খুনি মাজেদের লাশ নদীতে ভাসিয়ে দেওয়া হবে: এমপি খোকা

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, ঢাকা
সংসদ সদস্য লিয়াকত হোসেন খোকা

সংসদ সদস্য লিয়াকত হোসেন খোকা

  • Font increase
  • Font Decrease

বঙ্গবন্ধুর খুনি মাজেদের লাশ রাতের আঁধারে চুপিসারে সোনারগাঁওয়ে (শম্ভুপুরা ইউনিয়ন) দাফন করায় সোনারগাঁওবাসী কলঙ্কিত হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন জাতীয় পার্টির সংসদ সদস্য লিয়াকত হোসেন খোকা।

খুনি মাজেদের লাশ সোনারগাঁওয়ের মাটিতে রাখতে দেওয়া হবে না বলে ঘোষণা দিয়েছেন নারায়ণগঞ্জ-৩ আসনের এই এমপি। অবিলম্বে খুনি মাজেদের লাশ সোনারগাঁও থেকে অপসারণ করে সোনারগাঁওকে কলঙ্কমুক্ত করার দাবি জানিয়েছেন তিনি।

রোববার (১২ এপ্রিল) এক বিবৃতিতে এমপি খোকা বলেন, শুধু দ্বিতীয় স্ত্রীর বাবার বাড়ির সূত্রে আত্মস্বীকৃত খুনি মাজেদের কলঙ্কিত লাশ সোনারগাঁওয়ে দাফন করায় সোনারগাঁও উপজেলা মহাজোট ও জাতীয় পার্টির নেতৃবৃন্দসহ সমগ্র সোনারগাঁওবাসী কলঙ্কিত হয়েছে। প্রয়োজনে খুনি মাজেদের লাশ কবর থেকে অপসারণ করে মেঘনা নদীতে ভাসিয়ে দিয়ে সোনারগাঁওকে কলঙ্কমুক্ত করা হবে।

এমপি খোকা বলেন, ঈশা খাঁর রাজধানী প্রাচীন বাংলার ইতিহাস ও ঐতিহ্যের নানা বৈচিত্র্যে সমৃদ্ধ সোনারগাঁওয়ে সুলতান গিয়াস উদ্দিন আজম শাহ্, ঐতিহাসিক পাঁচ পীরের দরগাহ্, সুলতান দানেশ মান্দ, উপমহাদেশের প্রথম ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিষ্ঠাতা শেখ শরফুদ্দিন আবু তাওয়ামা (র.)সহ অসংখ্য পীর আউলিয়া শায়িত আছেন।

তিনি আরও বলেন, খুনি মাজেদের জন্মস্থান ভোলার বোরহানউদ্দিন এলাকায়, তাই তার লাশ সেখানে দাফন হওয়ার কথা। সোনারগাঁওয়ের কেউ এর সঙ্গে জড়িত থাকলে তাদের খুঁজে বের করে শাস্তির আওতায় আনার ব্যবস্থা নিতে হবে।

এছাড়াও শম্ভুপুরা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান জাতীয় পার্টির নেতা আব্দুর রউফ ও উপজেলা জাতীয় পার্টির নেতৃবৃন্দও চরম ক্ষোভ প্রকাশ করে খুনি মাজেদের লাশ অপসারণের দাবি জানিয়েছেন।

আপনার মতামত লিখুন :