তালাকপ্রাপ্ত স্ত্রীর প্রেমিকের ছুরিকাঘাতে স্কুলছাত্র নিহত



স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, বগুড়া
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

বগুড়ায় তালাকপ্রাপ্ত স্ত্রীর প্রেমিকের ছুরিকাঘাতে আহত স্কুলছাত্র ফারুক হোসেন (১৫) মারা গেছেন।

মঙ্গলবার (১৬ নভেম্বর) বেলা ১২টার দিকে ঢাকায় চিকিৎসাধীন অবস্থায় ফারুক মারা যায়।

এর আগে, গত ১১ নভেম্বর মালতিনগর হাইস্কুল চত্বরে এসএসসি পরীক্ষার্থীদের বিদায় অনুষ্ঠান শেষে স্কুল চত্বরে একই বিদ্যালয়ের ১০ম শ্রেণির ছাত্র হৃদয় (১৬) ফারুককে ছুরিকাঘাত করে।

নিহত ফারুক বগুড়া শহরের মালতিনগর নামাপাড়ার মজিবর রহমানের ছেলে। ফারুক মালতিনগর উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণির ছাত্র ছিলো।

জানাগেছে, ফারুক একই বিদ্যালয়ের ১০ম শ্রেণির ছাত্রী মুন্নীকে গত জানুয়ারি মাসে বিয়ে করে। এরপর তাদের বাড়িতে ঘর সংসার করা কালে দাম্পত্য কলহ শুরু হয়। গত মে মাসে তাদের মধ্যে ছাড়াছাড়ি হয়ে যায়। এরপর একই প্রতিষ্ঠানের ১০ম শ্রেণির ছাত্র হৃদয়ের সাথে মুন্নীর প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। বিষয়টি মেনে নিতে পারছিল না ফারুক। এনিয়ে ফারুক মাঝে মধ্যেই মুন্নীর সাথে ঝগড়া বিবাদে জড়িয়ে পড়তো। ১১ নভেম্বর বিদ্যালয়ে এসএসসি পরীক্ষার্থীদের বিদায় অনুষ্ঠানে হৃদয়ের সাথে মুন্নীকে দেখে ক্ষুব্ধ হয় ফারুক। এনিয়ে তাদের মধ্যে আবারও ঝগড়া হয়। এর জের ধরে অনুষ্ঠান শেষে হৃদয় ফারুককে ছুরিকাঘাত করে। তাকে প্রথমে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে অবস্থার অবনতি হলে ঢাকায় পাঠানো হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মঙ্গলবার বেলা ১২টার দিকে ফারুক মারা যায়।

বগুড়া শহরের বনানী পুলিশ ফাঁড়ির উপ-পরিদর্শক (এসআই) সাজ্জাদ বলেন, ঘটনার পর থেকে হৃদয় পলাতক। মুন্নী তার বাড়িতেই আছে। নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে মুন্নীর বিরুদ্ধে অভিযোগ দিলে তাকে গ্রেফতার করা হবে।