ধামরাইয়ে নদীতে ডুবে শিক্ষার্থীর মৃত্যু

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, সাভার (ঢাকা)
লিখনের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ঢাকার সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালে পাঠানো হচ্ছে।

লিখনের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ঢাকার সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালে পাঠানো হচ্ছে।

  • Font increase
  • Font Decrease

ঢাকার ধামরাইয়ে বন্ধুদের সঙ্গে নদীতে গোসল করতে গিয়ে পানিতে ডুবে লিখন (১৫) নামে এক শিক্ষার্থীর মৃত্যু হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১৩ আগস্ট) বিকেলে ধামরাইয়ের হাজীপুর থেকে ওই স্কুলছাত্রের মরদেহ উদ্ধার করে ফায়ার সার্ভিসের একটি ডুবুরি দল।

মৃত লিখন ধামরাই পৌর এলাকার ঘুরিদার পাড়ার আবুল হোসেনের ছেলে। সে ধামরাইয়ের রফিক রাজু স্কুল অ্যান্ড কলেজে নবম শ্রেণিতে লেখাপড়া করত।

স্বজনদের বরাত দিয়ে পুলিশ জানায়, বিকেলে নদীতে গোসল করার জন্য লিখনকে ডেকে নিয়ে যায় ইমন ও দীপ নামে দুই বন্ধু। তবে গোসল করার সময় লিখন পানিতে ডুবে যায়। পরে ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দলের সদস্যরা পানিতে তল্লাশি চালিয়ে লিখনের মরদেহ উদ্ধার করে। এ ঘটনায় তার দুই বন্ধু ইমন ও দীপকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করেছে পুলিশ।

লিখনের চাচা হান্নানের অভিযোগ, লিখনের শরীরে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। পূর্ব কোনো শত্রুতার জেরে লিখনকে তার দুই বন্ধু পানিতে ডুবিয়ে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করেছে।

ধামরাই থানার পুলিশ পরিদর্শক (ওসি) দীপক চন্দ্র সাহা জানান, মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ঢাকার সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ইমন ও দীপ নামের দুই বন্ধুকে আটক করা হয়েছে। তবে স্বজনদের অভিযোগের ভিত্তিতে পরবর্তী আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

আপনার মতামত লিখুন :