ভয়াবহ খরায় জিম্বাবুয়ে, জাতীয় দুর্যোগ ঘোষণা



আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

দীর্ঘদিন ধরে ভয়াবহ খরার কবলে রয়েছে আফ্রিকার দক্ষিণাঞ্চলীয় দেশ জিম্বাবুয়ে। এ পরিস্থিতিতে খরা মোকাবিলায় ‘জাতীয় দুর্যোগ’ ঘোষণা করেছে দেশটির সরকার।
বুধবার (৩ এপ্রিল) বিবিসির এক প্রতিবেদনে এ তথ্য প্রকাশিত হয়।

প্রতিবেদনে বলা হয়, দীর্ঘস্থায়ী খরা মোকাবিলায় জিম্বাবুয়ের প্রেসিডেন্ট এমারসন নানগাগওয়া দেশটিতে জাতীয় দুর্যোগ ঘোষণা করেছেন। দেশটির প্রেসিডেন্ট বুধবার বলেছেন, কম বৃষ্টিপাতের কারণে সৃষ্ট খরা ও ক্ষুধা মোকাবিলায় তার দেশের ২ বিলিয়ন মার্কিন ডলার প্রয়োজন। মূলত বৃষ্টিপাত কম হওয়ার ফলে দেশটির প্রায় অর্ধেক ভুট্টা নিশ্চিহ্ন হয়ে গেছে।

তিনি আরও বলেন, পুরো জিম্বাবুয়ের জন্য খাদ্য সুরক্ষিত করাই আমাদের অগ্রাধিকারের মধ্যে রয়েছে। জিম্বাবুয়ের কোনও নাগরিককে ক্ষুধায় আত্মহত্যা করতে বা মরতে হবে না।

এদিকে প্রতিবেশী জাম্বিয়া এবং মালাউইও সম্প্রতি খরার কারণে রাষ্ট্রীয় দুর্যোগ বা বিপর্যয়ের ঘোষণা দিয়েছে। শস্যের এ ঘাটতির কারণে জিম্বাবুয়েতে খাদ্যের দাম বেড়ে গেছে এবং এতে করে আনুমানিক ২৭ লাখ মানুষ ক্ষুধার মুখোমুখি হবে।

আশঙ্কা করা হচ্ছে, আফ্রিকার দক্ষিণাঞ্চলীয় দেশগুলোতে চলমান এই খরা হবে গত কয়েক দশকের মধ্যে সবচেয়ে ভয়াবহ। ওয়ার্ল্ড ফুড প্রোগ্রাম (ডব্লিউএফপি) বলেছে, ১ কোটি ৩৬ লাখ মানুষ বর্তমানে এই অঞ্চলে ‘সংকট স্তরের’ খাদ্য নিরাপত্তাহীনতার সম্মুখীন হচ্ছে।

বিবিসি বলছে, জিম্বাবুয়ে একসময় আফ্রিকার দক্ষিণাঞ্চলে রুটির ঝুড়ি হিসেবে পরিচিত ছিল। কিন্তু সাম্প্রতিক বছরগুলোতে ফসল এবং গবাদি পশুর ক্ষয়ক্ষতির পাশাপাশি মারাত্মক খরার সম্মুখীন হয়েছে দেশটি।

আফ্রিকার এই দেশটিতে সবচেয়ে খারাপ খরা ঘটেছিল ১৯৯২ সালে। সেসময় দেশটির গবাদি পশুর এক-চতুর্থাংশই মারা গিয়েছিল। কিন্তু সাম্প্রতিক সময়ে ক্রমবর্ধমান শুষ্ক আবহাওয়া আবারও ফিরে এসেছে।

   

গাজার খান ইউনিসে মিলল গণকবর, ৫০ মরদেহ উদ্ধার



আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

ফিলিস্তিনের অবরুদ্ধ গাজা ভূখণ্ডের খান ইউনিসে নাসের মেডিকেল কমপ্লেক্সে একটি গণকবর শনাক্ত করা হয়েছে। এতে ৫০টি মরদেহের খোঁজ পাওয়া গেছে। 

চলতি মাসের শুরুতে ইসরায়েলের সেনাবাহিনী এই শহরটি ছেড়ে যাওয়ার এতোদিন পর গণকবরের সন্ধান মিলেছে। রোববার (২১ এপ্রিল) এই তথ্য জানিয়েছে সংবাদমাধ্যম আল জাজিরা।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, খান ইউনিসের নাসের মেডিকেল কমপ্লেক্সে ৫০ টি মৃতদেহ-সম্বলিত একটি গণকবর উন্মোচন করেছে ফিলিস্তিনি জরুরি পরিষেবা।

