মাঝ আকাশে বিমানে বিপত্তি, দুর্ঘটনা থেকে রক্ষা পেলেন মমতা



আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম, ঢাকা
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

বিমানে করে কলকাতায় ফেরার সময় মাঝ আকাশে হঠাৎ বিপাকে পড়েন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জী। শুক্রবার (৪ মার্চ) বারানসি থেকে ফেরার সময় কলকাতায় নামার কিছুক্ষণ আগেই এই ঘটনা ঘটে। আকস্মিক দুর্যোগে মুহূর্তের মধ্যে মুখ্যমন্ত্রীর বিমানটি সাত হাজার ফুট থেকে দুই হাজার ফুটে নেমে আসে। সেই সঙ্গে দুলতেও থাকে বিমানটি।

এ ঘটনায় কোমরে বেশ ব্যথা পান মুখ্যমন্ত্রী মমতা। আগে থেকেই তার কোমরে ব্যথা থাকায় বেশি সমস্যায় পড়েন।

আনন্দবাজার ডিজিটাল জানিয়েছে, রাজ্য সরকারের ভাড়া করা ফ্যালকন বিমানে সম্প্রতি বিভিন্ন প্রয়োজনে যাতায়াত করেন মমতা ব্যানার্জী। তবে এদিন যে বিমানটিতে তিনি চড়েছিলেন নির্দিষ্টভাবে সেই বিমানটিতে তিনি এর আগে সফর করেননি। ঘটনাচক্রে বিমানের দুই পাইলট ছিলেন বাবা ও মেয়ে। দুর্যোগ কেটে যাওয়ার মিনিট চারেক পরে মুখ্যমন্ত্রীর বিমানটি কলকাতার মাটি স্পর্শ করে।

এ দিন আকাশ যথেষ্ট পরিষ্কার ছিল। মেঘ, বৃষ্টি, ঝড় ছিল না। তবে বিমানবন্দর সূত্র জানিয়েছে, বিমানটি আচমকা বিপদের মুখোমুখি হতে যাচ্ছে দেখে পাইলট দ্রুত উচ্চতা প্রায় পাঁচ হাজার ফুট নামিয়ে দেন। তাতেই প্রবল ঝাঁকুনি ও ওলটপালট অবস্থা। বিমানের মধ্যে মুখ্যমন্ত্রী ও তার সহযাত্রীরা অবশ্য জানতে পারেন, তাদের বিমানের সামনে অন্য একটি বড় বিমান এসে পড়ে। এটিই বিপত্তির কারণ।

এদিকে নবান্ন সূত্র জানিয়েছে, মুখ্যমন্ত্রীর বিমানের ক্ষেত্রে ঠিক কী হয়েছে এবং কেন হয়েছে তা জানতে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে। যদি তার বিমানের সামনে অন্য কোনো বিমান এসেই থাকে, তাহলে বিষয়টি যথেষ্ট গুরুতর বলে নবান্নের একটি সূত্র জানিয়েছে। আর যদি বিপত্তির জন্য মুখ্যমন্ত্রীর বিমানের উচ্চতা আচমকা কমিয়ে দিতে হয়, তাহলেও তার সব খুঁটিনাটি জানার উদ্যোগ নেওয়া হবে সরকারের পক্ষ থেকে।

সাধারণত এ ধরনের অভিযোগ উঠলে দেশের আকাশের বিমান চলাচলের নিয়ন্ত্রক সংস্থা ডিরেক্টরেট জেনারেল অব সিভিল এভিয়েশন (ডিজিসিএ) তদন্ত করে। সে ক্ষেত্রে বিমান মাটি ছোঁয়ার পরে পাইলট লিখিত যে প্রতিবেদন জমা দেন তা গুরুত্বপূর্ণ নথি হিসেবে গণ্য করা হয়।

বিমানবন্দর সূত্র জানায়, এদিনও পাইলট প্রতিবেদন জমা দিয়েছেন। তাতে তিনি উল্লেখ করেছেন, কলকাতা বিমানবন্দর থেকে ৫০ কিলোমিটার উত্তর-পশ্চিম আকাশে যখন সাত হাজার ফুট উচ্চতা থেকে ছয় হাজার ফুটে নামছিলেন, আচমকাই সামনে বিপদজনক মেঘ দেখতে পান। সে কথা তিনি কলকাতা বিমানবন্দরের এয়ার ট্রাফিক কন্ট্রোলকে (এটিসি) জানান। এটিসি তাকে দুই হাজার ফুট উচ্চতায় নেমে আসতে বলে। তিনি সেই মতো নেমে আসেন।

বিমানবন্দরের একটি সূত্র জানিয়েছে, পাইলটের প্রতিবেদনের ভিত্তিতে তদন্তে নামবে ডিজিসিএ। তবে পাইলটের রিপোর্টে দ্বিতীয় কোনো বিমানের অস্তিত্ব ছিল কি না তা জানা যায়নি।

