১৪ জুলাই: একনজরে সংবাদ শিরোনাম



নিউজ ডেস্ক, বার্তা ২৪
ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

  • Font increase
  • Font Decrease

যুগান্তর

হাসপাতালে করোনা চিকিৎসা
অর্ধেক আইসিইউ সচল নয়
সরকারি আইসিইউ শয্যা ১২৫৯টি, ভেন্টিলেটর আছে ৬৬০টি * গাইডলাইন অনুসারে যন্ত্রপাতি না থাকলে আদর্শ আইসিইউ বলা যাবে না -ডা. দেবাশিস বণিক
দেশে করোনা মহামারির মারাত্মক সংক্রমণ চলছে। প্রতিদিন দুইশর ওপরে মানুষের মৃত্যু হচ্ছে। অনেকেই মুমূর্ষু অবস্থায় চিকিৎসাধীন। যাদের বেশির ভাগেরই সুচিকিৎসার জন্য আইসিইউ (ইনটেনসিভ কেয়ার ইউনিট/নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্র) সুবিধা দরকার।
কিন্তু দেশের আইসিইউগুলোর করুণদশা বিরাজ করছে। অর্ধেক আইসিইউতে নেই ভেন্টিলেটর সুবিধা, যা আছে সেগুলোও পুরোপুরি কার্যকর নয়। ফলে করোনায় আক্রান্ত অনেকেই শেষ মুহূর্তে যথাযথ চিকিৎসা ছাড়াই পৃথিবী ছেড়ে চলে যাচ্ছেন। এতে লাফিয়ে বাড়ছে মৃতের সংখ্যা।

বিধিনিষেধ আট দিনের জন্য শিথিল
ঈদের একদিন পর থেকে শিল্পকারখানাও বন্ধ
২৩ জুলাই ভোর ৬টা থেকে অফিস-আদালত, গণপরিবহণ, জনসমাবেশ, শপিংমল মার্কেট ও দোকানপাট ১৪ দিনের জন্য বন্ধ। নিত্যপণ্যের কেনাকাটা সকাল ৯টা-৩টা
পবিত্র ঈদুল-আজহাকে সামনে রেখে চলমান কঠোর বিধিনিষেধ আট দিনের জন্য শিথিল করেছে সরকার। মঙ্গলবার মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ এ সংক্রান্ত আদেশ জারি করেছে। সেখানে বলা হয়, ১৪ জুলাই মধ্যরাত থেকে ২৩ জুলাই সকাল ৬টা পর্যন্ত কঠোর স্বাস্থ্যবিধি মেনে গণপরিবহণ চলাচল, দোকান-শপিংমল খুলে দেওয়াসহ সব কার্যক্রম চলবে। তবে ঈদের একদিন পর ২৩ জুলাই সকাল ৬টা থেকে ফের ১৪ দিনের জন্য শুরু হবে কঠোর বিধিনিষেধ, যা চলবে ৫ আগস্ট রাত ১২টা পর্যন্ত। এই সময়ে সব ধরনের শিল্পকারখানা বন্ধ থাকবে, যা চলমান বিধিনিষেধে স্বাস্থ্যবিধি মেনে খোলা আছে। এছাড়া বন্ধ থাকবে সব ধরনের গণপরিবহণ, শপিংমল-মার্কেট ও দোকানপাট। আর কাঁচাবাজার ও নিত্যপণ্যের কেনাকাটা চলবে সকাল সকাল ৯টা থেকে বিকাল ৩টা পর্যন্ত। এট চলমান বিধিনিষেধে আছে সকাল ৯টা থেকে বিকাল ৫টা পর্যন্ত।

