ঠাকুরগাঁওয়ে শীতের আগাম বার্তা

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম, ঠাকুরগাঁও
ঠাকুরগাঁও জেলায় নেমে এসেছে শীতের আমেজ, ছবি: বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম

ঠাকুরগাঁও জেলায় নেমে এসেছে শীতের আমেজ, ছবি: বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম

  • Font increase
  • Font Decrease

গত কয়েকদিনের টানা বৃষ্টির পর রাতে ও ভোরের হালকা কুয়াশা, দুর্বা ঘাসের মাথায় শিশির বিন্দু জানিয়ে দিচ্ছে ঠাকুরগাঁওয়ে শীত আসছে। ইতোমধ্যেই মৌসুমি বায়ু বিদায় নিয়েছে। সারদিনের তীব্র গরম শেষে সন্ধ্যা থেকে শুরু হচ্ছে হালকা হিমেল হাওয়া, সঙ্গে নামছে কুয়াশা। রাতভর পড়ছে টিপটিপ বৃষ্টির মতো কুয়াশা।

বুধবার (১৫ অক্টোবর) জেলার বিভিন্ন জায়গায় গেলে দেখা যায়, ঘাসের ওপর ভোরের সূর্য হালকা লালচে রঙয়ের ঝিলিক দিচ্ছে। দূর থেকে দেখলে মনে হয় প্রতিটি ঘাসের মাথায় মুক্তোর মতো শিশির কণা জমে আছে।

মূলত পৌষ-মাঘ এই দুই মাস শীতকাল ধরা হলেও আশ্বিন-কার্তিকের দিকেই গুটি গুটি পায়ে শীতের আগাম বার্তা জানান দেয়।

হিমালয়ের খুব নিকটবর্তী হওয়ায় ঠাকুরগাঁও জেলায় শীতের আমেজ নেমে আসে বেশ আগে ভাগেই। সারাদিনের ভ্যাপসা গরমের পর রাতের প্রকৃতিতে শুরু হয়েছে শীতের হিমেল হাওয়া। অপরূপ হেমন্তের সকালে মিষ্টি রোদ পড়ছে গাছের সবুজ পাতার ওপরে। কুয়াশার সকালে শিশির ভেজা মাটিতে ঝরে পড়ছে শিউলি ফুল। কুয়াশায় চাদরে ঢেকে আছে রাস্তা-ঘাট। সড়কে যানবাহন চলছে ধীর গতিতে হেডলাইট জ্বালিয়ে। এসবই জানান দিচ্ছে প্রকৃতিতে শীত এসেছে।

সদর উপজেলার সালন্দর ইউনিয়নের বাসিন্দা বাপ্পি জানান, গত কয়েকদিনের অবিরাম বৃষ্টির কারণে এবছর আগাম শীত অনুভব হচ্ছে। দিনের বেলা কিছুটা গরম থাকলেও সন্ধ্যা নামার পর থেকেই কুয়াশা পড়তে শুরু করে। রাতভর হালকা বৃষ্টির মতো টুপটাপ করে কুয়াশা পড়ার শব্দ শোনা যায়। বিশেষ করে মাঠে ঘাস ও ধানের শীষে বিন্দু বিন্দু কুয়াশা জমতে দেখা যাচ্ছে। দেখতে অনেক ভালো লাগে।

শহরের জেলা স্কুল বড়মাঠে হাঁটতে আসা আক্কাস নামে একজন জানান, এবারে একটু আগেই শীতের আগমন হলো। সকালে আমরা যারা ঘাসের ওপর দিয়ে হাঁটাচলা করি, কুয়াশার কারণে আমাদের কাপড় ভিজে যায়। সেই সঙ্গে হালকা ঠাণ্ডা বাতাসও গায়ে কাঁপুনি দিচ্ছে।

আপনার মতামত লিখুন :