২ মাসেই দেখা মিলল নাইট কুইন ফুলের!

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, কুষ্টিয়া
দু’ মাসের পরিচর্যায় ফুটল নাইট কুইন

দু’ মাসের পরিচর্যায় ফুটল নাইট কুইন

  • Font increase
  • Font Decrease

ভালোবাসার প্রতীকের আরেক নাম ফুল। সে যেকোনো ফুলই হোকনা কেন? প্রিয়তমার গলায় মালা কিংবা খোঁপায় ফুল গুঁজে দেয়ার অনুভূতি অনন্য। সব ধরনের শুভ কাজেও ফুলের ব্যবহার রয়েছে আমাদের দেশে।

মানুষভেদে ফুলের পছন্দের তারতম্য দেখা যায়। কেউ গোলাপ, কেউ হাসনাহেনা, কেউবা গ্রামবাংলার মেঠো পথের ধারে ফোটা অজানা ফুলের ভালোবাসায় মুগ্ধ হন। তবে যে ফুল কয়েক বছরে একবার ফোটে, সেই ফুল নিয়ে সবার কৌতূহল থাকবে এটাই স্বাভাবিক। তেমনই একটি ফুলের নাম হলো- নাইট কুইন।

মিষ্টি মনোহরিণী সুবাস, দুধসাদা রং, স্নিগ্ধ ও পবিত্র পাপড়ি আর সৌভাগ্যের প্রতীক হিসেবে এই ফুল পরিচিত। রাতের আঁধারে নিজের সৌন্দর্য মেলে ধরে সকাল হওয়ার আগেই ঝরে পড়ে নাইট কুইন। তাই এই একটি ফুলের জন্য বছরের পর বছর অপেক্ষা করতে হয় ফুলপ্রেমীদের। আমাদের দেশে দুর্লভ প্রজাতির ফুল হিসেবেই গণ্য করা হয় নাইট কুইনকে।

এক রাতে এই দুর্লভ এই নাইট কুইন ফুলের দেখা মিলল কুষ্টিয়ার ভেড়ামারার ছাদবাগন মালিক ডা. আসমান আলীর লাগানো টবে। মাত্র দু’মাস আগে একটি টবে এ গাছটি লাগান তিনি। দু’মাস পরিচর্যা করেই তিনি এ ফুলের দেখা পেয়েছেন।

নাইট কুইন ফুলটির পরিপূর্ণ রূপ দেখতে আগ্রহী ছিলেন আসমান আলীর শুভাকাঙ্ক্ষীরাও। রাত ১০টায় অপেক্ষার অবসান ঘটে। নিজের রূপের বাহার নিয়ে নাইট কুইন পরিপূর্ণভাবে পাপড়ি মেলে দেয়। উপস্থিত সবাই তখন ফুলটি নিয়ে সেলফি তোলায় ব্যস্ত হয়ে পড়ে।

ওবাইদা আল মাহাদী নামের একজন বলেন, ‘বিরল ক্যাকটাস জাতীয় এ ফুলটির বৈশিষ্ট্য অন্যান্য ফুলের তুলনায় একটু আলাদা। বছরের মাত্র একদিন এবং মধ্যরাতে পূর্ণ বিকশিত হয়। আর শেষরাতেই জীবনাবসান ঘটে। আমি এই নাইট কুইন ফুলের গল্প শুনেছি। কিন্তু কখনো দেখার সুযোগ হয়নি। রাতে শোনামাত্রই আমি এই নাইট কুইন দেখতে এসেছি। অনেক ভালো লাগলো ফুলটি দেখে।’

আসমান আলী বলেন, ‘আমার ছাদে অন্তত শতাধিক ফুল ও ফলের চারা রয়েছে। তবে এই নাইট কুইনের ভীষণ ইচ্ছা থাকলেও সংগ্রহ করতে অনেক দেরি হয়ে গেছে। নাইট কুইন খুবই দুষ্প্রাপ্য ফুল। সৌন্দর্যের প্রতীক হিসেবে মাস দুয়েক আগে আমার এক বন্ধু সংগ্রহ করে এই গাছটি দিয়েছিলেন। বহু দিনের সখ ছিল নাইট কুইন ফুল ফোটানো। অবশেষে সে আশা পূরণ হয়েছে।’

তিনি আরও বলেন, ‘আমার এক আত্মীয় বারো বছর ধরেও কোন 'নাইট কুইন' ফুল ফোটাতে পারেনি। আমার কপালে ছিল তাই দুই মাসেই ফুল ফুটেছে। ফুলের সৌন্দর্য আমাকে খুব আকৃষ্ট করে। শুধু ফুল নয়, আমার বাড়ির ছাদে বিভিন্ন ধরনের সবজির আবাদ করে আমি নিজেকে তৃপ্ত মনে করি।’

আপনার মতামত লিখুন :