২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ২০৩ শনাক্ত ১২১৯৮
কঠোর বিধিনিষেধের পরও ভয়াবহরূপে করোনা
নানা উদ্যোগের পরও দেশে কমছে না করোনার ভয়াবহতা। দুই সপ্তাহের কঠোর বিধিনিষেধ আজ মধ্যরাতে শেষ হলেও এ সময়ে কমেনি প্রাণঘাতী এ ভাইরাসের বিস্তার। উলটো রেকর্ড হয়েছে শনাক্ত ও মৃত্যুর। তিনদিন ধরে মৃতের সংখ্যা দুইশর বেশি। প্রতিদিন গড়ে সাড়ে ১২ হাজারের বেশি নতুন রোগী শনাক্ত হচ্ছে। এমন পরিস্থিতিতে পবিত্র ঈদুল-আজহা আসন্ন। একদিকে পশু কেনাবেচা না হলে আর্থিক ক্ষতি, অন্যদিকে হাট বসালে সংক্রমণ ঝুঁকি-এ দুইয়ের টানাপোড়েনে নীতিনির্ধারকরা। সবদিক বিবেচনায় নিয়েই শিথিল করা হয়েছে কঠোর বিধিনিষেধ। পশুর হাট বসার পাশাপাশি চলবে গণপরিবহণ, খোলা থাকবে শপিংমল ও দোকানপাট। ঈদ সামনে রেখে এমন বিশাল কর্মযজ্ঞ নিয়ে চিন্তিত দেশের স্বাস্থ্যবিশেষজ্ঞরা। তাদের শঙ্কা, এতে সংক্রমণ আরও ভয়াবহ রূপ নিতে পারে। দুই সপ্তাহের চলমান কঠোর বিধিনিষেধের সুফল নিয়ে রয়েছে সংশয়। কারণ, যেটুকু সফলতা পাওয়া গেছে, তা ঈদে কুরবানির হাট ও মানুষের চলাচলে ম্লান হয়ে যেতে পারে।

করোনায় ১৬ মাস ধরে বন্ধ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান
সেশনজটের ধকল স্কুল-কলেজে
স্কুলে ভর্তি হতে পারেনি প্রায় ৬০ লাখ শিশু, পিছিয়ে গেছে দুই বছর * এসএসসি-এইচএসসি নেওয়া যায়নি, সময় হয়ে যাচ্ছে আরেকটির
বিশ্ববিদ্যালয়ের সঙ্গে এবার সেশনজটের ধকল পোহাতে হচ্ছে স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীদের। প্রায় ১৬ মাস বন্ধ থাকায় এসব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের কোনো অভ্যন্তরীণ পরীক্ষা হয়নি। এসএসসি-এইচএসসির মতো পাবলিক পরীক্ষাগুলো শুধু বন্ধই নয়, একটির পেছনে আরেকটি হাজির হওয়ার পথে।

অর্থ পাচার বন্ধে পদক্ষেপ কেন্দ্রীয় ব্যাংকের
গ্রাহকের পরিচয় গোপন রেখে রপ্তানি নয়
শেল ব্যাংকের সঙ্গে সম্পর্ক রাখা যাবে না * আন্তঃদেশীয় সীমান্ত ব্যাংকিংয়ে সতর্ক থাকতে হবে * বিদেশি ব্যাংকে হিসাব পরিচালনার নিয়ম না মানলে শাস্তি
করোনা পরিস্থিতির কারণে পরীক্ষাগুলোর তারিখ পুনর্নির্ধারণও করা যাচ্ছে না। কবে নাগাদ এগুলো নেওয়া যাবে সেটাও কেউ নিশ্চিত করে বলতে পারছেন না। গণসাক্ষরতা অভিযানের (ক্যাম্পে) উপ-পরিচালক কেএম এনামুল হক যুগান্তরকে বলেন, করোনার দীর্ঘ ছুটিতে শিক্ষার কী পরিমাণ ক্ষতি হয়েছে তা পরিমাপ করে বোঝানো যাবে না। পরীক্ষাগুলো আটকে আছে। ঠিকমতো শ্রেণি কাজ হয়নি।

