ফাইনালের টস, স্কোর ও প্রতিপক্ষ নিয়ে আন্দ্রে রাসেল

স্পোর্টস এডিটর, বার্তা২৪.কম
রাজশাহী রয়্যালসের ক্যাপ্টেন আন্দ্রে রাসেলের ভাবনা এখন ফাইনাল নিয়ে, ছবি: বিসিবি

রাজশাহী রয়্যালসের ক্যাপ্টেন আন্দ্রে রাসেলের ভাবনা এখন ফাইনাল নিয়ে, ছবি: বিসিবি

  • Font increase
  • Font Decrease

হঠাৎ করেই ফাইনালের সব ফোকাস তার ওপর। এক ম্যাচে তার ব্যাটিং পারফরম্যান্সই আসলে বদলে দিয়েছে বাকি সব খোঁজখবরের তত্ত্ব! আন্দ্রে রাসেলের ২২ বলে অপরাজিত ৫৪ রানই বঙ্গবন্ধু বিপিএলে চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সকে শেষ ‘চোট’ দিয়েছে!

যে চোটে টুর্নামেন্টই শেষ ফেভারিট চট্টগ্রামের।

আর তাই শুক্রবারের ফাইনালে খেলতে নামার আগে খুলনা টাইগার্স যে পরিকল্পনা ও ছক সাজাচ্ছে তার সিংহভাগ অংশ জুড়েই থাকছে একটা নাম-আন্দ্রে রাসেল।

ব্যাটে-বলে বেশ ভালোই সময় কাটছে ওয়েস্ট ইন্ডিজের এই অলরাউন্ডারের। ব্যাটিংয়ে ১৯৮ রান এবং বোলিংয়ে ১২ উইকেট শিকার। আর ফাইনালের ঠিক আগের ম্যাচেই খেলেছেন টুর্নামেন্টে নিজের সেরা ব্যাটিং।

বুধবার রাতেই বড় টেনশনের ম্যাচ খেলে ফাইনালে উঠেছে রাজশাহী রয়্যালস। তাই বৃহস্পতিবার তাদের কোনো অনুশীলন ছিল না। তবে এদিন দুপুরে মিরপুর শের-ই-বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে এসেছিলেন রাজশাহী রয়্যালসের অধিনায়ক আন্দ্রে রাসেল। ফাইনালের ট্রফি নিয়ে খুলনা টাইগার্সের অধিনায়ক মুশফিকুর রহিমের সঙ্গে ছবি তোলার জন্য পোজ দেন। মাঠে দাঁড়িয়ে ছবি তোলার সময় দু’জনের মুখেই স্মিত হাসি। কিন্তু সমস্যা হলো শুক্রবার রাতে এদের যে কেউ একজনের মুখে থাকবে এই হাসি!

সেই প্রসঙ্গে রাসেল ফাইনালের আগে তার ‘ফাইনাল ভাবনা’ নিয়ে বলছিলেন- ‘ফাইনালে খেলছি আমরা। এখন এই ম্যাচে জয় ছাড়া অন্য কোনো চিন্তা করার কিছু নেই। বুধবার রাতের ম্যাচে আমরা প্রমাণ করতে পেরেছি যে দল হিসাবে কী করতে পারি। আশা করছি ফাইনালের রাতেও অমনকিছু করে দেখাতে পারব আমরা।’

প্রতিপক্ষ খুলনা টাইগার্স নিয়ে রাসেলের চিন্তাভাবনা আরো পরিষ্কার। বললেন- ‘আমরা আসলে এককভাবে কাউকে নিয়ে ভাবছি না। প্রতিপক্ষের পুরো দলকে নিয়েই আমাদের পরিকল্পনা। খুলনা দলে অনেক ম্যাচ উইনার আছে। সবার বিপক্ষেই আমাদের পরিকল্পনা সাজাতে হবে। ব্যাটিং-বোলিং নিয়ে যেই পরিকল্পনাই করি না কেন, সেটা যেন সঠিক হয় এবং আমরা যেন মিশন সফল করতে পারি।’

রাতের শিশিরে বোলিং করাটা বড় দুঃসহ ব্যাপার। আর তাই টসে জিততে মরিয়া সব অধিনায়ক। টসে জিতে আগে বোলিংয়ের কাজটা সেরে রাখতে চান সবাই। টস প্রসঙ্গে রাসেল জানালেন- ‘টস অবশ্যই গুরুত্বপূর্ণ। তবে মনে রাখতে হবে কয়েক রাত আগে এই মাঠে তারা আমাদের বিপক্ষে আগে ব্যাট করতে নেমেও ম্যাচ জিতেছিল। তাও মাঝারি মানের স্কোর গড়ে। আমরা সেই রান তাড়া করতে গিয়ে অনেক উইকেট হারিয়ে ফেলি। সেটাই আমাদের ব্যাকফুটে ফেলে দেয়। ফাইনালেও আমরা যদি আগে ব্যাট করার সুযোগ পাই তাহলে স্কোরবোর্ডে ১৭০ রান তুলতে চাই। টস করার জন্য কয়েন আকাশের দিকে ছোড়ার পর তো আর কিছু করার নেই। শুধু তাকিয়ে অপেক্ষা করতে হয় যেন কলটা ঠিক হয়।’

আপনার মতামত লিখুন :