‘মিস ইন্ডিয়া’ খেতাব জিতলেন সিনি শেঠি



আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম, ঢাকা
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

এবছরের মিস ইন্ডিয়া খেতাব জিতলেন কর্নাটকের সিনি শেঠি। ফাইনালে তিনি ৩১ জনকে হারিয়ে এই স্থান অর্জন করেছেন। রাজস্থানের রুবাল শেখাওয়াত প্রথম রানার আপ হয়েছেন। অন্যদিকে উত্তর প্রদেশের শিন্তা চৌহান দ্বিতীয় রানার আপ হয়েছেন।

রোববার (০৩ জুলাই) জিআইও ওয়ার্ল্ড কনভেনশন সেন্টারে এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

অভিনেত্রী নেহা ধুপিয়া, ডিনো মোরিয়া, মালাইকা অরোরা, ডিজাইনার রোহিত গান্ধী, রাহুল খান্না, কোরিওগ্রাফার শিয়ামক দাভার ও সাবেক ক্রিকেটার মিতালি রাজ জুরি প্যানেলে ছিলেন।

বিচারকদের প্যানেলে ছিলেন নেহা ধুপিয়া, মালাইকা অরোরা, ডিনো মোরিয়া, ডিজাইনার রোহিত গান্ধী, রাহুল খান্না, কোরিওগ্রাফার শিয়ামক দাভার ও সাবেক ক্রিকেটার মিতালি রাজের মতো তারকারা। দেশের নানা প্রান্ত থেকে ৩১ জন প্রতিযোগীকে বেছে নেওয়া হয়েছিল। সবাইকে পেছনে ফেলে সেরার শিরোপা জিতে নেন ২১ বছরের সিনি।

অনুষ্ঠানে সব প্রতিযোগী তাদের সৌন্দর্যের পাশাপাশি অন স্পট প্রতিক্রিয়া শৈলী দিয়ে বিচারক ও মানুষদের মন জয় করেন। তবে স্বাভাবিক ভাবেই এগিয়ে ছিলেন সিনি শেঠি। যে কারণে তিনি মিস ইন্ডিয়ার খেতাব পেয়েছেন।

সিনি শেঠি চাটার্ড ফিনান্সিয়াল অ্যানালিস্টের কোর্স করেছেন। তিনি শিখেছেন ভারতনাট্যম। চার বছর বয়সে তিনি নাচ শুরু করেন। ১৪ বছর বয়স পর্যন্ত তিনি মঞ্চেও অভিনয় করেছেন। তিনি বর্তমানে কর্নাটকের বাসিন্দা হলেও, তার জন্ম মুম্বইতে।

;

ব্রিটিশ আর্মির ইউটিউব ও টুইটার অ্যাকাউন্ট হ্যাক



আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম, ঢাকা
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

যুক্তরাজ্যের সেনাবাহিনী বলেছে, তাদের ইউটিউব ও টুইটার অ্যাকাউন্ট হ্যাক হয়েছে। ইতিমধ্যে ঘটনাটির তদন্ত শুরু হয়েছে।

সোমবার (০৪ জুলাই) ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়েছে।

বিলিয়নেয়ার ইলন মাস্কের ছবি ব্যবহার করে ক্রিপ্টোকারেন্সির ভিডিও ইউটিউব চ্যানেলে প্রচার করেছে হ্যাকাররা। টুইটার ফিড এনএফটি-এর সঙ্গে সম্পর্কিত বেশ কয়েকটি পোস্ট রিটুইট করতে দেখা গেছে। বিনিয়োগের জন্য এক ধরনের ইলেকট্রনিক আর্টওয়ার্ক এটি।

দেশটির সেনাবাহিনী অ্যকাউন্ট হ্যাক হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেছে, তারা তথ্য সুরক্ষাকে অত্যন্ত গুরুত্ব সহকারে নিয়েছে এবং সমস্যাটির সমাধান করছে। দুটি অ্যাকাউন্টই পুনরুদ্ধার করা হয়েছে বলে জানানো হয়েছে।

সেনাবাহিনীর একজন মুখপাত্র বলেন, যদিও আমরা এখন সমস্যাটির সমাধান করেছি, তদন্ত চলছে এবং ঘটনাটি স্পষ্ট না হওয়া পর্যন্ত মন্তব্য করা অনুচিত হবে।

হ্যাকিংয়ের ঘটনার পিছনে কারা রয়েছে তা পরিষ্কার নয়। অ্যাকাউন্টগুলোরও নাম পরিবর্তন করা হয়েছে। টুইটার অ্যাকাউন্টের নাম পরিবর্তন করে Bapesclan করা হয়।

এদিকে, কনজারভেটিভ সংসদ সদস্য ও কমন্স ডিফেন্স সিলেক্ট কমিটির চেয়ারম্যান টোবিয়াস এলউড বলেছেন, যা ঘটেছে তা ‘গুরুতর বলে মনে হচ্ছে’।আমি আশা করি ঘটনার সঠিক তদন্ত ও ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

