আইপিওর আবেদন প্রত্যাহার চায় ডেলটা হসপিটাল

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, ঢাকা
ডেলটা হসপিটাল

ডেলটা হসপিটাল

  • Font increase
  • Font Decrease

প্রত্যাশা অনুযায়ী কাট-অফ প্রাইস নির্ধারিত না হওয়ায় প্রাথমিক গণপ্রস্তাবের (আইপিও) আবেদনের ফাইল প্রত্যাহার চায় ডেলটা হসপিটাল কর্তৃপক্ষ। সম্প্রতি এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে কোম্পানিটি।

এ বিষয়ে বিএসইসির নির্বাহী পরিচালক ও মুখপাত্র মো. সাইফুর রহমান বলেন, ডেলটা হসপিটালের পরিচালনা পর্ষদ সভায় ফাইল প্রত্যাহারের সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এটা তারা নিতে পারে। তারা কাঙ্ক্ষিত মাত্রায় দর না পাওয়ায় হয়তো এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছে। আমাদের কাছে চিঠি দিয়েছে। এখন দেখা যাক কমিশন কি সিদ্ধান্ত নেয়।

ডেলটা হসপিটাল বিডিং শেষে ফাইল প্রত্যাহার করতে চাইলেও বিডারদের স্বার্থ জড়িত রয়েছে। কারণ বিডারদেরকে বিডিংয়ে অংশ নেওয়ার আগেই তাদের অর্থ জমা দিতে হয়েছে। যার বয়স প্রায় আড়াই মাস। এখন ফাইল প্রত্যাহারে বিডারদের অর্থের এই আড়াই মাসের স্বার্থকে রক্ষা করবে। তারা নিলামে অংশ না নিলে ওই অর্থ অন্যথায় ব্যবহার করতে পারত।

এর আগে ২২ মার্চ থেকে ২৫ মার্চ পর্যন্ত বিডিংয়ে ডেলটা হসপিটালের কাট-অফ প্রাইস ১১ টাকা নির্ধারিত হয়েছে। বিডিংয়ে ৮৮ জন বিডার দর প্রস্তাব করেন। এরমধ্যে ১৫ টাকা দরে সবচেয়ে বেশি ১৪ জন বিডার দর প্রস্তাব করেছেন। এরপরে ১৪ টাকায় দ্বিতীয় সর্বোচ্চ দর প্রস্তাব করেছেন ১১ জন বিডার।

বিডিংয়ে ৮৮ জন বিডার সর্বোচ্চ ৪৬ টাকা থেকে সর্বনিম্ন ১১ টাকার মধ্যে দর প্রস্তাব করেছেন। তারা মোট ৩২ কোটি ৩৯ লাখ ৮৭ হাজার ৯০০ টাকার দর প্রস্তাব করেছেন।

এর আগে গত ১১ ফেব্রুয়ারি বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) ৭১৮তম সভায় কোম্পানিটির বিডিংয়ের অনুমোদন দেওয়া হয়।

কোম্পানিটি বুক বিল্ডিং পদ্ধতিতে আইপিও মাধ্যমে বাজার থেকে ৫০ কোটি টাকা উত্তোলন করবে। যা দিয়ে যন্ত্রপাতি ক্রয়, ব্যাংক ঋণ পরিশোধ এবং আইপিও খরচ খাতে ব্যয় করা হবে।

৩০ জুন ২০১৯ সমাপ্ত আর্থিক বিবরণী অনুযায়ী কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি নিট সম্পদ মূল্য (পুনর্মূল্যায়ন সঞ্চিতিসহ) দাঁড়িয়েছে ৪৫.৮৪ টাকায় এবং শেয়ারপ্রতি নিট সম্পত্তি মূল্য (পুনর্মূল্যায়ন সঞ্চিতি ব্যতিত) দাঁড়িয়েছে ১৬.৬২ টাকায়। আর ২০১৮-১৯ অর্থবছরে শেয়ারপ্রতি মুনাফা (ইপিএস) হয়েছে ২.১০ টাকা।

কোম্পানির ইস্যু ব্যবস্থাপনার দায়িত্বে নিয়োজিত রয়েছে প্রাইম ফাইন্যান্স ক্যাপিটাল ম্যানেজমেন্ট লিমিটেড এবং রেজিস্টার টু দ্য ইস্যুর দায়িত্বে রয়েছে আইসিবি ক্যাপিটাল ম্যানেজমেন্ট।

আপনার মতামত লিখুন :