ধর্মঘট প্রত্যাহার: বরিশাল-ঢাকা রুটে লঞ্চ চলাচল স্বাভাবিক



স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, বরিশাল।
বরিশাল-ঢাকা রুটে লঞ্চ চলাচল স্বাভাবিক

বরিশাল-ঢাকা রুটে লঞ্চ চলাচল স্বাভাবিক

  • Font increase
  • Font Decrease

কারাবন্দী দুই নৌযান শ্রমিকের জামিনের আশ্বাসে বরিশাল-ঢাকা,ঝালকাঠি-ঢাকা-ভায়া চাঁদপুর রুটে যাত্রীবাহী লঞ্চ চলাচল স্বাভাবিক হয়েছে।

নৌযান শ্রমিকদের ডাকা অনির্দিষ্টকালের জন্য ধর্মঘট প্রত্যাহার শেষে ঢাকার উদ্দেশ্যে বরিশাল লঞ্চ টার্মিনাল ছেড়ে গেছে ৩টি যাত্রীবাহী লঞ্চ।

সোমবার (২৫ জানুয়ারি) রাত ১১টায় পর্যায়ক্রমে ঢাকার উদ্দেশ্যে এমভি সুন্দরবন-১০, এমভি মানামী লঞ্চ। এর আগে সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় ঢাকা ও চাঁদপুরের উদ্দেশ্যে ঝালকাঠি ছেড়ে যায় এমভি ফারহান- ৭ লঞ্চ।

জানা গেছে, ঢাকা ও চাঁদপুরগামী বরিশাল ও চাঁদপুরের যাত্রীদের ভোগান্তির কথা চিন্তা করে সোমবার রাত ৯টার দিকে লঞ্চ ছাড়ার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

পড়ে বরিশাল লঞ্চ টার্মিনালে মাইকিং করে যাত্রীদের লঞ্চ ছাড়ার বিষয়টি নিশ্চিত করে। এরপর লঞ্চগুলো ঢাকা ও চাঁদপুরের উদ্দেশ্যে ছেড়ে যায়।

লঞ্চ চলাচল স্বাভাবিক ও ধর্মঘট প্রত্যাহারের বিষয়টি বার্তা২৪.কমকে নিশ্চিত করেছেন, বরিশাল আঞ্চলিক নৌযান শ্রমিক ফেডারেশনের সভাপতি শেখ আবুল হাসেম।

আরো জানা গেছে, সোমবার (২৫ জানুয়ারি) দুপুরে নিজাম শিপিং লাইন্সের মালিকানাধীন অ্যাডভেঞ্চার ১ ও ৯ লঞ্চের দুই মাস্টারকে জামিন বাতিল করে কারাগারে পাঠান মেরিন আদালত।

দণ্ডপ্রাপ্তরা হলেন, এ্যাডভেঞ্জার-১ মাস্টার জামাল হোসেন ও এ্যাডভেঞ্জার-৯ এর মাস্টার রুহুল আমিন। এর প্রতিবাদে সারাদেশের ন্যায় কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে বরিশালেও অনির্দিষ্টকালের জন্য ধর্মঘটের ডাক দেন নৌযান শ্রমিকরা।

পড়ে সোমবার বেলা ২টার পর ঢাকাগামী লঞ্চগুলো বরিশাল লঞ্চ টার্মিনাল থেকে ওপারের চরকাউয়া এলাকায় নোঙ্গর করে রাখে।

প্রসঙ্গত, ২০২০ সালের ১৫ ফেব্রুয়ারি বরিশালের হিজলা উপজেলার আওতাধীন মেঘনা নদীর মিয়ার চরে ঘন কুয়াশায় নিজাম শিপিং লাইন্সের দুটি লঞ্চের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এতে দুটি লঞ্চ ক্ষতিগ্রস্ত হলেও যাত্রীর ক্ষতি হয়নি।

এ ঘটনায় দুই লঞ্চের মাস্টারসহ চারজনের সার্টিফিকেট সনদ চার মাসের জন্য জব্দ করে কর্তৃপক্ষ। পরবর্তীতে বিআইডব্লিউটিএ বাদী হয়ে মেরিন আদালতে মামলা দায়ের করে। মামলার নির্ধারিত তারিখে আজ সোমবার আদালতে হাজিরা দেন মাস্টার রুহুল আমিন ও মাস্টার জামাল হোসেন। তাদের জামিন বাতিল করে কারাগারে পাঠান মেরিন আদালত।