জাপানে টাইফুনে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৭৪

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম
টাইফুন হাগিবিসের তাণ্ডবে ধ্বংসস্তূপে পরিণত হয়েছে ঘরবাড়ি, ছবি: সংগৃহীত

টাইফুন হাগিবিসের তাণ্ডবে ধ্বংসস্তূপে পরিণত হয়েছে ঘরবাড়ি, ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

প্রলয়ংকারী টাইফুন হাগিবিসের তাণ্ডবে জাপানে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৭৪ জনে দাঁড়িয়েছে। আহত হয়েছেন ২২০ জন। নিখোঁজ আরও ১২ জনকে উদ্ধারে অভিযান চলছে। জাপানের উদ্ধারকারী কর্তৃপক্ষের বরাত দিয়ে বুধবার (১৬ অক্টোবর) দেশটির বার্তা সংস্থা 'এনএইচকে' এ খবর জানিয়েছে।

টাইফুনের সময় প্রবল বৃষ্টিপাতে নদ-নদীর পানি বেড়ে সৃষ্ট বন্যার পানিতে ডুবে অনেকের মৃত্যু হয়েছে বলেও জানিয়েছে বার্তা সংস্থাটি।

সর্বশেষ পাওয়া তথ্য মতে এখন পর্যন্ত টোকিওর ১৩ হাজার অ্যাপার্টমেন্টে বিদ্যুৎবিহীন অবস্থায় রয়েছে। ছয় দশকের মধ্যে জাপানে আঘাত হানা সবচেয়ে শক্তিশালী এই টাইফুনের তাণ্ডবে এক লাখ ৩০ হাজার মানুষ বিশুদ্ধ পানির সংকটে রয়েছেন। এখনও বিভিন্ন আশ্রয়কেন্দ্রে অবস্থান করছেন প্রায় ৩০ হাজার মানুষ। স্বাভাবিক হয়নি ট্রেন চলাচলও।

সবচেয়ে বেশি হতাহত ও ক্ষয়ক্ষতির ঘটনা ঘটেছে টোকিওর উত্তরে ফুকুশিমা অঞ্চলে। এছাড়াও মিয়াগির প্রদেশ এবং দক্ষিণ-পশ্চিম প্রদেশ কানাগাওয়াতেও বেশ ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।

দেশটির প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবে জানিয়েছেন দুর্যোগের ক্ষয়ক্ষতি কাটিয়ে উঠতে সরকার ৬৫ লাখ ডলার ব্যয় করবে।

শনিবার দেশটির হনশু দ্বীপে আঘাত হানে টাইফুন হাগিবিস। দ্বীপটির পূর্ব উপকূল থেকে অগ্রসর হয়ে ঘণ্টায় ২২৫ কিলোমিটার বেগে বাতাস বয়ে যায়। দেশটির আবহাওয়া অফিস জানায়, টাইফুনের প্রভাবে রেকর্ড পরিমাণ বৃষ্টিপাত হয়েছে। এতে করে আকস্মিক বন্যা ও ভূমিধ্বসের ঘটনা ঘটেছে।

দেশটির ভূমি, অবকাঠামো, পরিবহন, পর্যটন মন্ত্রণালয় এবং অন্যান্য সরকারি এজেন্সি জানিয়েছে, ৫২ নদীর ৭৩ পয়েন্টে বাঁধ ভেঙ্গে বিস্তীর্ণ এলাকা প্লাবিত হয়েছে। নদী তীরবর্তী অর্ধশতাধিক এলাকার ১০ হাজারের বেশি বাড়িঘর এখনও ডুবে আছে বন্যার পানিতে।

এদিকে, লাখ লাখ পরিবার পানি আর বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন অবস্থায় দিন কাটাচ্ছেন। দুর্গত এলাকাগুলোতে দমকল বাহিনী, সেনাবাহিনী, কোস্টগার্ডের প্রায় এক লাখ ১০ হাজার কর্মী উদ্ধারকাজে অংশ নিয়েছেন। নৌকা ও হেলিকপ্টারের মাধ্যমে উদ্ধার তৎপরতা চালাচ্ছেন তারা।

আপনার মতামত লিখুন :