সন্ত্রাসীদের হাতে প্রাণ হারালেন কাবাডি খেলোয়াড় কাইয়ুম

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম
খুন হয়েছেন সাবেক কাবাডি খেলোয়াড় কাইয়ুম সিকদার

খুন হয়েছেন সাবেক কাবাডি খেলোয়াড় কাইয়ুম সিকদার

  • Font increase
  • Font Decrease

করোনাভাইরাসে অনেকটাই থমকে আছে দেশ। গৃহবন্দী অনেকেই। কিন্তু সংক্রমণের মধ্যেই সন্ত্রাসীদের হাতে প্রাণ হারালেন জাতীয় কাবাডি দলের সাবেক খেলোয়াড় কাইয়ুম সিকদার। মঙ্গলবার রাতে নড়াইলের নড়াগাতি থানার কালিনগর এলাকায় খুন হয়েছেন তিনি।

কাইয়ুম ১৯৯৫ সালে মাদ্রাজ এসএ গেমসে রৌপ্যজয়ী ও ১৯৯৮ সালে এশিয়ান গেমসে ব্রোঞ্জজয়ী বাংলাদেশ দলের সদস্য।

বাংলাদেশ কাবাডি ফেডারেশন সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে ফেডারেশনের সভাপতি ও বাংলাদেশ পুলিশের সাবেক মহাপরিদর্শক মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী প্রয়াত কাইয়ুমের আত্মার মাগফেরাত কামনা ও শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করেছেন।

জানা গেছে, আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করেই এ খুনের ঘটনা ঘটেছে। কাইয়ুম কলাবাড়িয়া ইউনিয়ন পরিষদের ৩ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের নেতা।

বলা দরকার, ১৯৯৫ মাদ্রাজ এসএ গেমসে জাতীয় দলে অভিষেক কাইয়ুমের। এরপর এই কাবাডি খেলোয়াড় দেশের হয়ে লড়েছেন ১৯৯৯ এসএ গেমস ও ১৯৯৮ এশিয়ান গেমসে। খেলোয়াড়ি জীবন শেষে ২০১০ গুয়াংজু এশিয়ান গেমস আর ২০১০ মাস্কট বিচ গেমসে রেফারির দায়িত্ব পালন করেছেন তিনি।

কাবাডি ফেডারেশনের নির্বাচিত কার্যনির্বাহী সদস্যও ছিলেন কাইয়ুম।