২০২০ সালের স্মার্টফোন ট্রেন্ড

সাফাত জামিল, কন্ট্রিবিউটিং করেসপন্ডেন্ট
এ বছরের স্মার্টফোন ট্রেন্ড সম্পর্কে ধারণা দিয়েছে সিইএস ২০২০

এ বছরের স্মার্টফোন ট্রেন্ড সম্পর্কে ধারণা দিয়েছে সিইএস ২০২০

  • Font increase
  • Font Decrease

লাস ভেগাসের সদ্যসমাপ্ত বার্ষিক কনজ্যুমার ইলেক্ট্রনিক শো বা সিইএস ২০২০ থেকে ধারণা পাওয়া গেছে নতুন বছরের ফাইভ-জি, ফোল্ডেবল বা গেমিং স্মার্টফোনগুলোর দাম এবং নকশার ট্রেন্ড সম্পর্কে। যদিও মোবাইল ফোনের চোখ ধাঁধানো সব ফিচার্সের সন্ধান পেতে সিইএসের চেয়ে আগামী মাসে বার্সেলোনায় অনুষ্ঠিতব্য মোবাইল ওয়ার্ল্ড কংগ্রেসের দিকেই চোখ থাকবে সবার। তবুও দারুণ এক বছরেরই আভাস দিয়েছে এই ইভেন্ট।

স্যামসাং-এর নতুন এস-১০ লাইট 

আসছে সাশ্রয়ী ফোল্ডেবল ফোন
মটরোলা রেজর ১৫০০ ডলার, গ্যালাক্সি ফোল্ড ২০০০ ডলার, হুয়াওয়ে মেট এক্স ২৪০০ ডলার। বলা বাহুল্য, ফোল্ডেবল স্মার্টফোনগুলোর দাম এখন আকাশচুম্বী। আস্ত পর্দাটাই দুই ভাঁজ করবার ফিচার দিয়ে প্রথাগত মুঠোফোনের ধারণাই বদলে দিচ্ছে এই উদীয়মান ক্যাটাগরি। ব্যয়বহুল গবেষণা আর নিয়ত মানোন্নয়নের ফলে আলোর মুখ দেখা শুরুর দিকের এসব ফোল্ডেবল ফোনের জন্য স্বাভাবিকভাবেই গুণতে হচ্ছে সমসাময়িক ফোর-জি ফোনগুলো থেকে বেশি মূল্য।

কিন্তু আকাশছোঁয়া দাম মানেই তো অল্প সংখ্যক ক্রেতা। আর দাম একেবারে কমিয়ে দিলে এই নব উদ্ভাবন পরিণত হবে গণমানুষের ফোনে। তবে লাস ভেগাসের এই ইভেন্টে টিসিএল ব্র্যান্ড দেখিয়েছে রূপক এক ফোল্ডেবল ফোন—মটো রেজরের থেকেও কম খরচে হয়েছে যেটির ডিজাইন। ফাইভ-জি সুবিধাসহ ৭.২ ইঞ্চি পর্দার এই ফোনের পেছনে যুক্ত থাকবে তিনটি ক্যামেরা।

টিসিএল দেখিয়েছে রুপক এই ফোল্ডেবল ফোন

আলোচনায় এসেছে স্যামসাংয়ের পরবর্তী ফোল্ডেবল স্মার্টফোনও। ৮৫০ ডলারের কাছাকাছি মূল্যের ফোনটির নাম হতে পারে গ্যালাক্সি ব্লুম।

কমতে পারে ফাইভ-জি ফোনের দাম
ফোল্ডেবল স্মার্টফোনগুলোর মতো না হলেও প্রায় একই ফিচারসমৃদ্ধ ফোর-জি স্মার্টফোনগুলোর থেকে চড়া মূল্যে বিক্রি হচ্ছিল ফাইভ-জি ফোনগুলো। তবে ব্র্যান্ডগুলো এবার সবার নাগালের মধ্যে ফাইভ-জি ফোনের দাম রাখতে বেশ তৎপর। ৬.৫৩ পর্দার কুলপ্যাড লিগ্যাসি ফাইভ এখন পর্যন্ত সবচেয়ে কম মূল্যের ফাইভ-জি ফোন। এবছরের দ্বিতীয় প্রান্তিকে বাজারে আসবে ৪০০ ডলারের ফোনটি। পিছিয়ে নেই টিসিএল ১০ ফোনটিও। ৫০০ ডলারেরও কম মূল্যের ফোনটিতে থাকছে চার-চারটি ক্যামেরা আর হেডফোন জ্যাক।

