২৫তম বিশেষায়িত কূটনীতিক প্রশিক্ষণ কোর্সের সমাপনী



স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, ঢাকা
২৫তম বিশেষায়িত কূটনীতিক প্রশিক্ষণ কোর্সের সমাপনী অনুষ্ঠান।

২৫তম বিশেষায়িত কূটনীতিক প্রশিক্ষণ কোর্সের সমাপনী অনুষ্ঠান।

  • Font increase
  • Font Decrease

ফরেন সার্ভিস একাডেমি কর্তৃক আয়োজিত ৯ মাস মেয়াদি ২৫তম বিশেষায়িত কূটনীতিক প্রশিক্ষণ কোর্সের সমাপনী অনুষ্ঠিত হয়েছে। এ সময় সনদপত্র বিতরণ করা হয়েছে।

এ উপলক্ষে সোমবার (২১ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যায় একটি বিশেষ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি ছিলেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ. কে.আব্দুল মোমেন। এছাড়াও অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মো. শাহরিয়ার আলম (এমপি), পররাষ্ট্র সচিব মাসুদ বিন মোমেন, ফরেন সার্ভিস একাডেমির রেক্টর ও অতিরিক্ত পররাষ্ট্র সচিব সৈয়দ মাসুদ মাহমুদ খন্দকারসহ পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী তার ভাষণে চলমান বৈশ্বিক করোনা চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা করে নির্ধারিত সময়ের মধ্যে প্রশিক্ষণ কোর্স শেষ করার জন্য ফরেন সার্ভিস একাডেমিকে সাধুবাদ জানান। এ সময় প্রশিক্ষণ কর্মসূচি সফলভাবে সম্পন্ন করায় এবং আরও বৃহত্তর ভূমিকায় মন্ত্রণালয় তথা রাষ্ট্রীয় দায়িত্ব পালনের যোগ্যতা অর্জনের জন্য প্রশিক্ষণার্থী কর্মকর্তাদের অভিনন্দন জানান তিনি।

বিশেষ অতিথি পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী করোনা প্রতিকূলতা ও চ্যালেঞ্জের অভূতপূর্ব সময়ে সফলভাবে প্রশিক্ষণ সমাপ্ত করার জন্য প্রশিক্ষণার্থী কর্মকর্তাদের অভিনন্দন জানান। তিনি কর্মকর্তাদের ‘বাংলাদেশ ব্র্যান্ডিং’, ‘অর্থনৈতিক কূটনীতি’ সহ চলমান বিষয়াবলীর প্রতি বিশেষ মনোযোগ দেয়ার পাশাপাশি বাংলাদেশের ভাবমূর্তি সদা সমুন্নত রাখার পরামর্শ দেন।

পররাষ্ট্রসচিব করোনা সংকট থাকা সত্ত্বেও কোর্সটি যথাসময়ে শেষ করায় ফরেন সার্ভিস একাডেমির অসাধারণ প্রচেষ্টা এবং সার্বিক প্রতিশ্রুতির ভূয়সী প্রশংসা করেছেন। তিনি প্রশিক্ষণার্থীদের চাকরি জীবনের প্রতিটি পর্যায়ে দেশের সার্বভৌমত্ব এবং স্বাধীনতার প্রতি প্রতিজ্ঞাবদ্ধ থাকার আহ্বান জানান।

ফরেন সার্ভিস একাডেমির রেক্টর তার বক্তব্যে একাডেমির লক্ষ্য ও ভিশন তুলে ধরে অতিথিদেরকে প্রশিক্ষণের বিভিন্ন দিক সম্পর্কে অবহিত করেন। তিনি একবিংশ শতাব্দীর চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় দক্ষ কূটনীতিক তৈরির লক্ষ্যে সমকালীন ইস্যুতে ব্যবহারিক জ্ঞান প্রদানের মাধ্যমে প্রশিক্ষণার্থীদের অধিকতর প্রস্তুত করার লক্ষ্যে পাঠ্যক্রম সংশোধনের বিষয়ে তার পরিকল্পনা সম্পর্কে আলোকপাত করেন।

প্রশিক্ষণার্থীরা কোর্সের বিষয়বস্তু, কোর্স ম্যাটেরিয়াল এবং উপস্থাপনার বিষয়ে তাদের সন্তুষ্টি প্রকাশ করেন। প্রশিক্ষণার্থীদের যেকোনো সমস্যা সমাধানে আন্তরিক প্রচেষ্টা এবং সর্বাত্মক সহযোগিতা প্রদানের জন্য একাডেমি কর্তৃপক্ষের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। প্রধান অতিথি ও সম্মানিত অতিথিরা সকল অংশগ্রহণকারীকে সনদপত্র প্রদান করেন। পরবর্তীতে প্রশিক্ষণার্থীদের অংশগ্রহণে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান এবং ফরেন সার্ভিস একাডেমির মহাপরিচালকের ধন্যবাদ জ্ঞাপনের মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠানটি শেষ হয়।

২৫তম বিশেষায়িত কূটনীতিক প্রশিক্ষণ কোর্সটি গত বছর ২৬ ডিসেম্বরে শুরু হয়েছিল। বিসিএস (পররাষ্ট্র) ক্যাডারের ৩৫ এবং ৩৬ ব্যাচের মোট ১৮ জন কর্মকর্তা এই কোর্সে অংশ নিয়েছিলেন। প্রথমদিকে ক্লাসরুমভিত্তিক নিয়মিত সেশন পরিচালনা করা হলেও করোনার প্রাদুর্ভাব মোকাবিলায় দেশব্যাপী সাধারণ ছুটি ঘোষণা করা হলে মাসখানেক কোর্সের কার্যক্রম বন্ধ থাকে। পরবর্তীতে অনলাইন প্লাটফর্মে সেশন পরিচালনার মাধ্যমে কোর্সের কার্যক্রম সমাপ্ত করা হয়।