সংক্রমণের ‘নতুন উপকেন্দ্র’ হতে যাচ্ছে দক্ষিণ আমেরিকা: ডব্লিউএইচও

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

বৈশ্বিক মহামারি করোনার ‘নতুন উপকেন্দ্র’ দক্ষিণ আমেরিকা হতে যাচ্ছে বলে জানিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও)। চীনের উহানে সংক্রমণের দীর্ঘ ছয় মাস পর দক্ষিণ আমেরিকার দেশ ব্রাজিলে সংক্রমণ ভয়াবহভাবে বাড়তে শুরু করেছে।

শুক্রবার (২২ মে) ডব্লিউএইচও জেনেভা সদর দফতরের প্রেস ব্রিফিংয়ে সংস্থার জরুরি কর্মসূচির নির্বাহী পরিচালক মাইক রায়ান জানায়, দক্ষিণ আমেরিকার বেশ কিছু দেশে ব্যাপকভাবে সংক্রমণ বৃদ্ধি পেতে শুরু করেছে। এ অবস্থা গভীর উদ্বেগের জন্ম দেয়। ইতোমধ্যে ব্রাজিল সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত দেশের তালিকায় আছে।

‘এক অর্থে বলতে গেলে দক্ষিণ আমেরিকা করোনার নতুন উপকেন্দ্র হয়ে উঠেছে’— বলে জানান তিনি।

ডব্লিউএইচও করোনার দৈনিক পরিস্থিতির প্রতিবেদন অনুসারে জানায়, দক্ষিণ আমেরিকার যে কোনো দেশের তুলনায় ব্রাজিলে আক্রান্তের হার বেশি। দেশটিতে এখন পর্যন্ত তিন লাখ আক্রান্ত শনাক্ত হয়েছে। আক্রান্ত ১৯ হাজার মানুষ মারা গেছেন।

তিনি আরও বলেন, ব্রাজিল সরকার ম্যালেরিয়াবিরোধী ড্রাগ হাইড্রোক্সিক্লোরোকুইন করোনা আক্রান্ত রোগীদের ওপর ব্যবহারের অনুমোদন দিয়েছে। এমনকি মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প সংক্রমণ থেকে বাঁচতে নিজেই এ ওষুধ নিচ্ছেন বলেও জানিয়েছেন। সম্প্রতি বেশ কয়েকটি গবেষণায় করোনা চিকিৎসায় এ ওষুধের কার্যকারিতা সম্পর্কে সন্দেহ প্রকাশ করা হয়েছে। শুক্রবারের আগে প্রকাশিত একটি সমীক্ষায় দেখা গেছে, যারা হাইড্রোক্সিক্লোরোকুইন সেবন করেননি তাদের চেয়ে যারা নিয়েছেন তাদের মৃত্যুর ঝুঁকি বেশি।

বর্তমান ক্লিনিক্যাল পরীক্ষার ফলাফলের আগে করোনা চিকিৎসায় হাইড্রোক্সিক্লোরোকুইনের বিস্তৃত ব্যবহারকে সমর্থন করা যায় না। যতক্ষণ না পরীক্ষা শেষ হয় এবং আমরা স্পষ্ট ফলাফল পাচ্ছি ততক্ষণ পর্যন্ত এর ব্যবহার থেকে বিরত থাকতে বলব আমরা।

এখন ব্রাজিলের অন্যান্য প্রদেশগুলোতেও সংক্রমণ বিস্তার লাভ করছে। এক্ষেত্রে ডব্লিউএইচও ব্রাজিল সরকারকে সক্রিয়ভাবে সহায়তা প্রদান করছে বলেও জানান তিনি।

আপনার মতামত লিখুন :