ইত্তেফাক

জরুরি ভিত্তিতে স্বাস্থ্য খাতে সাড়ে ১৭ হাজার নিয়োগ
কোভিড পরিস্থিতি মোকাবিলায় সরকারের এই সিদ্ধান্ত, ২ হাজার চিকিত্সক, ৪ হাজার নার্স, ৪০৯জন জুনিয়র কনসালট্যান্ট নিয়োগ পাবেন ৫০ বছর বয়সিরা, ১১ হাজার টেকনোলজিস্ট পেতে যাচ্ছেন এই নিয়োগ
জরুরি কোভিড পরিস্থিতি মোকাবিলায় স্বাস্থ্য খাতে নতুন করে সাড়ে ১৭ হাজার জনবল নিয়োগ দেওয়া হচ্ছে। মৌখিক পরীক্ষা (ভাইভা) ছাড়াই সংশ্লিষ্টদের নিয়োগ দেওয়া হবে। এর মধ্যে রয়েছেন ২ হাজার চিকিত্সক, ৪ হাজার নার্স, ১১ হাজার টেকনোলজিস্ট ও ৪০৯ জন জুনিয়র কনসালট্যান্ট। অ্যানেসথেসিওলজিস্ট বা জুনিয়র কলসালট্যান্ট নিয়োগের ক্ষেত্রে চাকরিতে আবেদনের বয়স শিথিল করে ৫০ বছর পর্যন্ত করা হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এই নিয়োগ প্রক্রিয়া দ্রুত সম্পন্নের নির্দেশ দিয়েছেন। প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে। সংশ্লিষ্টরা বলছেন, বর্তমান করোনার সময়ে এই নিয়োগ দ্রুত সম্পন্ন করা গেলে চিকিত্সাব্যবস্থায় ইতিবাচক প্রভাব পড়বে।

সরেজমিন মির্জাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স
ভূতুড়ে পরিবেশ হাসপাতালে
ফাঁকা শয্যায় আয়েশ করে পোষা প্রাণী
টাঙ্গাইলের মির্জাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিত্সা সেবা নেওয়ার আগ্রহ হারিয়ে ফেলেছেন রোগীরা। গত রবিবার ইত্তেফাকের এই প্রতিনিধি সরেজমিনে গিয়ে দেখতে পান, হাসপাতালে ভূতুড়ে পরিবেশ বিরাজ করছে। চারদিকে অন্ধকার। ছড়িয়ে ছিটিয়ে আছে ময়লা-আবর্জনা। হাসপাতালের অধিকাংশ বেডই খালি। কয়েকটি বেডের উপরে শুয়ে আছে পোষাপ্রাণী। ফাঁকা শয্যায় তারা আয়েশ করছে। যে এলাকায় হাসপাতালটি অবস্থিত সেই এলাকাটি সুন্দর। তবে হাসপাতালের ভিতরে ঢুকলে কারোরই বিশ্বাস হবে না যে, এটি একটি সরকারি হাসপাতাল। ওয়ার্ডে ও রোগীর বিছানায় পোষাপ্রাণী বিচরণ করলেও দেখার যেন কেউ নেই। হাসপাতালের মেঝেতে বিড়ালের মলসহ নোংরা আবর্জনা ও দুর্গন্ধময় পরিবেশ বিরাজ করছে।

নেশার টাকার জন্য মাকে পিটিয়ে হত্যা
বাবা গুরুতর আহত
গাইবান্ধায় নেশার টাকা না পেয়ে মা ও বাবাকে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে ছেলে। এ ঘটনায় চিকিত্সাধীন মায়ের মৃত্যু হয়েছে। মাকে হত্যার অভিযোগে মাদকাসক্ত ছেলে শাওন মিয়ার (২৫) বিরুদ্ধে সদর থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার সকালে নিহতের স্বামী পুলিশের অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সাদেক আলী বাদী হয়ে এই মামলা দায়ের করেন।

