কেউ প্রশ্ন করলে বলবেন এটা ব্যক্তিগত গাড়ি

সোহেল মিয়া, স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, রাজবাড়ী
দৌলতদিয়া ঘাট এলাকা।

দৌলতদিয়া ঘাট এলাকা।

  • Font increase
  • Font Decrease

আসন্ন ঈদে ব্যক্তিগত গাড়ি ছাড়া কেউ বাড়ি যেতে পারবে না বলে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর পক্ষ থেকে একটি নির্দেশনা রয়েছে। তাই একটু কৌশল অবলম্বন করে মহাসড়কে ভাড়ায় প্রাইভেটকার ও মাইক্রোবাস চালাচ্ছে চালকরা।

মূলত পাটুরিয়া ঘাট থেকে আসা সাধারণ যাত্রীদের সঙ্গে নির্দিষ্ট পরিমাণ টাকা চুক্তি করে মহাসড়কে ছুটছে ভাড়ায়চালিত প্রাইভেটকার ও মাইক্রোবাসগুলো। অভিযোগ রয়েছে, স্বাভাবিক সময়ের থেকে কয়েকগুণ ভাড়া বেশি নিয়ে যাত্রীদের গন্তব্যে পৌঁছে দিচ্ছে তারা।

শনিবার (২৩ মে) দুপুরে সরেজমিনে রাজবাড়ীর গোয়ালন্দের দৌলতদিয়া বাস টার্মিনাল ও ফেরি ঘাটে গিয়ে দেখা যায়, যাত্রীদের অপেক্ষায় সারিবদ্ধভাবে ভাড়ায়চালিত মাইক্রোবাস ও প্রাইভেটকারগুলো দাঁড়িয়ে আছে। যাত্রীদের সঙ্গে নির্দিষ্ট পরিমাণ টাকা চুক্তি করে ঘাট এলাকা ছাড়ছে তারা। ওই সময় চালকরা যাত্রীদের শিখিয়ে দিচ্ছে- কেউ প্রশ্ন করলে বলবেন এটা ব্যক্তিগত গাড়ি।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক ভাড়ায়চালিত প্রাইভেটকার ও মাইক্রোবাসের চালক বার্তা২৪.কমকে বলেন, ‘ভাই কী করব? করোনার কারণে এতদিন ঘরে বসেছিলাম। এভাবেতো আর ঘরে বসে থাকা যায় না। কাজ না করলে খাব কী?’

যশোরগামী যাত্রী কামাল হোসেন বার্তা২৪.কমকে জানান, গণপরিবহন বন্ধ থাকায় সড়কে কোনো গাড়ি নেই। তাই নিরুপায় হয়েই প্রাইভেটকার ভাড়া করেছি।’

আপনার মতামত লিখুন :