Barta24

রোববার, ১৮ আগস্ট ২০১৯, ৩ ভাদ্র ১৪২৬

English

পোস্তায় পলিথিন কারখানার আগুন নিয়ন্ত্রণে

পোস্তায় পলিথিন কারখানার আগুন নিয়ন্ত্রণে
ছবি: সংগৃহীত
স্টাফ করেসপন্ডেন্ট
বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম
ঢাকা


  • Font increase
  • Font Decrease

রাজধানীর লালবাগের পোস্তায় প্লাস্টিক ও পলিথিন কারখানায় লাগা আগুন নিয়ন্ত্রণে এসেছে।

বুধবার (১৪ আগস্ট) রাত ১টার দিকে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে সক্ষম হয় ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা।

এর আগে রাত ১১টার দিকে লালবাগের পোস্তার ডাল এলাকার ওই প্লাস্টিক ও পলিথিন কারখানায় এ অগ্নিকাণ্ড ঘটে।

ফায়ার সার্ভিস সূত্রে জানা গেছে, রাতে লালবাগের পোস্তা ওয়াটার অক্সফোর্ড রোড এলাকায় একটি ভবনে এই আগুন লাগার ঘটনা ঘটে। পরে ভবনটিতে থাকা একটি প্লাস্টিক ও পলিথিন কারখানায় আগুন ছড়িয়ে পরে। এরপর ফায়ার সার্ভিসের ১৫টি ইউনিট ২ ঘণ্টা কাজ করে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। তবে সরু রাস্তার কারণে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে বেগ পেতে হয়েছে তাদের। এ ঘটনায় কোনো হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি।

আরও পড়ুন:সরু রাস্তার কারণে পোস্তায় আগুন নেভাতে বেগ পেতে হচ্ছে

আপনার মতামত লিখুন :

মওদুদরা এ যুগের শয়তান: রাজ্জাক

মওদুদরা এ যুগের শয়তান: রাজ্জাক
সচিবালয়ে ঈদ শুভেচ্ছা বিনিময়ে কৃষিমন্ত্রী ড. আব্দুর রাজ্জাক/ ছবি: বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ সহ তার সঙ্গে সংশ্লিষ্টদের এ যুগের শয়তান হিসেবে উল্লেখ করেছেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও কৃষিমন্ত্রী ড. মো: আব্দুর রাজ্জাক।

রোববার (১৮ আগস্ট) বেলা ১১টায় সচিবালয়ে কর্মকর্তাদের সঙ্গে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময়ককালে তিনি এসব কথা বলেন।

আব্দুর রজ্জাক বলেন, ব্যারিস্টার মওদুদ যখন আইনমন্ত্রী ছিলেন, তখন বঙ্গবন্ধু হত্যার বিচার করেননি। পরে আইন করে বিচার বন্ধ করেছিলেন। সেই আইন বাতিল করা হয়েছে, তারপরও এই হত্যাকাণ্ডের বিচার হয়নি। তারা বঙ্গবন্ধুর সঙ্গে ছিলেন, বঙ্গবন্ধুর আলোতে আলোকিত ছিলেন। জাতীয় পার্টি করেছেন, যখন এরশাদ এসেছেন। একনায়ক এরশাদ চলে যাওয়ার পরে গণতন্ত্রের লেবাস পড়ে বিএনপিতে চলে গিয়েছিলেন।’

মাওদুদকে এদেশের ‘ইভিল জিনিয়াস' উল্লেখ করে কৃষিমন্ত্রী বলেন, ‘এই শয়তানদের জন্য দেশটা পিছিয়ে গেছে। যে আদর্শে দেশ স্বাধীন হয়েছিল, সেটি অব্যাহত থাকলে দেশ এগিয়ে যেত, সেজন্য আওয়ামী লীগকে ক্ষমতায় থাকতে হবে তা নয়। সকল মানুষের জন্য ন্যায়ভিত্তিক সমাজ হিসেবে গড়ে তুলতে হবে।’

আব্দুর রাজ্জাক বলেন, ‘ফিলিপাইনে চালের দাম বেশি ছিল। তারা চাল আমদানি করেছে প্রায় ১৪ লাখ মেট্রিক টন। ফলে সেখানে চা্ররের দাম কমে গেছে। এখন সে দেশের সরকার সিদ্ধান্ত নিয়েছে চাল রপ্তানি করবে। আমনা চাল রপ্তানি করলে কঠিন অবস্থার মধ্য দিয়ে যেতে হবে। সে জন্য সেদিকে নজর রাখতে হবে।

