ক্রিকেটের দাপটের দিনে দুই রৌপ্য

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম
উড়ন্ত জয়ে শুরু ক্রিকেট দলের- ছবি: বিওএ

উড়ন্ত জয়ে শুরু ক্রিকেট দলের- ছবি: বিওএ

  • Font increase
  • Font Decrease

আগের দিনই সোনায় মোড়ানো একদিন ছিল বাংলাদেশের। কারাতে থেকেই আসে তিন স্বর্ণপদক। কিন্তু বুধবার প্রত্যাশার সঙ্গে প্রাপ্তির দেখা হলো না। দক্ষিণ এশিয়ান গেমসে (এসএ গেমস) হতাশাতেই দিনটা কাটল। পুরুষ ও নারী ক্রিকেট দল জিতলেও নেপালে আসরের চতুর্থ দিনে দুটি রৌপ্যতেই তুষ্ট থাকতে হলো বাংলাদেশকে।

চলুন দেখে নেই এসএ গেমসে বুধবার দিনটি কেমন কাটল বাংলাদেশের।

ক্রিকেট

পুরুষ: আসরে শক্তিশালী দল নিয়েই লড়ছে বাংলাদেশ ক্রিকেট দল। কাঠমান্ডুর ত্রিভুবন বিশ্ববিদ্যালয় আন্তর্জাতিক ক্রিকেট গ্রাউন্ডে নিজেদের প্রথম ম্যাচে ১১০ রানে মালদ্বীপকে হারিয়েছেন সৌম্য সরকাররা। টসে জিতে ব্যাটিংয়ে নিয়ে বাংলাদেশ ২০ ওভারে ৪ উইকেটে তুলে ১৭৪। নাজমুল হোসেন শান্ত ৪৯, সৌম্য সরকার ৪৬ ও মোহাম্মদ নাঈম ৩৮ রান করেন। এরপর টাইগারদের বোলিং তোপে মালদ্বীপ ১৯.২ ওভারে ৬৪ রানে অলআউট। তানভীর ইসলাম ১৯ রানে নেন ৫ উইকেট।

নারী: বুধবার পোখরা ক্রিকেট গ্রাউন্ডে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে স্বাগতিক নেপালকে ১০ উইকেটে হারায় বাংলাদেশ। টসে জিতে নেপালকে ব্যাটিংয়ে পাঠায় বাংলাদেশ। স্বাগতিকরা ১৯.২ ওভারে ৫০ রানে অলআউট। রাবেয়া খান ৮ রানে ৪ উইকেট নেন। জবাব দিতে নেমে ৭৪ বল হাতে রেখেই জয় নিশ্চিত করেন দুই ওপেনার মুর্শিদা খাতুন (২৩*) ও আয়েশা রহমান (২৬*)।

কারাতে
বুধবার সাতদোবাতোর ইন্টারন্যাশনাল স্পোর্টস কমপ্লেক্সে মেয়েদের দলগত কুমিতে রৌপ্য পদক পেয়েছে বাংলাদেশ। এই ইভেন্টের সেমি-ফাইনালে বাংলাদেশের মারজান আক্তার প্রিয়া-হুমায়রা আক্তার অন্তরা ও মাউনজেরা বর্না ২-১ ব্যবধানে শ্রীলঙ্কাকে হারান। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ম্যাচে ঘাড়ে আঘাত পেয়ে খেলা শেষ না করেই ম্যাট ছাড়তে হয় স্বর্ণজয়ী প্রিয়াকে। তার পরিবর্তে ফাইনালে খেলেন নাইমা খাতুন। ফাইনালে পাকিস্তানের কাছে ১-২ পয়েন্টে হারে মেয়েরা।

ছেলেদের দলগত কুমিতেও ব্রোঞ্জ পেয়েছে বাংলাদেশ। ছেলেদের অনূর্ধ্ব-৫০ কেজি কুমিতে ব্রোঞ্জ পেয়েছেন সবুজ মিয়া। মেয়েদের কুমিতে ৬৮ (+) ওজন শ্রেণীতে আবিদা সুলতানা ব্রোঞ্জ পেয়েছেন। ৩টি স্বর্ণ, ৩টি রৌপ্য ও ১২টি ব্রোঞ্জ নিয়ে আসর শেষ করল কারাতে দল।