৩২০০ কোটি টাকার প্রণোদনা প্যাকেজ ঘোষণা প্রধানমন্ত্রীর
করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে আরোপিত চলমান বিধিনিষেধের ফলে ক্ষতিগ্রস্ত নিম্নআয়ের মানুষের সহায়তায় ৩ হাজার ২০০ কোটি টাকার প্রণোদনা প্যাকেজ ঘোষণা করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। গতকাল মঙ্গলবার পাঁচটি প্যাকেজের আওতায় প্রধানমন্ত্রী এ আর্থিক প্যাকেজের ঘোষণা দেন। প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম এ তথ্য জানান।

বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল
চিকিত্সাসেবার মান বাড়েনি ৫৫ বছরেও
কাগজে-কলমে ১ হাজার বেড রোগী থাকে প্রায় ২ হাজার
৫৫ বছরেও দক্ষিণাঞ্চলের একমাত্র বিশেষায়িত বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিক্যাল কলেজ (শেবাচিম) হাসপাতালে চিকিত্সাসেবার মান বাড়েনি। বরং সব ক্ষেত্রে তীব্র সংকটের মুখে বর্তমানে করোনায় আক্রান্ত রোগীদের ক্ষেত্রে ঘটছে মানবিক বিপর্যয়। ১৯৬৮ সালে ৩৬০ বেড নিয়ে যাত্রা শুরু করলেও পরে কাগজ কলমে ৫০০ থেকে ১ হাজার বেডে উন্নীত হলেও রোগী ভর্তি থাকে প্রায় ২ হাজার। অথচ ৩৬০ বেড অনুসারে ২২৪টি চিকিত্সক পদের অনুকূলে কর্মরত রয়েছেন মাত্র ৯৯ জন। সেখানকার ১২৫টি পদই শূন্য রয়েছে। এছাড়াও হাজার বেড অনুযায়ী অন্যান্য পদে জনবল রয়েছে ৪ ভাগের ১ ভাগ। এ তীব্র সংকটের মধ্যেই গত বছর করোনা সংক্রমণ শুরু হওয়ার পর শেবাচিম হাসপাতালের নির্মাণকাজ অসম্পূর্ণ হওয়া ৫তলা ভবনে চালু করা হয় করোনা ইউনিট এবং সেই ভবনটি করোনা ইউনিট হিসেবেই পরিচিতি পায়।


কালের কণ্ঠ

লকডাউন শিথিলে ভয়, সতর্কতার তাগিদ
করোনার ঊর্ধ্বমুখী পরিস্থিতির মধ্যে আজ মধ্যরাত থেকে আট দিন বিধি-নিষেধ শিথিল হচ্ছে। এ নিয়ে বিশেষজ্ঞরা উদ্বেগ জানানোর পাশাপাশি এও বলেছেন, ঈদ ও অর্থনীতির কথা ভেবে সরকার এই সিদ্ধান্ত নিতে বাধ্য হয়েছে। তবে এতে পরিস্থিতি খারাপ হতে পারে। তাঁরা এ কারণে স্বাস্থ্যবিধি জোরালোভাবে মেনে চলতে, বিশেষ করে মাস্ক ছাড়া কাউকে ঘর থেকে বের না হওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন।

কৌশলী সিদ্ধান্তে দুই কূল রক্ষার চেষ্টায় সরকার
একদিকে কঠোর লকডাউন বা বিধি-নিষেধে সাধারণ মানুষের ভোগান্তি, অন্যদিকে লকডাউন না দিলে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ বাড়ার শঙ্কা। আবার সপ্তাহখানেক পরেই কোরবানির ঈদ। এমন পরিস্থিতিতে দুই কূল রক্ষার কৌশলী সিদ্ধান্ত নিল সরকার। দেশে সংক্রমণ ও মৃত্যুর সংখ্যার ঊর্ধ্বগতির মধ্যেই ঈদ উদযাপন এবং অর্থনীতির গতি সচল রাখতে আজ মধ্যরাত থেকে ২২ জুলাই পর্যন্ত আট দিনের জন্য লকডাউন শিথিল করা হয়েছে। এই সময়ের মধ্যে স্বাস্থ্যবিধি মেনে সব ধরনের গণপরিবহন চলবে, শপিং মল, দোকানপাটসহ সব কিছু খোলা থাকবে। একই সঙ্গে ঈদের পর ২৩ জুলাই সকাল ৬টা থেকে ৫ আগস্ট মধ্যরাত পর্যন্ত ১৪ দিন আগের চেয়েও কঠোর লকডাউন কার্যকর হবে বলেও গতকাল মঙ্গলবার মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের জারি করা প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে।

