ভিয়েতনামে নতুন সোশ্যাল মিডিয়া

টেক ডেস্ক, বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম
ভিয়েতনামে নতুন সোশ্যাল মিডিয়ার নাম লোটাস, ছবি: সংগৃহীত

ভিয়েতনামে নতুন সোশ্যাল মিডিয়ার নাম লোটাস, ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

সোশ্যাল মিডিয়ার নাম আসলেই প্রথম সারির মধ্যে চলে আসে ফেসবুক, টুইটার, ইনস্টাগ্রামের নাম। কিন্তু এই চ্যালেঞ্জিং সেক্টরে এবার যোগ হচ্ছে ভিয়েতনাম ভিত্তিক নতুন একটি সোশ্যাল মিডিয়ার নাম।

সোশ্যাল মিডিয়া ‘লোটাস’ ব্যবহার করে গ্রাহকরা পোস্ট তৈরি করতে পারবেন এবং হোমপেইজ থেকে কনটেন্ট শেয়ার করতে পারবেন।

অন্যদিকে ভিয়েতনামে মার্কিন টেক জায়ান্ট ফেসবুক এবং গুগলকে নিয়ন্ত্রণে আনতে নতুন সাইবার সিকিউরিটি আইন জারি করেছে।

সোমবার (১৬ সেপ্টেম্বর) প্রতিষ্ঠানটির জেনারেল ডিরেক্টর এনগুইন দ্য টান বলেন, 'ফেসবুক বা অন্য কোনো সোশ্যাল মিডিয়ার সঙ্গে প্রতিযোগিতার আমাদের যাত্রা শুরু হয়নি। আমরা শুধু মানসম্পন্ন কনটেন্ট তৈরির দিকে মনোযোগ দিতে চাই।’

দেশটির তথ্যমন্ত্রী এনগুইন ম্যান হাং আনুষ্ঠানিকভাবে লোটাসের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ভিয়েতনামের কোম্পানিগুলোকে উদ্দেশ্যো করে বলেন, দেশের মধ্যে ফেসবুক, গুগলের মত প্রতিষ্ঠানের বিকল্প মিডিয়া তৈরি করতে হবে। দেশের মানুষের প্রতি নিজস্ব সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহার করার আহ্বান জানান। তাহলে বিদেশি সোশ্যাল মিডিয়াগুলোকে ছাড়িয়ে যাবে দেশীয় অ্যাপ।

সম্প্রতি রাষ্ট্রীয় এক গবেষোনায় দেখা যায়, ভিয়েতনামে ৫৮ মিলিয়ন ফেসবুক এবং ৬২ মিলিয়ন গুগল ব্যবহারকারী রয়েছে। কিন্তু এসব প্রতিষ্ঠানের বিকল্প হিসেবে দেশটির কোনো সোশ্যাল মিডিয়ার নাম নেই।

ভিয়েতনাম গত কয়েক বছর ধরে ইন্টারনেটের নীতিমালা কঠোর করা হয়েছে। জানুয়ারিতে একটি সাইবারসিকিউরিটি আইন কার্যকর হয়েছিল, যা ফেসবুকের মতো বিদেশী সংস্থাগুলিকে দেশে স্থানীয় অফিস স্থাপন করতে বলা হয়েছে।

ভিয়েতনাম ছাড়াও চীন, দক্ষিণ কোরিয়ায় তাদের নিজস্ব সোশ্যাল মিডিয়া রয়েছে।

সূত্র: রয়টার্স

আপনার মতামত লিখুন :