কোভিশিল্ড ‘নিরাপদ’, স্বেচ্ছাসেবীর অসুস্থতা টিকা প্রয়োগে নয়: সিরাম

  করোনা টিকা



আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

‘দ্রুত কোভিশিল্ড টিকা তৈরি, বণ্টন, পরীক্ষা বন্ধ করা উচিত’ -এমন দাবি জানিয়ে চেন্নাইয়ের এক বাসিন্দা অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনিকার ভারতের সহযোগী সিরাম ইনস্টিটিউটের বিরুদ্ধে আইনি পদক্ষেপ নিয়েছেন। ওই ব্যক্তি কোভিশিল্ডের স্বেচ্ছাসেবক।

তবে স্বেচ্ছাসেবকের দাবি উড়িয়ে দিয়ে অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনিকা তৈরি করোনা টিকা ‘সম্পূর্ণ নিরাপদ’ বলে আশ্বস্ত করেছে ভারতের সিরাম ইনস্টিটিউট।

টিকাকে ঘিরে যে উদ্বেগ ও সন্দেহ তৈরি হয়েছে তা দূর করতে তারা স্পষ্টভাবে জানিয়ে দিয়েছেন, কোনও স্বেচ্ছাসেবী টিকা প্রয়োগে অসুস্থ হননি। টিকা ট্রায়ালের সঙ্গে তার স্বাস্থ্য সমস্যার কোনো সম্পর্ক নেই।

এর আগে দক্ষিণ ভারতের চেন্নাইয়ের ওই বাসিন্দা এবং গত ১ অক্টোবর তার শরীরে পরীক্ষামূলক ভ্যাকসিন প্রয়োগ করার পর তিনি গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েন বলে দাবি করেন। ৪০ বছর বয়সী ওই ব্যক্তি ক্ষতিপূরণ হিসেবে ৫ কোটি টাকা দাবি করে মামলাও করেছেন। ওই ব্যক্তির আইনজীবী জানান, টিকা প্রয়োগের পর থেকেই ওই ব্যক্তির সাঙ্ঘাতিক মাথার যন্ত্রণা শুরু হয়ে যায়, তিনি তখন কোনও প্রশ্নেরও উত্তর দিতে পারছিলেন না। 'অ্যাকিউট নিউরো এনসেফ্যালোপ্যাথি' রোগেও তিনি আক্রান্ত হন বলেও জানান আইনজীবী।

মঙ্গলবার (১ ডিসেম্বর) সিরাম ইনস্টিটিউট এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, কোভিশিল্ড টিকা নিরাপদ এবং রোগ প্রতিরোধী। চেন্নাইয়ের স্বেচ্ছাসেবীর সাথে ঘটনাটি দুর্ভাগ্যজনক। যা কোনওভাবেই টিকা প্রয়োগে হয়নি। সিরাম ইনস্টিটিউট ওই  স্বেচ্ছাসেবী প্রতি সহানুভূতিশীল।

‘সব নিয়ম, নৈতিক প্রক্রিয়া এবং নির্দেশনা মেনে টিকার ট্রায়াল হয়েছে। প্রধান তদন্তকারী ডিএসএমবি (তথ্য ও সুরক্ষা মনিটরিং বোর্ড) এবং নীতি কমিটি জানিয়েছে, এই ঘটনা টিকার ট্রায়ালের সাথে সম্পর্কিত নয়।’

সিরাম ইনস্টিটিউট বিবৃতিতে আরও জানিয়েছে, আমরা সবাইকে আশ্বস্ত চাই, টিকাটি সম্পূর্ণ নিরাপদ ও রোগ প্রতিরোধক না হলে টিকার ব্যাপক ব্যবহারে আমরা যাব না। ওই স্বেচ্ছাসেবক তাঁর শারীরিক অবস্থার টিকা ট্রায়াল নিয়ে মিথ্যা অভিযোগ করছেন। কোনও বিশেষ উদ্দেশ্য নিয়ে ওই ব্যক্তি এই কাজ করছেন। সংস্থার সুনাম নষ্ট করছেন। এ কারণে সেরাম ইনস্টিটিউট মানহানির মামলা দায়ের করে ক্ষতিপূরণ হিসেবে ১০০ কোটি রুপির বেশি দাবি করবে।

অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয় ও অ্যাস্ট্রাজেনেকা সংস্থার তৈরি কোভিশিল্ড টিকা ভারতে উৎপাদন করছে সেরাম ইনস্টিটিউট অব ইন্ডিয়া। এর পৃষ্ঠপোষকতা করছে আইসিএমআর। ভ্যাকসিন ট্রায়ালে ওই স্বেচ্ছাসেবক গত ১ অক্টোবর টিকা দেওয়া হয় তামিলনাড়ুর রাজধানী চেন্নাইয়ের শ্রীরামচন্দ্র ইনস্টিটিউট অব হায়ার এডুকেশন অ্যান্ড রিসার্চ কেন্দ্রে।

  করোনা টিকা