ঠেকানো যাচ্ছে না ভয়ংকর আইস, বড় চালান আটক
মিয়ানমার থেকে ইয়াবা রুট দিয়ে ঢুকছে দেশে
মিয়ানমার থেকে যে রুটে দেশে মাদকদ্রব্য ইয়াবা ট্যাবলেট ঢুকছে, সেই একই কক্সবাজার-চট্টগ্রাম রুটে এখন ক্রিস্টাল মেথ বা আইস নামের নতুন ধরনের মাদকদ্রব্য আসছে। ২০১৯ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে ঢাকায় প্রথম এই মাদকদ্রব্য ধরা পড়ে। এরপর দিন দিন এর কারবার বাড়ছে। গতকাল মঙ্গলবার চট্টগ্রাম থেকে আরেকটি বড় চালান আটক করা হয়েছে। গ্রেপ্তার করা হয়েছে তিনজনকে।

এ সপ্তাহে আসছে আরো টিকা, পুরোদমে চলছে নিবন্ধন
► দেশে মডার্নার টিকা প্রয়োগ শুরু
► ১২ সিটিতে মডার্না জেলা-উপজেলায় সিনোফার্ম
করোনাভাইরাসের চতুর্থ টিকা হিসেবে দেশে গতকাল মঙ্গলবার থেকে শুরু হয়েছে আমেরিকার মডার্নার টিকা প্রয়োগ। ঢাকাসহ ১২টি সিটি করপোরেশন এলাকায় সব টিকা কেন্দ্রে গতকাল প্রথমবারের মতো এই টিকা দেওয়া হয়। এর পাশাপাশি সারা দেশের জেলা ও উপজেলা পর্যায়ে চলছে চীনের সিনোফার্মের টিকা দেওয়ার কাজ। ৩৫ বছরের ওপরের বয়সী সবাই পাচ্ছেন এই টিকা। এ ক্ষেত্রে যাঁদের আগের নিবন্ধন করা আছে তাঁদের নতুন করে আর নিবন্ধন করতে হচ্ছে না। যাঁরা নতুন নিবন্ধন করছেন তাঁরা নির্দিষ্ট দিনে, নির্দিষ্ট কেন্দ্রে গিয়ে টিকা পাচ্ছেন বলে জানিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর।

এরশাদের দ্বিতীয় মৃত্যুবার্ষিকী আজ
জাপা না সরকারের শরিক না প্রকৃত বিরোধী দল
► দলের জন্য ‘অভিশাপ’ এরশাদের সম্পদ
► জাপা নামে দল করতে পারেন বিদিশা
সাবেক রাষ্ট্রপতি ও জাতীয় পার্টির (জাপা) প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের দ্বিতীয় মৃত্যুবার্ষিকী আজ। ২০১৯ সালের ১৪ জুলাই বার্ধক্যজনিত শারীরিক জটিলতা নিয়ে ঢাকার সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মৃত্যুবরণ করেন।
রাজনৈতিক বিশ্লেষকদের অনেকেই মন্তব্য করেছিলেন যে এরশাদের মৃত্যুর পর জাতীয় পার্টিরও রাজনৈতিক মৃত্যু হতে পারে। অবশ্য এরশাদবিহীন জাতীয় পার্টি এখনো টিকে আছে। ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের মিত্র হলেও দলটি এখন সংসদে বিরোধী দলের ভূমিকায় আছে।

