স্থানীয় ছাত্র-ছাত্রীদের জন্যে শেভরনের বৃত্তি চলমান



স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

শেভরন বাংলাদেশ বার্ষিক বৃত্তি প্রদান কর্মসূচির আওতায় বিবিয়ানা, জালালাবাদ এবং মৌলভী বাজার গ্যাস ফিল্ড এলাকার ২৩টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের আর্থিকভাবে পিছিয়ে থাকা ও মেধাবী বিবেচনায় ৮৪৯ জন ছাত্র-ছাত্রীদেরকে বৃত্তি প্রদান করেছে। 

বৃত্তি প্রাপ্তদের মধ্যে প্রায় ৬৪ ভাগ বালিকা এবং ৬৬ জন রয়েছে যারা ২০২০ সালের এসএসসি পরীক্ষায় উচ্চতর গ্রেডে উর্ত্তীণ হয়েছে। ২০২০ সালের এসএসসি পরীক্ষার পাশের ফলাফল তুলনা করলে দেখা যায় জাতীয় ও সিলেট ডিভিশনের পাশের হার যথাক্রমে ৮২ এবং ৮০ শতাংশ। পক্ষান্তরে শেভরনের বৃত্তিপ্রাপ্তদের গড় পাশ হার ৯৯শতাংশ।

প্রায় দু-দশক আগে শেভরন বাংলাদেশ অল্পকিছু শিক্ষা প্রতিষ্ঠান নিয়ে বৃত্তি প্রদান কর্মসূচি চালু করে। ছাত্র-ছাত্রীদৈর একাডেমিক মান উন্নয়নের সহায়তা ছাড়াও শেভরন মান সম্মত শিক্ষা সহায়তা উদ্দ্যোগের মাধ্যমে গ্যাস ফিল্ড সংলগ্ন এলাকার শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষা সংশ্লিষ্ট অবকাঠামো ও পরিবেশগত গুনগত পরিবর্তনে সহযোগিতা প্রদান করে আসছে। শিক্ষা বৃত্তি ছাড়াও স্কুলে অতিরিক্ত শিক্ষক নিয়োগ, কম্পিউটার ল্যাব স্থাপন, কোচিং, এন্ডয়মেন্ট ফান্ড, স্কুল ইউনিফর্ম, খেলার সামগ্রী, ফার্নিচার, স্বাস্থ্য সম্মত লেট্রিন ও সুপেয় পানির ব্যাবস্থাসহ নানাধরনের উদ্যোগ স্থানীয়ভাবে শিক্ষার মানোন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখছে।

শেভরন সামাজিক দায়বদ্ধতার আলোকে দীর্থমেয়াদী মানব উন্নয়নে বৈশ্বিক সামাজিক উন্নয়ন এর লক্ষ্যে নানা কার্যক্রমের মাধ্যমে শিক্ষা, স্বাস্থ্য ও অর্থনৈতিক উন্নয়নকে কেন্দ্র করে বিভিন্ন কর্মসূচি বাস্তবায়ন করে যাচ্ছে।