৫২০ ডলারের শাওমি এমআই ৯ প্রো

তবে দাম কমার পাশাপাশি ফিচারের সীমাবদ্ধতায় বৈশ্বিক বাজারে সুবিধা করতে পারছে না ৫২০ ডলারের শাওমি এমআই ৯ প্রো-এর মতো ফোনগুলো।

ডিজাইনের অন্যতম অনুষঙ্গ ক্যামেরা
ক্যামেরা টেকনোলোজি সবসময়ই ছিল মুঠোফোনের অপরিহার্য ফিচার। তবে ফোন কেনার সময় এখন ক্যামেরার সাইজ, লেন্সের আয়তন—সবকিছু নিয়েই মাথা ঘামাচ্ছেন ক্রেতারা। স্যামসাং-এর নতুন গ্যালাক্সি নোট ১০ এবং গ্যালাক্সি এস ১০—দুটো স্মার্টফোনের পেছনেই অনেকটা গুগল পিক্সেল ফোর-এর মতো বর্গাকার বাক্সে জায়গা পেয়েছে ক্যামেরা লেন্স। বিশ্লেষকরা মনে করছেন, এর মধ্যদিয়ে স্যামসাং বর্তমানে অ্যাপল ১১-এর ট্রেডমার্ক বনে যাওয়া লেন্স ডিজাইনের সাথে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে আটঘাট বেঁধে নেমেছে।

ওয়ানপ্লাস ‘কনসেপ্ট ওয়ান’

অপরদিকে সিইএস ২০২০-এ ওয়ানপ্লাস ঘোষণা দিয়েছে তাদের নতুন ‘কনসেপ্ট ওয়ান’ ফোনের, যেটির রয়েছে ক্যামেরা লেন্সগুলোই অদৃশ্য হয়ে যাওয়ার প্রযুক্তি। কনসেপ্ট ওয়ানের রয়েছে এক বিশেষ গ্লাস, যা কিনা বৈদ্যুতিক প্রবাহের সহায়তায় ঢেকে ফেলতে পারবে পেছনের সবকটি লেন্স। বর্তমান ফোনগুলোয় যেভাবে লেন্সের আয়তন বেড়েই চলেছে, তাতে এই নতুন আইডিয়া নিশ্চিতভাবেই ফোনে আনবে হালকা ও প্রশস্ত লুক।

গেমারদের জন্য থাকছে সুখবর
মোবাইল গেমারদের কথা মাথায় রেখে বানানো স্মার্টফোনগুলোর চাহিদা দিনে দিনে বাড়ছে। ফাইভ-জি প্রযুক্তি সেই চাহিদায় দিয়েছে নতুন মাত্রা। এর অত্যন্ত দ্রুতগতির ডাটা আদান-প্রদানের ফিচারের কল্যাণে গেমাররা পাচ্ছেন নান্দনিক উচ্চমাত্রার গ্রাফিক্স। এই দৌড়ে পিছিয়ে নেই প্রসেসরগুলোও। স্ন্যাপড্রাগন ৭৬৫জি চিপসেট যেমন দারুণভাবে কাজ করছে এধরনের ফোনে। আরো অনেক ফোন নির্মাতা এখন আগ্রহের সাথে কাজ করছেন ১২০ হার্টজ রিফ্রেশ রেটের পর্দা নিয়ে, যার সাহায্যে মিলবে মসৃণ অ্যানিমেশন।

শাওমির নতুন ব্ল্যাক শার্ক ২ প্রো

সিইএস ২০২০-এ ঘোষিত শাওমির নতুন ব্ল্যাক শার্ক ২ প্রো খুব সম্ভবত বর্তমানে সেরা গেমিং মুঠোফোন—যা পূর্ণতা পেয়েছে নিন্টেন্ডো সুইচের মতো কাজ করা কেইসের মাধ্যমে। কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৮৫৫ প্লাস প্রসেসরের পাশাপাশি নতুন এই প্রো মডেলে গ্রাফিক্সের গতি বেড়েছে প্রায় ১৫%! ফোনটির দাম হবে ৫৯৯ ডলার।

সবমিলে বলা যায়, সম্ভাবনাময় এক বছরের পথেই এগিয়ে চলছেন মোবাইল ফোন নির্মাতারা, যা আরো পরিষ্কার হবে আগামী ২৪-২৭ ফেব্রুয়ারির বার্সেলোনা ইভেন্টে। সিইএস হয়তো শেষ, কিন্তু স্মার্টফোনের জন্য বছরটা সবে তো শুরু!

আপনার মতামত লিখুন :