে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। এতে তাঁর শারীরিক অবস্থার অবনতি হবে; কেননা তাঁর হাঁটুতে ব্যাথা। কী কারণে তাঁর পরীক্ষা করা হচ্ছে, এ ব্যাপারে বিস্তারিত জানেন না উল্লেখ করে তিনি অনতিবিলম্বে খালেদা জিয়া মুক্তি দাবি করেন। মাহবুব উদ্দিন খোকন বলেন, খালেদা জিয়ার চিকিৎসার জন্য সরকার যে বোর্ড গঠন করেছে, সেখানে সরকারের চিকিৎসকদের পাশাপাশি খালেদা জিয়ার ব্যক্তিগত চিকিৎসক নিউরোমেডিসিনের ওয়াহিদুজ্জামান ও মেডিসিনের এফ এম সিদ্দীকীসহ কয়েকজন আছেন। গতকাল মির্জা ফখরুল কারাগারে দেখতে যান খালেদা জিয়াকে। সেখান থেকে বেরিয়ে তিনি সাংবাদিকদের বলেন, ‘খালেদা জিয়ার মনোবল অত্যন্ত শক্ত। তিনি আমাদের চেয়েও শক্ত মনের মানুষ। তিনি বারবার এ কথা বলেছেন, আমার (খালেদা) জন্য আপনারা ভাববেন না, আমি ভালো আছি এবং এসব ছোটখাটো সমস্যা আমাকে সমস্যায় ফেলবে না।’