পরিষেবাটি বলেছে, ‘আমাদের দলগুলো আগামী দিনে অবশিষ্ট শহীদদের খোঁজে তাদের অনুসন্ধান এবং পুনরুদ্ধার অভিযান অব্যাহত রাখবে। কারণ তাদের মধ্যে উল্লেখযোগ্য সংখ্যক এখনও (গণকবরে) রয়েছে।’

আল জাজিরা বলছে, ইসরায়েলি সামরিক বাহিনী গত ৭ এপ্রিল গাজার দক্ষিণাঞ্চলীয় শহর খান ইউনিস থেকে তাদের সৈন্য প্রত্যাহার করে। আর এরপরই সেখানে এই গণকবর শনাক্ত হলো। মূলত কয়েক মাসের নিরলস ইসরায়েলি বোমাবর্ষণ এবং ভারী লড়াইয়ের পরে গাজার এই শহরের বেশিরভাগ অংশ এখন ধ্বংসস্তূপে পরিণত হয়েছে।

এছাড়া অবরুদ্ধ এই ভূখণ্ডের ৬০ শতাংশ অবকাঠামো ক্ষতিগ্রস্ত বা ধ্বংস হয়ে গেছে। হাজার হাজার মানুষ কোনও ধরনের আশ্রয় ছাড়াই বসবাস করছে এবং প্রয়োজনের তুলনায় খুবই কম ত্রাণবাহী ট্রাক এই অঞ্চলে প্রবেশ করছে।

ইসরায়েল গাজার ওপর ব্যাপকভাবে অবরোধ আরোপ করে রেখেছে। এর ফলে এই ভূখণ্ডের জনগোষ্ঠী বিশেষ করে উত্তরাঞ্চলের বাসিন্দারা অনাহারের দ্বারপ্রান্তে রয়েছেন।

ফিলিস্তিনের গাজা ভূখণ্ডের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, গাজায় ইসরায়েলের আক্রমণের ফলে এখন পর্যন্ত ৩৪ হাজারের বেশি মানুষ নিহত হয়েছেন। যাদের বেশিরভাগই নারী ও শিশু। এছাড়া আহত হয়েছেন আরও ৭৬ হাজারের বেশি মানুষ। এছাড়া ইসরায়েল আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতে (আইসিজে) গণহত্যার দায়ে অভিযুক্ত হয়েছে।

;

ভারতে ট্রাক-গাড়ির সংঘর্ষে এক পরিবারের ৯ জন নিহত



আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

ভারতের রাজস্থানে বিয়েবাড়ি থেকে ফেরার পথে গাড়ি ও ট্রাকের সংঘর্ষের ঘটনায় একই পরিবারের ৯ জন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরও একজন।

রোববার (২১ এপ্রিল) সকালে রাজস্থানের ঝালাওয়ার জেলায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। 

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভির প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়, গাড়িটি মধ্যপ্রদেশের একটি বিয়েবাড়ি থেকে ফিরছিল। ঝালাওয়ারের ৫২ নম্বর জাতীয় সড়কে গাড়িটির সঙ্গে একটি ট্রাকের সংঘর্ষ হয়। নিহতরা সবাই একই পরিবারের। তাঁরা সবাই বিয়েবাড়ি থেকে ফিরছিল। দুর্ঘটনার পর ঘটনাস্থলেই তিনজনের মৃত্যু হয়। পরে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আরও ছয়জনের মৃত্যু হয়। দুর্ঘটনার পর ট্রাক চালক পালিয়ে গেলেও পরে তাঁকে আটক করেছে পুলিশ। 

স্থানীয় পুলিশের পক্ষ থেকে বলা হয়, মৃতদের বাড়িতে খবর দেওয়া হয়েছে। সকলে একই পরিবারের সদস্য। দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত ট্রাকে থাকা এক ব্যক্তি। ঠিক কী কারণে দুর্ঘটনা ঘটল তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

;

মালদ্বীপে পার্লামেন্ট নির্বাচনে ভোটগ্রহণ শুরু



আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

মালদ্বীপের পার্লামেন্ট পিপলস মজলিসের নির্বাচনে ভোটগ্রহণ শুরু হয়েছে। এ ভোটের মাধ্যমে জানা যাবে পিপলস মজলিসের নিয়ন্ত্রণ কার হাতে থাকবে।

রোববার (২১ এপ্রিল) সকালে শুরু হয় এ ভোটগ্রহণ। বার্তা সংস্থা এএফপির এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়। 

