২১ মার্চেই উপ-নির্বাচন, হাত ধুয়ে ভোট দেওয়ার পরামর্শ

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম
নির্বাচন কমিশনের সিনিয়র সচিব মো. আলমগীর

নির্বাচন কমিশনের সিনিয়র সচিব মো. আলমগীর

  • Font increase
  • Font Decrease

করোনাভাইরাসের মধ্যেও আগামী ২১ মার্চেই উপ-নির্বাচনের ভোট অনুষ্ঠিত হবে জানিয়ে সবাইকে হাত ধুয়ে ভোট দেওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন নির্বাচন কমিশনের (ইসি) সিনিয়র সচিব মো. আলমগীর।

তিনি বলেছেন, ‘বিশ্বব্যাপী করোনাভাইরাসের প্রকোপের মধ্যে জনস্বাস্থ্যের হুমকি দেখছে না নির্বাচন কমিশন। সেজন্য আগামী ২১ মার্চের উপ-নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। ভোটাররা হাত ধুয়ে ভোট দেবেন। ভোট দিয়ে আবার হাত ধোবেন।’

বৃহস্পতিবার (১৯ মার্চ) অনির্ধারিত কমিশন বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের তিনি এসব কথা বলেন। আগামী ২১ মার্চ ঢাকা-১০, গাইবান্ধা-৩, বাগেরগাট-৪ আসনের উপ-নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

মো. আলমগীর বলেন, ‘করোনার মধ্যে নির্বাচনের সুবিধা-অসুবিধা আলোচনা করা হয়েছে। এতে সুবিধাই বেশি দেখছে কমিশন। তাই ২১ মার্চ নির্বাচন বন্ধ না করার সিদ্ধান্ত দিয়েছে। এখনো সরকার সবকিছু লকডাউন করেনি। আজকের একনেক সভাতেও প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, কাজ বন্ধ করা যাবে না।’

সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘প্রতি ভোটকেন্দ্রে হ্যান্ড সেনিটাইজার থাকবে। ভোট দেওয়ার আগে ও পরে ভোটাররা এটা ব্যবহার করবেন। কেউ যদি নিজেকে করোনায় আক্রান্ত বলে মনে করেন, তারা ভোট দিতে আসবেন না।’

ইসি সচিব বলেন, ‘একজন ভোটার আসলেও আইন অনুযায়ী নির্বাচন করতে হবে। প্রার্থীরাও আমাদের নির্বাচন বন্ধ না করার অনুরোধ করেছেন।’

মো. আলমগীর বলেন, ‘করোনা এখনো মহামারি আকারে ছড়ায়নি। এজন্য কমিশন নির্বাচনটা সম্পন্ন করা যুক্তিযুক্ত মনে করছে। তবে করোনার কারণে ভোটার উপস্থিতি কম হবে ধরে নিয়েই আমরা নির্বাচন করছি।’

সংবাদ সম্মেলনে ইসির যুগ্ম সচিব ফরহাদ আহাম্মদ খান, এসএম আসাদুজ্জামান, জনসংযোগ পরিচালক মোহা. ইসরাইল হোসেন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

আপনার মতামত লিখুন :