ব্যালট পেপার আগুন, হাত দিবেন না: এসপি শাকিলুজ্জামান



স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, রাজবাড়ী
জেলা পুলিশ সুপার এম এম শাকিলুজ্জামান

জেলা পুলিশ সুপার এম এম শাকিলুজ্জামান

  • Font increase
  • Font Decrease

তৃতীয় ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচন অবাধ ও নিরপেক্ষ করতে রাজবাড়ীর জেলা পুলিশ সুপার এম এম শাকিলুজ্জামান বলেছেন, আগামী ২৮ নভেম্বর অনুষ্ঠিত ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনে যদি কেউ অস্থিতিশীল পরিবেশ তৈরি করার চেষ্টা করে তাহলে তাকে ছাড় দেওয়া হবে না। নির্বাচনে প্রশাসন সর্বোচ্চ কঠোর অবস্থানে থাকবে। ব্যালট পেপার হচ্ছে আগুন। এটিতে কেউ হাত দেওয়ার চেষ্টা করলে আগুনে হাত পুড়ে যাবে।

তিনি বলেন, ভোট কেন্দ্রে কোনও সহিংসতার ঘটনা ঘটতে দেওয়া হবে না। ভোটের দিন সবাই আনন্দের সাথে ভোট দেবেন। আপনাদের আমরা সহযোগিতা করবো।

সোমবার (২২ নভেম্বর) উপজেলা পরিষদ হলরুমে বালিয়াকান্দি নির্বাচন অফিসের আয়োজনে ৭টি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান প্রার্থী, সংরক্ষিত মহিলা আসনের প্রার্থী, সাধারণ সদস্য প্রার্থীদের নিয়ে আচরণবিধি প্রতিপালন ও মতবিনিময় সভায় তিনি একথা বলেন।

এ সময় পুলিশ সুপার বলেন, নির্বাচনে প্রতিযোগিতা থাকবে এটাই স্বাভাবিক। তবে কেউ অসুস্থ প্রতিযোগিতায় নামবেন না। মনে রাখবেন দিন শেষে কিন্তু আপনারাই। আমরা শুধু আমাদের ওপর অর্পিত দায়িত্ব পালন করবো। কোন ধরনের উগ্রতা ও সহিংসতা কিন্তু আমরা মেনে নেব না। আপনাদের জন্যেই কিন্তু আমাদের এই সব আয়োজন। কয়েকদিন আগে দেখেছেন গোয়ালন্দের নির্বাচন। কতটা নিরপেক্ষ হয়েছে। বালিয়াকান্দিতেও তাই হবে।

জেলা প্রশাসক দিলসাদ বেগমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন পুলিশ সুপার এম এম শাকিলুজ্জামান। এ সময় উপস্থিত ছিলেন রাজবাড়ী জেলা বিশেষ শাখার ডিআইও-১ সাইদুর রহমান খান, জাতীয় গোয়েন্দা সংস্থার (এনএসআই) উপ-পরিচালক মো: শরিফুল ইসলাম, জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মাসুদুর রহমান, উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা নিজাম উদ্দিন আহমেদ প্রমুখ। অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনায় ছিলেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ভারপ্রাপ্ত) হাসিবুল হাসান।

রাজবাড়ী জেলা প্রশাসক দিলসাদ বেগম বলেন, প্রশাসনের প্রতি আপনারা আস্থা রাখুন। একটি সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন করার জন্য আমরা সব ধরনের আইন প্রয়োগ করবো। আপনারা আমাদেরকে সহযোগিতা করবেন। আমরা যেন একটি সুন্দর নির্বাচনের মডেল হতে পারি। আমাদের শতভাগ চেষ্টা থাকবে সুষ্ঠু নির্বাচন সম্পন্ন করার। কেউ নির্বাচনী আচরণবিধি লঙ্ঘন করবেন না।

প্রার্থীরা বলেন, বালিয়াকান্দিতে নির্বাচনী পরিবেশ এখন পর্যন্ত খুবই সুন্দর আছে। আমরা আশা করছি সুন্দর পরিবেশের মাধ্যমেই ভোট গ্রহণ হবে বালিয়াকান্দিতে।

নির্বাচন অফিস সূত্রে জানা যায়, বালিয়াকান্দিতে তৃতীয় ধাপের ইউপি নির্বাচনে সাতটি ইউনিয়নে মোট ভোটারের সংখ্যা ১ লাখ ৬৯ হাজার ৫৮৪ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার ৮৬ হাজার ৪১৬ ও মহিলা ভোটার ৮৩ হাজার ১৬৮ জন। মোট ভোট কেন্দ্রের সংখ্যা ৬৬। মোট ভোট কক্ষের সংখ্যা ৪৫২টি। এ সকল কেন্দ্রে ৬৬ জন প্রিজাইডিং অফিসার, ৪৫২ জন সহকারি প্রিজাইডিং অফিসার ও ৯০৪ জন পোলিং অফিসার দায়িত্ব পালন করবে।