 

বাংলাদেশ প্রতিদিন

গণপরিবহন ছাড়া সবকিছুই চলছে আগের মতো
লকডাউন শিথিলের ঘোষণায় গণপরিবহন ছাড়া সবকিছুই চলছে আগের মতো। চলমান ‘কঠোর’ বিধিনিষেধের মেয়াদ আজ ১৪ জুলাই মধ্যরাতে শেষ হচ্ছে। তবে গতকাল থেকেই সবকিছু চলছে আগের মতো। অনেক এলাকায় সব দোকানপাট ছিল খোলা, ভিড় ছিল মানুষের। অলি-গলি চায়ের দোকানে আড্ডা ছিল জমজমাট। ব্যক্তিগত গাড়ি নিয়ে ঘুরতে দেখা গেছে অনেককেই। রাস্তায় ছিল উবার-পাঠাওয়ের মোটরসাইকেল রাইডাররা। রাস্তায় রিকশার পাশাপাশি ব্যক্তিগত গাড়িই ছিল অনেক বেশি। অনেক রাস্তায় ছিল যানজটও।

মৃত্যু বেশি ঢাকা খুলনায়
সর্বোচ্চ সংক্রমণ বরিশাল সিলেটে, ২৪ ঘণ্টায় প্রাণহানি ২০৩, শনাক্ত ১২ হাজার ১৯৮
করোনায় সবচেয়ে কম সংক্রমিত অঞ্চল হিসেবে এত দিন বরিশাল ও সিলেট বিভাগ এগিয়ে থাকলেও চলতি জুলাইয়ে বদলে গেছে সব হিসাব-নিকাশ। কয়েক দিন ধরেই নমুনা পরীক্ষায় সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত শনাক্ত হচ্ছে বরিশাল ও সিলেট বিভাগে। গত ২৪ ঘণ্টায় বরিশাল বিভাগে শনাক্তের হার ছিল ৪২.৫০ শতাংশ, যা দেশের মধ্যে সর্বোচ্চ। এর পরই সিলেট বিভাগে শনাক্তের হার ছিল ৪১.৭০ শতাংশ। সবচেয়ে কম শনাক্তের হার ছিল রাজশাহী বিভাগে ১৯.৫৯ শতাংশ। এদিকে গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ২০৩ জনের মৃত্যু হয়েছে।

শিথিলতায় সতর্কতা কেন জরুরি
স্বাস্থ্যবিধি কঠোরভাবে মানতে হবে
ডা. এ বি এম আবদুল্লাহ
প্রধানমন্ত্রীর ব্যক্তিগত চিকিৎসক ও ইউজিসি অধ্যাপক ডা. এ বি এম আবদুল্লাহ বলেছেন, ঢাকার বাইরে জেলা শহরগুলোয় সংক্রমণ ঊর্ধ্বমুখী। এর মধ্যে ঈদ উপলক্ষে বিধিনিষেধ শিথিল করা হয়েছে। এখন সর্বোচ্চ সতর্কতা বজায় রাখতে হবে। গণপরিবহনে ভিড়, গাদাগাদি করা যাবে না। করোনা ঠেকাতে কঠোরভাবে স্বাস্থ্যবিধি মানতে হবে। তিনি গতকাল বাংলাদেশ প্রতিদিনকে বলেন, করোনার সব ভ্যারিয়েন্ট থেকে সুরক্ষা দিতে পারে মাস্ক। করোনার শুরু থেকে যে স্বাস্থ্যবিধি শেখানো হচ্ছে তা ব্যবহার করতে হবে। না ধুয়ে হাত নাকে-মুখে দেওয়া যাবে না। প্রতিদিনই বাড়ছে আক্রান্তের সংখ্যা। কয়েক দিন ধরে দুই শর বেশি মানুষ মারা যাচ্ছে। পরিস্থিতি মোটেই সুখকর নয়। এবার উৎসবের ঈদে সতর্কতা খুব জরুরি।

