করোনার কারণে প্রার্থীদের জনসভা পরিহারের পরামর্শ সিইসির

  বাংলাদেশে করোনাভাইরাস

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, ঢাকা
সিইসি কেএম নূরুল হুদা, ছবি: সংগৃহীত

সিইসি কেএম নূরুল হুদা, ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

করোনাভাইরাসের বিস্তার রোধে আসন্ন চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন (চকিস) নির্বাচন, পাঁচ আসনের উপ-নির্বাচনসহ সব নির্বাচনের প্রার্থীদের প্রচার কাজে জনসভা ও পথসভা পরিহার করার পরামর্শ দিয়েছেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কেএম নূরুল হুদা। এক্ষেত্রে তিনি বিকল্প প্রচার মাধ্যম বেছে নেওয়া অনুরোধ জানিয়েছেন।

নির্বাচন প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউটে ঢাকা-১০ আসনের উপ-নির্বাচনে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষায় করণীয় ঠিক করতে আয়োজিত এক বৈঠকে তিনি এ অনুরোধ জানান।

জাতীয় রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠান (আইইডিসিআর) সব ধরনের জনসমাগম এড়িয়ে চলার নির্দেশনার বিষয়টি সাংবাদিকরা সামনে আনলে সিইসি বলেন, আমার এখনই বিষয়টি টেক আপ করব। মেসেজটা পৌঁছানোর ব্যবস্থা করব, আগামীতে আমাদের যত নির্বাচন আছে, প্রার্থীরা যেন সীমিত আকারে অন্য ডিভাইসের মাধ্যমে প্রচার করেন, যেন জনসভা, পথসভা পরিহার করেন, সে অনুরোধ করব। চট্টগ্রাম সিটি নির্বাচন বন্ধ করিনি এখন। যতক্ষণ বন্ধ করিনি, ততক্ষণ হবে।

সময় ঘনিয়ে আসার কারণ দেখিয়ে সিইসি বলেন, করোনাভাইরাস নিয়ে আমরা অত্যন্ত শঙ্কিত। আমাদের আশঙ্কা আছে, দুশ্চিন্তাগ্রস্থ আছি। যেহেতু নির্বাচনের আর মাত্র কয়েকটা দিন বাকি আছে, সুতরাং ২১ মার্চের নির্বাচন আমরা স্থগিত করার সিদ্ধান্ত নিতে পারব না। আল্লাহর রহমতে ঠিক হয়ে যাবে হয়তো। আগামী ২১ তারিখের নির্বাচনটা পেছাতে চাচ্ছি না। এর মধ্যেই আমাদের কাজ করতে হবে। তবে যারা নির্বাচনী দায়িত্ব পালন করবেন, তাদের সতর্ক অবস্থায়, স্বাস্থ্য অধিদফতরের নির্দেশনা মেনে কাজ করতে হবে। তাহলে নির্বাচনে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি হবে না।

নির্বাচন স্থগিত না করার পেছনে যুক্তি তুলে ধরে তিনি বলেন, আমরা এমন একটা জাতি, যার ন্যাচারাল টলারেন্স আছে। হাজার বছরের অভ্যাস প্রকৃতির সঙ্গে যুদ্ধ করে টিকে থাকা। জলোচ্ছ্বাস, ঘূর্ণিঝড়, মহামারি, কলেরা, বসন্ত, ম্যালেরিয়া, আবার মানবসৃষ্ট দুর্যোগ-যেমন রানা প্লাজার ধস, অগ্নিকাণ্ড, হলি আর্টিজানের ঘটনা, মানুষ স্বতঃস্ফূর্তভাবে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে দুর্যোগ মোকাবিলা করেছে।

এ সময় অন্যদের মধ্যে তিন নির্বাচন কমিশনার, নির্বাচন কমিশনের (ইসি) সিনিয়র সচিব মো. আলমগীর, ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) শফিকুল ইসলামসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

প্রসঙ্গত আগামী ২৯ মার্চ চসিক নির্বাচন এবং বগুড়া-১ ও যশোর-৬ আসনের উপ-নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে।

উল্লেখ্য, করোনার কারণে বিশ্বব্যাপী মহামারি দেখা দিয়েছে। এতে বাংলাদেশে করোনাভাইরাস আক্রান্ত আটজনকে শনাক্ত করা হয়েছে। 

আপনার মতামত লিখুন :

  বাংলাদেশে করোনাভাইরাস