হারামাইনের ইমামকে বাংলাদেশ সফরের আমন্ত্রণ জানানো হবে



ইসলাম ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
সৌদি আরবের চার্জ দ্য আ্যাফেয়ার্স সচিবালয়ে ধর্ম প্রতিমন্ত্রীর সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাত করেন, ছবি: সংগৃহীত

সৌদি আরবের চার্জ দ্য আ্যাফেয়ার্স সচিবালয়ে ধর্ম প্রতিমন্ত্রীর সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাত করেন, ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

বাংলাদেশ ও সৌদি আরবের দ্বি-পাক্ষিক সম্পর্ক আরও সুদৃঢ় করার লক্ষ্যে সৌদি আরব সরকারের পক্ষ থেকে হারামাইন শরিফাইনের (মক্কা-মদিনাকে হারামাইন বলা হয়) ইমামদের নেতৃত্বে সৌদি আরবের বিশিষ্ট আলেমদের বাংলাদেশ সফরের প্রস্তাব করা হয়েছে।

রোববার (২ ফেব্রুয়ারি) বাংলাদেশে নিযুক্ত সৌদি আরবের চার্জ দ্য আ্যাফেয়ার্স হারকান বিন শাওহারের নেতৃত্বে ৩ সদস্যের একটি প্রতিনিধি দল ধর্ম প্রতিমন্ত্রী আলহাজ্ব এডভোকেট শেখ মো. আব্দুল্লাহর সঙ্গে সচিবালয়ের কার্যালয়ে সৌজন্য সাক্ষাতের সময় তারা এ প্রস্তাব তুলে ধরেন।

এ সময় ধর্ম প্রতিমন্ত্রী তাদের প্রস্তাবকে স্বাগত জানিয়ে বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে আলোচনা সাপেক্ষে অতি শীঘ্রই সৌদি আরবের আলেমদের আমন্ত্রণ জানানো হবে।

আলোচনাকালে চার্জ দ্য আ্যাফেয়ার্স সৌদি আরবের বাদশা সালমান বিন আব্দুল আজিজের পক্ষ থেকে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বলিষ্ঠ নেতৃত্বে দেশের অগ্রযাত্রা ও মুসলিম উম্মাহর স্বার্থে গৃহীত বিভিন্ন পদক্ষেপের ভূয়সী প্রশংসা করেন।

এ সময় প্রতিমন্ত্রী বলেন, ২০১৯ সালের হজ মৌসুমে বাংলাদেশের ৫৮ সদস্য বিশিষ্ট আলেমদের একটি প্রতিনিধি দল সৌদি আরব সফর করেন। তারা মদিনার মসজিদে নববীর কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলোচনায় মিলিত হন। এর মাধ্যমে দু’দেশের আলেমদের মধ্যে সম্পর্ক বৃদ্ধি পায় এবং ভ্রাতৃপ্রতিম দু’দেশের জনগণের মাঝে ইসলামের সঠিক বাণী এবং কোরআন ও হাদিসের সঠিক ব্যাখ্যা প্রচারের বিষয়ে গুরত্বারোপ করা হয়।

আলোচনাকালে রাজকীয় সৌদি সরকারের পক্ষ থেকে বাংলাদেশের বিভিন্ন স্থানে ৮টি মসজিদ ও সৌদি আরবের বাদশা সালমান বিন আব্দুল আজিজের নামে বড় আকারের ১টি দৃষ্টিনন্দন (Iconic) মসজিদ স্থাপনের বিষয়ে দু’পক্ষের অগ্রগতির কথা তুলে ধরা হয়। সৌদি সরকার কর্তৃক মসজিদ নির্মাণের সহায়তার লক্ষ্যে সে দেশের একটি প্রতিনিধি দল আগামী ১ মাসের মধ্যে বাংলাদেশ সফর করবেন বলে প্রতিনিধির পক্ষ থেকে জানানো হয়।

আলোচনায় বাংলাদেশের জনগণের কল্যাণে যেকোনো ধরণের সহযোগিতা প্রদানের বিষয়ে সৌদি সরকারের পক্ষ হতে আগ্রহ প্রকাশ করা হয়। এ সময় ধর্ম প্রতিমন্ত্রী বাংলাদেশের হজযাত্রীদের কল্যাণ ও বিভন্ন ক্ষেত্রে আন্তরিক সহায়তা প্রদানের জন্য সৌদি আরবের বাদশা ও জনগণের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান।

বৈঠকে ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. নুরুল ইসলাম, অতিরিক্ত সচিব (সংস্থা) মু. আ. হামিদ জমাদ্দার, অতিরিক্ত সচিব (হজ) এ বি এম আমিন উল্লাহ নুরী প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।