অশ্রুভেজা নয়নে রাসূলের রওজায় সালাম



ইসলাম ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
রাসূলের রওজায় সালাম পেশ করছেন এক জিয়ারতকারী, ছবি: সংগৃহীত

রাসূলের রওজায় সালাম পেশ করছেন এক জিয়ারতকারী, ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

বলা হয়, অপেক্ষার রাত ভোর হয় না। ইতিহাসে প্রথমবারের মতো মদিনাবাসী এমন অপেক্ষার একটি রাত কাটালেন। দোজাহানের বাদশাহ, যার জন্য উৎসর্গিত আমাদের পিতা-মাতা, সেই নবীর দরবারে হাজির হওয়া অপেক্ষা। অপেক্ষা ফজরের আজানের। অপেক্ষা নবীর রওজায় সালাম পেশের। অপেক্ষা দুনিয়ার বুকে বেহেশতের বাগান ‘রিয়াজুল জান্নাতে’ নামাজ আদায়ের।

রোববার (১৮ অক্টোবর) ফজরের নামাজের পর খুলে দেওয়া হয় নবী করিম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামের রওজা মোবারক ও রিয়াজুল জান্নাত। দীর্ঘ সাড়ে সাত মাস পর নবীর রওজায় সালাম ও রিয়াজুল জান্নাতে নামাজ আদায়ের সুযোগ পেয়ে আনন্দে কেঁদেছেন মুসল্লিরা। স্বাস্থ্যবিধি মেনে অশ্রুভেজা নয়নে সালাম পেশ ও রিয়াজুল জান্নাতে নামাজ আদায় করেছেন তারা।

করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের কারণে হজরত রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামের রওজা শরীফে জিয়ারত (দর্শন, সালাম পেশ) বন্ধ ছিল। রোববার থেকে ‘ইতামারনা’ অ্যাপে নিবন্ধন করে রওজা জিয়ারত করার সুযোগ পাচ্ছেন সৌদিতে বসবাসকারীরা।

রাসূলের রওজায় সালাম পেশ করার সময় কাঁদছেন এক জিয়ারতকারী, ছবি: সংগৃহীত

নিবন্ধনহীন কেউ রিয়াজুল জান্নাত ও রওজা শরীফে প্রবেশ করতে পারবেন না। নিবন্ধনের সময় করোনা নেগেটিভ রিপোর্ট জমা দিতে হবে সবাইকে।

করোনা মহামারির শুরুর দিকে সৌদি আরবের সব মসজিদ বন্ধের পর ৩১ মে থেকে মসজিদে নববী খুলে দেওয়া হলেও পুরাতন মসজিদ ও রিয়াজুল জান্নাতে নামাজ এবং রওজা শরীফের জিয়ারত স্থগিত ছিল।

রওজা শরীফ জিয়ারতের জন্য পুনরায় খুলে দেওয়া উপলক্ষে হারামাইন শরিফাইন অধিদপ্তরের প্রেসিডেন্ট শায়খ আবদুর রহমান আস সুদাইস শনিবার (১৭ অক্টোবর) মদিনা সফর এবং মসজিদে নববীতে এশার নামাজের ইমামতি করেন। নামাজের পর মুসল্লিদের উদ্দেশে পুনরায় রওজা শরীফ উন্মুক্ত ও জিয়ারত চালু উপলক্ষে আবেগমিশ্রিত ভাষণ দেন।

এদিকে রওজা শরীফ খুলে দেওয়ার আগে মসজিদে নববীতে কর্মরত বিভিন্ন সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠানের কর্মীদের রিয়াজুল জান্নাতে নামাজ আদায় ও রওজায় সালাম পেশ করার সুযোগ দেওয়া হয়। যারা সারা বছর ব্যস্ত থাকেন, সাধারণ মুসল্লিদের জন্য রওজা শরীফ বন্ধ থাকায় নিরিবিলি পরিবেশে প্রাণখুলে রিয়াজুল জান্নাতে ইবাদত এবং নবী করিম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামের রওজায় হৃদয় উজাড় করে সালাম পেশ করেছেন তারা।

রিয়াজুল জান্নাতে নামাজ আদায় করছেন মসজিদে নববীতে কর্মরত বিভিন্ন সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠানের কর্মীরা, ছবি: সংগৃহীত

ইতামারনা অ্যাপে নিবন্ধনকারীরা নির্দিষ্ট গেইট দিয়ে রওজা শরীফে প্রবেশ করবেন। নিবন্ধনের সময় রিয়াজুল জান্নাতে নামাজ আদায় ও রওজায় সালাম পেশের সময় উল্লেখ করে দেওয়া হয়। একজন জিয়ারতকারী ত্রিশ মিনিট সময় পাবেন নামাজ আদায় ও সালাম পেশ করার জন্য।

রওজা শরীফে সালাম পেশের জন্য পুরুষরা বাবুস সালাম (গেইট নং ১) ও রিয়াজুল জান্নাতে নামাজ আদায়ের জন্য বাবে বিলাল (গেইট নং ৩৮) ব্যবহার করবেন।

মহিলারা বাবে উসমান (গেইট নং ২৪) দিয়ে প্রবেশ করে নামাজ আদায় ও রওজায় সালাম পেশ করবেন।

অন্যদিকে, রোববার থেকে মক্কার মসজিদে হারামে শুরু হয়েছে পবিত্র উমরা চালুর দ্বিতীয় ধাপ। দ্বিতীয় ধাপে দৈনিক ১৫ হাজার মুসল্লি উমরা পালন এবং দৈনিক ৪০ হাজার মুসল্লি নামাজ আদায়ের সুযোগ পাচ্ছেন।