ব্যাডমিন্টন
মিক্সড ডাবলসের কোয়ার্টার ফাইনালে নেপালকে ২১-১৩ ও ২১-১৭ পয়েন্টে হারিয়ে সেমি-ফাইনালে উঠেছে বাংলাদেশ।মেয়েদের ডাবলসের কোয়ার্টার ফাইনালে এলিনা সুলতানা ও শাপলা আক্তার জুটি ২১-১২ ও ২১-১৪ পয়েন্টে ভারতের জুটির কাছে হারেন।

কাবাডি
হালচুক আর্মড পুলিশ ফোর্স স্টেডিয়ামে মেয়েদের কাবাডিতে স্বাগতিক নেপালের কাছে ৩৬-২৫ পয়েন্টে হেরেছে বাংলাদেশ। ছেলেদের বিভাগে স্বাগতিক নেপালের বিপক্ষে ৪৩-১৫ ব্যবধানে জয় তুলে নেয় বাংলাদেশ দল।

খো-খো
কৃতিপুরে ছেলেদের ফাইনালে ভারতের কাছে ইনিংস ও ১৬-০৯ পয়েন্টে হেরে রৌপ্য পদক পেয়েছে বাংলাদেশ। মেয়েদের ব্রোঞ্জ নির্ধারণী ম্যাচে শ্রীলঙ্কাকে ইনিংস ও ২ পয়েন্টে হারে বাংলাদেশ দল।

শ্যুটিং
মেয়েদের ২৫ মিটার পিস্তলে আরদিনা ফেরদৌস আখি পঞ্চম স্থান, তার স্কোর ১২। ৩০ স্কোর করে এই ইভেন্টে স্বর্ণ পেয়েছেন ভারতের আনু সিং।

অ্যাথলেটিকস
দশরথ স্টেডিয়ামে ছেলেদের লং জাম্পে ব্রোঞ্জ পেয়েছেন বাংলাদেশের আল আমিন (৭.৬০ মিটার)। ভারতের লোকেশ সাথিয়ানা (৭.৮৭ মিটার) স্বর্ণ ও তার স্বদেশী স্বামীনাথান রাভ (৭.৭৭) রৌপ্য জিতেছেন।

মেয়েদের ২০০ মিটার স্প্রিন্টে শিরিন আক্তার ২৫.৫৯ সেকেন্ড সময় নিয়ে আট প্রতিযোগীর মধ্যে সপ্তম হয়েছেন। ভারতের অর্চনা সুশান্ত (২৩.৬৬) স্বর্ণ ও পাকিস্তানের নাজমা পারভীন (২৩.৬৯) রৌপ্য পদক পেয়েছেন। ছেলেদের ২০০ মিটারে ২১.৭০ সেকেন্ড সময় নিয়ে মোহাম্মদ সাইফুল ইসলাম আট প্রতিযোগীর মধ্যে সপ্তম হয়েছেন।

টেবিল টেনিস
ছেলেদের দলগত ইভেন্টে পাকিস্তানকে ৩-২ সেটে হারিয়ে ব্রোঞ্জ পায় বাংলাদেশ। মেয়েদের দ্বৈতে স্বাগতিক নেপালকে ৪-১ সেটে হারিয়ে ব্রোঞ্জ জিতেছে বাংলাদেশের সোনম সুলতানা-সাদিয়া রহমান মৌ জুটি।

হ্যান্ডবল
পোখরায় শুরু হওয়া পুরুষ হ্যান্ডবলে প্রথম ম্যাচে ভারতের কাছে ৪২-৩৩ গোলে হেরেছে বাংলাদেশ। প্রথমার্ধে ভারত ২২-১৯ গোলে এগিয়ে ছিল।

উশু
ছেলেদের অনূর্ধ্ব-৫৬ কেজি সানদায় শ্রীলঙ্কার প্রতিযোগীকে হারিয়ে ফাইনালে উঠেছেন সজীব হোসেন। মেয়েদের অনূর্ধ্ব-৫৬ কেজি সানদা ইভেন্টে সাদিয়া আক্তার, অনূর্ধ্ব-৭০ কেজিতে সানদায় বাসনা খন্দকার, অনূর্ধ্ব-৬০ কেজিতে সানদায় রিতা বিশ্বাস পূজা ব্রোঞ্জ পেয়েছেন। অনূর্ধ্ব-৬০ কেজিতে মিলন হোসেন ও অনূর্ধ্ব-৬৫ কেজিতে ব্রোঞ্জ পেয়েছেন রাকিব খন্দকার।

প্রতিযোগিতায় এখন অব্দি ৪টি স্বর্ণ, ৮টি রৌপ্য ও ৩১টি ব্রোঞ্জসহ ৪৩টি পদক পেয়েছে বাংলাদেশ।

আপনার মতামত লিখুন :