‘গণতন্ত্র সম্মেলনে ডাক না পাওয়া নিয়ে চিন্তার কিছু নেই’



ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, সিলেট
ছবি: বার্তা ২৪.কম

ছবি: বার্তা ২৪.কম

  • Font increase
  • Font Decrease

গণতন্ত্র ও সুশাসনের কথা বলে আমেরিকা বিভিন্ন দেশকে চাপে রাখতে চায় বলে মন্তব্য করেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ.কে আব্দুল মোমেন।

মন্ত্রী বলেন, আমেরিকা কখনো গনতন্ত্রের কথা বলে, কখনো সুশাসনের কথা বলে, কখনো সন্ত্রাসবাদের কথা বলে বিভিন্ন দেশকে চাপে রাখতে চায়, সেটাই তাদের রাজনীতি। তাই গণতন্ত্র সম্মেলনে ডাক পাওয়া বা না পাওয়া নিয়ে চিন্তার কিছু নেই।

শুক্রবার (২৬ ডিসেম্বর) সকালে সিলেট ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে নির্মাণাধীন কার্গো স্টেশন পরিদর্শনকালে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, ‘এসব নিয়ে চিন্তা না করে নিজেরা কিভাবে ভালো করা যায়, সেটা নিয়ে চিন্তা করা প্রয়োজন। যদি আমাদের দুর্বলতা থাকে, সেটা আমরা দূর করার চেষ্টা করবো।’

অপর এক প্রশ্নের জবাবে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, সিলেটের ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর সম্প্রসারণ কাজ শেষ হলে এখান থেকে বিভিন্ন দেশে সরাসরি ফ্লাইট যাবে। তখন ভারতের লোকজনও এই বিমানবন্দর ব্যবহার করতে পারবেন।

ড. মোমেন বলেন, বর্তমানে সিলেট থেকে যারা কার্গো পাঠান, তারা প্রথমে ঢাকায় নেন। সেখানে নিয়ে মেশিনে চেক করে তারপর কার্গো বিদেশে পাঠান। এতে অনেক খরচ বাড়ে। এখন সিলেট থেকে কার্গো বিদেশে গেলে শিপমেন্ট খরচ কমে আসবে।

ওসমানী বিমানবন্দর থেকে কার্গো পাঠাতে নিরাপত্তার দিকে যেন নজর রাখা হয়, সে বিষয়ে সতর্ক করেন মন্ত্রী। এ বিমানবন্দরের কার্গো টার্মিনালে ১০০ টনের বেশি মালামাল রাখা যাবে বলেও জানান তিনি।

এর আগে সকাল ৯ টায় বিমানের একটি ফ্লাইটে সিলেট সফরে আসেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী। ১২ ঘন্টার ঝটিকা সফর শেষে রাত ৮টা ২০ মিনিটে ইউএস বাংলার একটি ফ্লাইটে তার ঢাকায় ফেরার কথা রয়েছে।