কানে শত আলোকচিত্রীর সামনে বাঁধন



বিনোদন ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
আজমেরী হক বাঁধন

আজমেরী হক বাঁধন

  • Font increase
  • Font Decrease

কান উৎসবের অফিসিয়াল সিলেকশনে যেসব চলচ্চিত্র স্থান পায়, সেগুলোর কলাকুশলীদের লালগালিচাসহ নানান আয়োজনে অংশ নিতে হয়। বাংলাদেশের ‘রেহানা মরিয়ম নূর’ ছবির সঙ্গে সম্পৃক্ত ৮ জন এসব সম্মান পাচ্ছেন।


এদিকে, উৎসবের শুরুর দিন লালগালিচায় হাঁটার আমন্ত্রণ পেয়েও সেখানে পা গলাননি ‘রেহানা মরিয়ম নূর’ ছবির সঙ্গে সম্পৃক্ত কেউই।

কিন্তু বৃহস্পতিবার (৮ জুলাই) বিকেলে কান উৎসবের প্রাণকেন্দ্র পালে দে ফেস্টিভাল ভবনের ছাদবারান্দায় ফটোকলে পৃথিবীর বিভিন্ন দেশের আলোকচিত্রীদের সামনে দাঁড়িয়েছেন পরিচালক আবদুল্লাহ মোহাম্মদ সাদ, অভিনেত্রী আজমেরী হক বাঁধন, প্রযোজক জেরেমি চুয়া এবং নির্বাহী প্রযোজক এহসানুল হক বাবু।

‘রেহানা মরিয়ম নূর’ ছবির কলাকুশলীরা

এদিন, মেরুণ রঙের মখমলের কাপরের তৈরি স্লিভলেস গাউন পরে শত শত আলোচিত্রীর সামনে ছবি তোলার জন্য পোজ দিয়েছেন বাঁধন।

কানের সম্মানজনক অফিসিয়াল সিলেকশনের আঁ সার্তে রিগা বিভাগে বাংলাদেশের প্রথম ছবি হিসেবে জায়গা করে নিয়েছে ‘রেহানা মরিয়ম নূর’। পালে দে ফেস্টিভাল ভবনের সাল দুবুসিতে বৃহস্পতিবার কান উৎসবের তৃতীয় দিনে সকাল ৮টা ৩০ মিনিটে (বাংলাদেশ সময় দুপুর ১২টা ৩০ মিনিট) ‘রেহানা মরিয়ম নূর’ আবার দেখানো হয়।


এদিনও ১ হাজার ৬৮ আসনের প্রেক্ষাগৃহটি পরিপূর্ণ ছিলো দর্শকে। প্রদর্শনী শেষে সবাই ছবিটির ভূয়সী প্রশংসা করেছেন। এরপর সকাল ১০টায় (বাংলাদেশ সময় দুপুর ২টা) কান শহরের মাল্টিপ্লেক্স ‘সিনেয়ুম অরা’য় এর আরেকটি প্রদর্শনী হয়েছে। এখানেও বেশ উৎসাহ নিয়ে ছবিটি দেখতে সমবেত হন দর্শকরা।


গত ৭ জুলাই সাল দুবুসি প্রেক্ষাগৃহে ওয়ার্ল্ড প্রিমিয়ারের পর থেকে প্রশংসায় ভাসছে ‘রেহানা মরিয়ম নূর’। প্রদর্শনী শেষের পর দর্শকরা দাঁড়িয়ে করতালির মাধ্যমে অভিবাদন জানিয়েছেন। এরপর আমেরিকান সংবাদমাধ্যম দি হলিউড রিপোর্টার, ব্রিটিশ ম্যাগাজিন স্ক্রিন ডেইলি, ফ্রান্স টোয়েন্টি ফোর, ভারতের ইংরেজি ভাষার সংবাদ চ্যানেল উইওন ছবিটি নিয়ে ইতিবাচক পর্যালোচনা প্রকাশ করেছে।