খুবিতে মনিটরিং জোরদারসহ সিসি ক্যামেরা বসানোর সিদ্ধান্ত

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম, খুলনা
খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়, ছবি: সংগৃহীত

খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়, ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের (খুবি) সব আবাসিক হল, অ্যাকাডেমিক ভবনসহ গোটা ক্যাম্পাসে মনিটরিং জোরদারসহ সিসি ক্যামেরার আওতায় আনার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কর্তৃপক্ষ।

শনিবার (১২ অক্টোবর) বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ প্রশাসন ভবনের সম্মেলন কক্ষে আবাসিক হল ও ক্যাম্পাসের সার্বিক পরিস্থিতি নিয়ে ছাত্রবিষয়ক পরিচালক ও প্রভোস্ট বডির সাথে উপাচার্যের এক মতবিনিময় সভায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

সভায় সভাপতিত্ব করেন উপাচার্য প্রফেসর ড. মোহাম্মদ ফায়েক উজ্জামান। আবাসিক হলে যাতে কোনো বহিরাগত অবস্থান করতে না পারে সে ব্যাপারেও সভায় নির্দেশনা দেয়া হয়। এছাড়া ক্যাম্পাসের যেসব স্থান এখনো সিসি ক্যামেরার আওতায় নেই, সেসব স্থানে শিগগিরই নেটওয়ার্কের আওতায় আনার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

বিশ্ববিদ্যালয়ের ট্রেজারার প্রফেসর সাধন রঞ্জন ঘোষ, রেজিস্ট্রার (ভারপ্রাপ্ত) প্রফেসর খান গোলাম কুদ্দুস, ছাত্রবিষয়ক পরিচালক, প্রভোস্টবৃন্দ, সহকারী ছাত্রবিষয়ক পরিচালক ও সহকারী প্রভোস্টবৃন্দ সভায় উপস্থিত ছিলেন।

উপাচার্য সভায় সার্বিক পরিস্থিতি অবহিত হওয়ার পর বলেন, যেকোনো মূল্যে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসের বিদ্যমান সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ পরিবেশ অক্ষুন্ন রাখতে হবে।

তিনি বলেন, সকল শিক্ষক যদি ছাত্রদের সন্তান তূল্য মনে করেন, ক্লাসে এবং ক্লাসের বাইরের তাদের সমস্যা সমাধানে মনোযোগী ও আন্তরিক হন, তবে সেই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সুষ্ঠু পরিবেশ রক্ষা করা সম্ভব। কোনো সমস্যার বিষয় যাতে অগোচরে না থাকে সেদিকে দৃষ্টি দিতে হবে।

প্রফেসর ড. মোহাম্মদ ফায়েক উজ্জামান বলেন, র‌্যাগিং, মাদকসহ সকল অনৈতিক ও অপসংস্কৃতিমূলক কর্মকাণ্ড থেকে ক্যাম্পাসকে মুক্ত রাখার ব্যাপারে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ কঠোর অবস্থানে রয়েছে। 

আপনার মতামত লিখুন :