তিনি বলেন, বন্যায় যেখানে বাধ আছে সেখানে ফসল ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। আমাদের বাজেট ১২০ কোটি টাকা। প্রধানমন্ত্রী বলেছেন কৃষির জন্য টাকার কোন অভাব হবে না। আর বেশি টাকা লাগলেও দেয়ার নির্দেশ দিয়েছেন তিনি।

তিনি আরও বলেন, বন্যা বাংলাদেশের জন্য কল্যাণ বয়ে আনে, আবার ক্ষতি করে। আগে ফসল ছিল বৃষ্টি নির্ভর। সবমিলিয়ে যে বৃষ্টি হয়ে তা নিয়েই মাদের পানির স্তর যথেষ্ট।

ঈদযাত্রায় কিছুটা সমস্যা হলেও মানুষ অভ্যস্ত: কৃষিমন্ত্রী

ঈদযাত্রায় কিছুটা সমস্যা হলেও মানুষ অভ্যস্ত: কৃষিমন্ত্রী
সচিবালয়ে কৃষিমন্ত্রী ড. আব্দুর রাজ্জাক, ছবি: সংগৃহীত

সারাদেশে ঈদযাত্রায় কিছুটা সমস্যা হলেও সাধারণ মানুষ এর সঙ্গে অভ্যস্ত বলে মন্তব্য করেছেন কৃষিমন্ত্রী ড. মো. আব্দুর রাজ্জাক।

রোববার (১৮ আগস্ট) বেলা ১১টায় সচিবালয়ে কর্মকর্তাদের সঙ্গে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময়ককালে তিনি এ মন্তব্য কথা বলেন।

কৃষিমন্ত্রী বলেন, 'ঈদ যাত্রায় সারাদেশে যাতায়াতে কিছু সমস্যা হয়েছে। সাধারণ মানুষ এর সঙ্গে অভ্যস্ত। তারা এটি মোকাবিলা করে। এর ফলে তাদের আনন্দে ঘাটতি থাকে না। নানা সমস্যার মধ্যেই কাজ করতে হয়।'

তিনি বলেন, 'কলকাতায় উৎসবে বস্তির মানুষও আতশবাজি করে। কিন্তু এতে কি তাদের জীবন যাত্রার পরিবর্তন হবে? তারপরও তারা আনন্দ করছে। এই জন্যই বলা হয় সিটি অব জয়। এভাবেই মানুষ সমস্যার মোকাবিলা করে।'

তিনি আরও বলেন, 'বাংলাদেশের মানুষ সবকিছুর মধ্যেই আনন্দ করে। ঈদে যাতায়াতে টাঙ্গাইলে ১০ ঘণ্টা লেগেছে যেতে। অনেকেই এই সমস্যার সম্মুখীন হয়েছেন। কিন্তু আশা করি সবারই ঈদ ভালো হয়েছে।'

ড. আব্দুর রাজ্জাক বলেন, 'জিয়াউর রহমান সরাসরি বঙ্গবন্ধুর হত্যাকাণ্ডে সম্পৃক্ত ছিলেন। তিনি অনেককে উসকে দিয়ে এ হত্যাকাণ্ড সংগঠিত করেন। ২০০১ সালে বিএনপি ক্ষমতায় আসার পর ৭৫-এ যে লক্ষ্য নিয়ে বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করা হয়েছিল, তা পূরণের জন্য সেই সরকার কাজ করেছে। বঙ্গবন্ধুর হত্যাকারীদের অনেকে বিভিন্ন দেশে পালিয়ে আছেন। মানবতার কথা বলে তারা বিভিন্ন দেশে পালিয়ে আছেন।'

তিনি আরও বলেন, 'একটি ষড়যন্ত্রের লক্ষ্য নিয়ে বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করা হয়ছিল। এটি ছিল একটি প্রতিহিংসার বহিঃপ্রকাশ। বঙ্গবন্ধুর স্বাধীনতার যে চেতনা, সেটি ধ্বংস করে পাকিস্তানের সঙ্গে সম্পর্কে সৃষ্টি করা এই হত্যাকাণ্ডের উৎস ছিল।'

এ সম্পর্কিত আরও খবর

Barta24 News

আর্কাইভ

শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র