ভারতে করোনার তৃতীয় ঢেউয়ের শঙ্কা!



আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম, ঢাকা
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

দিনদিনই নাজুক হচ্ছে ভারতের পরিস্থিতি। প্রতিদিনিই রেকর্ড ভাঙছে শনাক্ত এবং মৃতের সংখ্যায়। এমন ভয়াবহ পরিস্থিতিতে সতর্ক করলেন সরকারের শীর্ষ বৈজ্ঞানিক পরামর্শদাতা। খবর: হিন্দুস্থান টাইমস

বুধবার (০৫ মে) ভারতের কেন্দ্রীয় বিজ্ঞান উপদেষ্টা ড. কে বিজয়রাঘবন গণমাধ্যমের সামনে বলেন, যে হারে ভাইরাস ছড়িয়ে পড়ছে তাতে ভারতে তৃতীয় ঢেউ আসতে বাধ্য। তবে সেটি কখন শুরু হবে তা এখনো যাচ্ছে না।

সেই সঙ্গে তিনি বলেন, যেভাবে ভাইরাস রূপ বদলেছে, নতুন স্ট্রেনের সঙ্গে বুঝতে হলে ভ্যাকসিনকেও আপডেট করতে হবে।

এই পরিস্থিতিতে লকডাউনের পরামর্শ দিচ্ছেন বিশেষজ্ঞরা। যদিও লকডাউনের পথে হাঁটতে চায় না সরকার।

ড. কে বিজয়রাঘবন বলেন, এবারের ঢেউ ধীরে আসবে। কিন্তু আমাদের আগে থেকেই তৈরি থাকতে হবে। দ্রুত ছড়িয়ে পড়া নতুন ধরন মোকাবিলায় টিকাগুলোকে আরও উন্নত করতে হবে।

সম্প্রতি ভারতে দেখা দেওয়া করোনার দ্বিতীয় ঢেউ রীতিমতো সুনামির আকার ধারণ করেছে। গত ১৪ দিন দেশটিতে দৈনিক তিন লাখের বেশি করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছে।

বুধবারের হিসাব অনুসারে, আগের ২৪ ঘণ্টায় ভারতে নতুন করে করোনায় আক্রান্ত হয়েছে ৩ লাখ ৮২ হাজার মানুষ। মারা গেছে আরও ৩ হাজার ৭৮০ জন।

সংক্রমণ ঠেকাতে কেন্দ্র ও রাজ্যগুলোতে লকডাউন জারির পরামর্শ দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট । অতিমারি মোকাবিলা করার বিষয়ে এক শুনানিতে রোববার লকডাউন সংক্রান্ত একটি নির্দেশ দিয়েছে দেশের শীর্ষ আদালত।

বিশ্বে ক্ষতিগ্রস্ত দেশের তালিকায় ভারতের অবস্থান দ্বিতীয়। ভারতে করোনায় সংক্রমিত শনাক্ত রোগীর সংখ্যা  ২ কোটি ৬ লাখ ৬৫ হাজার ১৪৮ জন। দেশটিতে করোনায় মারা গেছেন ২ লাখ ২৬ হাজার ১৮৮ জন। দেশটিতে করোনার টিকা পেয়েছে প্রায় ১৬ কোটি ৪ লাখ ৯৪ হাজার মানুষ।