প্রতিবেদনে বলা হয়, দেশটির ৯৩টি সংসদীয় আসনে সংসদ সদস্য নির্বাচিত করতে ২ লাখ ৮৪ হাজার ৬৬৩ জন ভোটার এ নির্বাচনে ভোট দিচ্ছেন। সকালে দেশটির ৬০২টি কেন্দ্র ও দেশের বাইরেরদুটি কেন্দ্রে ভোট গ্রহণ চলছে।

এদিকে বিশ্লেষকেরা একে দেশটির প্রেসিডেন্ট মোহামেদ মুইজ্জুর জন্য প্রথম বড় ধরনের রাজনৈতিক পরীক্ষা বলে বিবেচনা করছেন। কারণ দেশটির সাবেক প্রেসিডেন্ট ইব্রাহিম মোহাম্মদ সলিহের দল মালডিভিয়ান ডেমোক্রেটিক পার্টির (এমডিপি) পার্লামেন্টে সংখ্যাগরিষ্ঠতা থাকায়মুইজ্জুকে নতুন আইন পাশে বাধার মুখে পড়তে হচ্ছিল।

নির্বাচনটি গত ১৭ মার্চ হওয়ার কথা থাকলেও পরে তা স্থগিত হয়ে যায়।

উল্লেখ্য, গত বছরের সেপ্টেম্বরে মোহামেদমুইজ্জু মালদ্বীপের প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হন।

;

জাপানে সামরিক হেলিকপ্টার বিধ্বস্তে নিহত ১, নিখোঁজ ৭



আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

জাপানের ২টি সামরিক হেলিকপ্টার বিধ্বস্ত হওয়ার ঘটনায় ১ জন নিহত হয়েছেন এবং ৭ জন নিখোঁজ রয়েছেন। শনিবার (২০ এপ্রিল) এই দুর্ঘটনা ঘটে।

রোববার (২১ এপ্রিল) ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভির প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়,  শনিবার গভীর রাতে প্রশান্ত মহাসাগরের ইজু দ্বীপপুঞ্জের কাছে রাতের প্রশিক্ষণের সময় হেলিকপ্টারগুলো বিধ্বস্ত হয়েছে বলে জানিয়েছে সংবাদমাধ্যম এনএইচকে।

জাপানের সেল্ফ-ডিফেন্স ফোর্সের (এসডিএফ) একজন মুখপাত্র এএফপিকে নিশ্চিত করেছেন এবং বলেছেন যে একজনকে উদ্ধার করা হয়েছে কিন্তু পরে তার মৃত্যু হয়েছে।

প্রতিরক্ষা মন্ত্রী মিনোরু কিহারা বলেছেন, দুটি হেলিকপ্টার বিধ্বস্ত হয়েছে এবং উদ্ধারকারীরা সমুদ্রে বিমানের অংশ উদ্ধারে কাজ করছে।হেলিকপ্টারগুলো রাতে সাবমেরিন মোকাবেলায় মহড়া করছিল।

কিহারা সাংবাদিকদের আরও বলেন, ‘এখনও বিধ্বস্ত হওয়ার কারণ জানা যায়নি। তবে আমরা প্রাথমিকভাবে আরোহীদের জীবন বাঁচানোর জন্য যথাসাধ্য চেষ্টা করছি।’

এনএইচকে জানায়, ১০টা ৩৮ মিনিটে টোরিশিমা দ্বীপ থেকে হেলিকপ্টারটির সাথে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায় এবং এর এক মিনিট পরেই বিমান থেকে একটি জরুরি সংকেত পাওয়া যায়।

প্রায় ২৫ মিনিট পরে, রাত ১১ টার দিকে, সামরিক বাহিনী বুঝতে পারে যে একই এলাকায় অন্যান্য বিমানের সাথেও বিমানটির  যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে।

মেরিটাইম সেলফ-ডিফেন্স ফোর্স (এমএসডিএফ) এর মিতসুবিশি ‘এসএইচ-৬০কে’ হেলিকপ্টারগুলো মূলত নৌ-বিধ্বংসী বাহিনীর উপর ভিত্তি করে পরিচালিত হয়।

এনএইচকের প্রতিবেদনে আরও জানায়, এমএসডিএফ বলেছে, যেহেতু কাছাকাছি জলে অন্য কোনো বিমান বা জাহাজ ছিল না, তাই এই ঘটনায় অন্য কোনো দেশের জড়িত থাকার সম্ভাবনা নেই।

উল্লেখ্য, এই অঞ্চলে চীনের ক্রমবর্ধমান দৃঢ়তা এবং একটি অপ্রত্যাশিত উত্তর কোরিয়ার প্রতিক্রিয়ায় জাপান প্রতিরক্ষা ব্যয় বাড়াচ্ছে এবং মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র এবং এশিয়ার অন্যান্য দেশগুলোর সাথে সহযোগিতা গভীর করছে।

;