গুরুত্বপূর্ণ প্রতিষ্ঠানের টুইটার অ্যাকাউন্ট হ্যাক এটি প্রথমবার নয়। ২০২০ সালের জুলাই মাসে বিটকয়েন কেলেঙ্কারিতে হ্যাকারদের হাতে চলে গিয়েছিল যুক্তরাষ্ট্রের প্রধান টুইটার অ্যাকাউন্টগুলো।

;

ইউক্রেনের শস্য বহনকারী রুশ জাহাজ আটক করল তুরস্ক



আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম, ঢাকা
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

ইউক্রেনের শস্য বহনকারী একটি রুশ কার্গো জাহাজ আটক করেছে তুরস্কের কাস্টমস কর্তৃপক্ষ।

স্থানীয় সময় রোববার (০৩ জুলাই) তুরস্কে নিযুক্ত ইউক্রেনের রাষ্ট্রদূত ভাসিল বদনার এ তথ্য জানিয়েছেন। খবর বিবিসি ও রয়টার্সের।

ভাসিল বদনার বলেন, রাশিয়ার ওই জাহাজটির নাম ‘ঝিবেক ঝোলি’। সেটি ইউক্রেনের বেরদিয়ানস্ক বন্দর ছেড়ে এসেছিল। কৃষ্ণসাগরে তুরস্কের কারাসু বন্দরে পৌঁছালে জাহাজটি আটক করা হয়।

এই মুহূর্তে জাহাজটি কারাসু বন্দরের বাইরে সমুদ্র উপকূল থেকে ১ কিলোমিটার দূরে রাখা হয়েছে বলে জানিয়েছেন ঘটনাস্থলে থাকা রয়টার্সের প্রতিবেদকরা। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত জাহাজটিকে সেখান থেকে সরানো হয়নি।

জাহাজে থাকা খাদ্যশস্য কোথা থেকে সংগ্রহ করা হয়েছে তা জানা যায়নি। তবে ইউক্রেনে নিজেদের নিয়ন্ত্রণে থাকা অঞ্চলগুলো থেকে শস্য চুরির অভিযোগ রয়েছে রাশিয়ার বিরুদ্ধে। এসব অভিযোগ অবশ্য নাকচ করে এসেছে মস্কো।

;

ইউক্রেনকে আরও সামরিক সহায়তার প্রতিশ্রুতি অস্ট্রেলিয়ার

  রুশ-ইউক্রেন সংঘাত



আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম, ঢাকা
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

যুদ্ধবিধ্বস্ত ইউক্রেনকে আরও সামরিক সহায়তার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী অ্যান্টনি আলবানিজ।

স্থানীয় সময় রোববার (০৩ জুলাই) ইউক্রেনের কিয়েভ সফরে গিয়ে দেশটির প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কিকে এই প্রতিশ্রুতি দেন তিনি। খবর বিবিসির।

কোনো পূর্ব ঘোষণা ছাড়াই রোববার কিয়েভ সফরে যান অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী অ্যান্টনি আলবানিজ। তিনি এর আগে বিধ্বস্ত শহর বুচা এবং ইরপিন ভ্রমণ করেছিলেন।

বিবিসির খবরে বলা হয়, ১০০ মিলিয়ন অস্ট্রেলিয়ান ডলার মূল্যের এই সহায়তা প্যাকেজটিতে ড্রোন এবং ৩৪টি অতিরিক্ত সাঁজোয়া যান অন্তর্ভুক্ত রয়েছে।

অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী আরও ১৬ রাশিয়ান মন্ত্রী ও অলিগার্চের ওপর নিষেধাজ্ঞা এবং রাশিয়ান সোনা আমদানি বন্ধ করার ঘোষণা দিয়েছেন।

তিনি বলেছেন, তিনি এই সফরে ইউক্রেনের ধ্বংস ও আঘাত নিজ চোখে দেখেছেন।

কিয়েভের প্রেসিডেন্সিয়াল প্যালেসে এক সংবাদ সম্মেলনে আলবানিজ বলেন, তার দেশ ইউক্রেনকে যুদ্ধে জয় পেতে যতদিন সময় লাগবে ততদিন সমর্থন করবে।

যুক্তরাজ্য ও যুক্তরাষ্ট্রের মতো অস্ট্রেলিয়াও ইউক্রেনে তার দূতাবাস পুনরায় খোলার কথা বিবেচনা করছে।

গত ২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনে সামরিক অভিযান শুরু করেছে রাশিয়া। ভয়াবহ হামলায় ইউক্রেনের কয়েক হাজার বেসামরিক নাগরিক প্রাণ হারিয়েছে। তাদের অভিযানকে অবৈধ অ্যাখা দিয়ে মস্কোর ওপর কঠোর নিষেধাজ্ঞা দিয়ে আসছে পশ্চিমা দেশগুলো।

;