স্বেচ্ছায় লকডাউন নীলফামারীর বিভিন্ন এলাকা

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, নীলফামারী
ছবিঃ বার্তা২৪.কম

ছবিঃ বার্তা২৪.কম

  • Font increase
  • Font Decrease

করোনাভাইরাস প্রতিরোধে সরকারের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে অযাচিত লোকজন ও যানবাহন চলাচল রুখতে নীলফামারী পৌর শহরের কয়েকটি এলাকা স্বেচ্ছায় লকডাউন করেছে এলাকাবাসী।

সোমবার (৬ এপ্রিল) দুপুরে প্রথম স্বেচ্ছায় লকডাউন ঘোষণা করা হয় পৌর শহরের জুম্মাপাড়া, পরে পর্যায়ক্রমে শাহিপাড়া, বাবুপাড়া, স্টাফ কোয়াটার মোড়, আলমগীরের মোড়সহ বিভিন্ন এলাকার প্রধান সড়কগুলো বন্ধ করে দেওয়া হয়।

এসব এলাকার প্রত্যেক প্রবেশ পথে জীবাণুনাশক রাখা হয়েছে। জরুরি প্রয়োজনে কেউ প্রবেশ করতে চাইলে বা বাইরে গেলে জীবাণুমুক্ত হয়ে প্রবেশ বা বাহির হতে হবে।

ছবিঃ বার্তা২৪.কম

স্থানীয় বাসিন্দারা জানায়, প্রধান সড়কে চলাচল সীমিত হওয়ার পর লোকজন ও বিভিন্ন যানবাহনের চলাচল বেড়েছে পাড়ার বিভিন্ন সড়ক দিয়ে। এতে সংক্রমণ ছড়ানোর ভয় থাকে।

নীলফামারী পৌর শহরের শাহি পাড়া এলাকার বাসিন্দা দীপক আহমেদ (৩৮) বলেন, ‘আমরা নিজের এবং পরিবারের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার লক্ষে এই সিদ্ধান্ত নিয়েছি। এতে পাড়ায় বহিরাগত মানুষের আগমন রোধ হবে, সংক্রমনের ঝুকি কমবে।’

নীলফামারী সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মমিনুল ইসলাম বলেন, ‘শহরের বিভিন্ন পাড়া-মহল্লার বাসিন্দারা নিজ উদ্যোগে পাড়াগুলো লকডাউন করেছেন, তবে সরকারের এমন কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি।’

ছবিঃ বার্তা২৪.কম

তিনি জানান, ‘যেহেতু সরকার চাচ্ছে লোকজন ঘর থেকে বের না হোক। সে উদ্দেশ্যে সেটি করে থাকলে ভালোই হয়েছে।’

আপনার মতামত লিখুন :