মেয়াদোত্তীর্ণ করোনা কিট জব্দ, গ্রেফতার ৯



মহিউদ্দিন আহমেদ, কন্ট্রিবিউটিং এডিটর, বার্তা২৪.কম
মেয়াদোত্তীর্ণ করোনা কিট জব্দ, গ্রেফতার ৯

মেয়াদোত্তীর্ণ করোনা কিট জব্দ, গ্রেফতার ৯

  • Font increase
  • Font Decrease

র‌্যাবের এক অভিযানে রাজধানীর মোহাম্মদপুরের লালমাটিয়া ও বনানী এলাকা থেকে বিপুল পরিমান মেয়াদোত্তীর্ণ, জাল মেডিকেল টেস্ট কিট ও রি-এজেন্ট জব্দ করা হয়েছে। এ সময় ৯ জনকে আটক করা হয়। গত বৃহস্পতিবার দিবাগত রাতে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নের (র‌্যাব) গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে ৩টি প্রতিষ্ঠানে অভিযান চালিয়ে মেয়াদোত্তীর্ণ পণ্য সহ তাদের আটক করা হয়।

এ সময় যাদেরকে আটক করা হয় তারা হলেন-বায়োল্যাব ইন্টারন্যাশনাল লিমিটেডের স্বত্ত্বাধিকারী মো. শামীম মোল্লা (৪০), ব্যবস্থাপক মো. শহীদুল আলম (৪২), প্রধান প্রকৌশলী আবদুল্লাহ আল বাকী ছাব্বির (২৪), অফিস সহকারী মো. জিয়াউর রহমান (৩৫), হিসাবরক্ষক মো. সুমন (৩৫), অফিস ক্লার্ক ও মার্কেটিং অফিসার জাহিদুল আমিন পুলক (২৭), সার্ভিস ইঞ্জিনিয়ার মো. সোহেল রানা (২৮), এক্সন টেকনোলজিস্ট অ্যান্ড সার্ভিসেস লিমিটেডের ব্যবস্থাপক মো. মাহমুদুল হাসান (৪০), হাইটেক হেলথ কেয়ার লিমিটেডের ব্যবস্থাপক এস এম মোজফা কামাল (৪৮)।

র‌্যাবের এক অভিযানে রাজধানীর মোহাম্মদপুরের লালমাটিয়া ও বনানী এলাকা থেকে বিপুল পরিমান মেয়াদোত্তীর্ণ, জাল মেডিকেল টেস্ট কিট ও রি-এজেন্ট জব্দ করা হয়েছে

র‌্যাব জানায়, এ চক্রটি দীর্ঘ দিন যাবত এসব মেয়াদোত্তীর্ণ টেস্ট কিট এবং রি-এজেন্ট দেশি-বিদেশি আমদানিকারক ও সরবরাহকারীদের কাছ থেকে কম টাকায় সংগ্রহ করে পুনরায় সেটার মেয়াদ বাড়াতো। মেয়াদোত্তীর্ণ এসব কিটের মধ্যে করোনা, ক্যানসার, এইডস, জন্ডিস, ডায়াবেটিস ও নিউমোনিয়া রোগ পরীক্ষার কিট ছিল। জালিয়াতিতে অভিযুক্ত প্রতিষ্ঠান ৩টি হলো- বায়োল্যাব ইন্টারন্যাশনাল এবং তাদের সহযোগী প্রতিষ্ঠান এক্সন টেকনোলজি এন্ড সার্ভিস লিমিটেড ও হাইটেক হেলথকেয়ার লিমিটেড।

র‌্যাব-২ এর অধিনায়ক (সিও) লেফটেন্যান্ট কর্নেল ইমরান জানান,  বিগত ২০১০ সাল থেকে এই প্রতিষ্ঠানগুলো একাধিক নামে সংগঠিত হয়ে পারস্পরিক যোগসাজশে, অবৈধভাবে ও অসৎ পন্থায় আর্থিকভাবে লাভবান হওয়ার উদ্দেশ্যে যথাযথ কর্তৃপক্ষের অনুমোদন ব্যতিরেকে মানহীন ও স্বল্প মেয়াদের টেস্ট কিট এবং রি-এজেন্টসমূহ বিদেশ থেকে আমদানি, সংরক্ষণ ও দেশব্যাপী বাজারজাতকরণ করতেন। যা সরবরাহ করার পর্যায়েই মেয়াদোত্তীর্ণ হয়ে যেত। ক্ষেত্রবিশেষে টেস্টিং কিট ও রি-এজেন্টের মেয়াদ টেম্পারিং করে বাড়িয়ে বাজারজাত করে আসছিল।