৫ পুলিশের বিরুদ্ধে গণধর্ষণের মামলা, পিবিআইকে তদন্তের নির্দেশ

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম, খুলনা
ছবি: বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম

ছবি: বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম

  • Font increase
  • Font Decrease

খুলনার রেলওয়ে (জিআরপি) থানার বহিষ্কৃত ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) উছমান গণি পাঠানসহ ৫ পুলিশ সদস্যের বিরুদ্ধে এক নারীকে গণধর্ষণের অভিযোগে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

সোমবার (২৩ সেপ্টেম্বর) দুপুরে গণধর্ষণের শিকার ওই নারী বাদী হয়ে খুলনার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-৩ এ মামলাটি দায়ের করেন।

বাদীপক্ষের আইনজীবী অ্যাড. মো. মোমিনুল ইসলাম জানান, সোমবার দুপুরে অভিযোগের শুনানি শেষে আদালতের বিচারক মো. মহিদুজ্জামান মামলা গ্রহণ করে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনকে (পিবিআই) তদন্তের নির্দেশ দেন।

উল্লেখ্য, গত ২ আগস্ট রাতে ৩ সন্তানের মা ওই নারীকে মাদক মামলায় গ্রেফতার করে জিআরপি (রেলওয়ে) থানা পুলিশ। পরে থানার মধ্যে ওসিসহ ৫ পুলিশ সদস্য তাকে গণধর্ষণ ও মারধর করে। ৩ আগস্ট আদালত তার জবানবন্দি গ্রহণ করে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানোর নির্দেশ দেন। আদালতের নির্দেশে ৫ আগস্ট তার ডাক্তারি পরীক্ষা সম্পন্ন হয়। এ ঘটনায় গত ৭ আগস্ট খুলনা রেলওয়ে জিআরপি থানার ওসি ওসমান গণি পাঠান ও এএসআই নাজমুল হককে পাকশী রেলওয়ে পুলিশ লাইনে প্রত্যাহার (ক্লোজড) করা হয়। মাদক মামলায় গত ২৮ আগস্ট ওই নারী জামিনে মুক্ত হন।

আপনার মতামত লিখুন :