তাজরীন ট্র্যাজেডির ক্ষতিপূরণ মেলেনি ৯ বছরেও
তালাবদ্ধ কারখানায় আগুনে পুড়ে মারা যান ১১২ শ্রমিক
রূপগঞ্জের সেজান জুস কারখানার মতোই দরজা তালাবদ্ধ থাকায় আগুনে পুড়ে নির্মমভাবে শ্রমিক নিহত হয়েছিলেন আশুলিয়ার তাজরীন গার্মেন্টে। ২০১২ সালের ২৪ নভেম্বর রাতে ভয়াল সে ঘটনায় আগুনে পুড়ে ১১২ জন নিরীহ শ্রমিক প্রাণ হারান। আগুনে দগ্ধ ও পঙ্গুত্ব বরণ করেন আরও ১০৪ জন শ্রমিক।

টিকাই একমাত্র সমাধান
উন্নত বিশ্বে গণটিকার মাধ্যমে ফিরেছে অর্থনীতি ও জীবনের গতি, পিছিয়ে বাংলাদেশ, বিশ্বে গড়ে শতকরা ১২ শতাংশ টিকা দেওয়া সম্পন্ন, বাংলাদেশ এখনো ২.৬ শতাংশ
মহামারীর মধ্যেই লন্ডনে হয়ে গেল ইউরোপের দেশগুলোর ফুটবল চ্যাম্পিয়নশিপ ইউরো কাপের ফাইনাল। স্টেডিয়ামের কোনো আসন খালি ছিল না। দর্শকদের মাস্ক বাধ্যতামূলক ছিল না। সামাজিক দূরত্বের স্বাস্থ্যবিধির প্রয়োজনও ছিল না। এর সবই সম্ভব হয়েছে করোনাভাইরাসের টিকা দেওয়ার কারণে। শুধু লন্ডন নয়, ইউরোপের ১১টি দেশে হয়েছে এই ফুটবল চ্যাম্পিয়নশিপ। সব স্টেডিয়ামেই ছিল দর্শক। শুধু খেলাই নয়, টিকা দিয়ে অর্থনৈতিক কর্মকান্ড স্বাভাবিক করে ফেলেছে বিশ্বের উল্লেখযোগ্য সংখ্যক রাষ্ট্র।

 

সমকাল

পুরান ঢাকার ৪৪ এলাকা সবচেয়ে ঝুঁকিপূর্ণ
১৩০১ গুদাম কারখানায় বড় বিপদের শঙ্কা
পুরান ঢাকার ৪৪টি এলাকা অগ্নিকাণ্ডের সবচেয়ে ঝুঁকিপূর্ণ হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে। সেখানে ছোট-বড় মিলিয়ে তিন হাজার ৫০০টি রাসায়নিক দাহ্য পদার্থ ও বিস্ম্ফোরক জাতীয় দ্রব্যের গুদাম, কারখানা বা দোকান রয়েছে। এর মধ্যে অতি ঝুঁকিপূর্ণ এক হাজার ৩০১টি। সম্প্রতি পুরান ঢাকার আবাসিক ভবনের আড়ালে দাহ্য পদার্থের মজুদ ও কারবার নিয়ে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর একটি সংস্থা মাঠ পর্যায়ে খোঁজ নিয়ে একটি প্রতিবেদন তৈরি করে। সেখানে এসব তথ্য উঠে এসেছে।

টিকার মিশ্র ডোজ ভয়ংকর বিপদ আনতে পারে : বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা
থাইল্যান্ড তাদের গণটিকাদান কর্মসূচির নীতি পরিবর্তন করে দু'রকম টিকা মিলিয়ে দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছে। করোনাভাইরাসের অতি সংক্রামক ডেলটা ধরনের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে এ পদক্ষেপ নিয়েছে সরকার। মিশ্র টিকা গ্রহণে নাগরিকদের উদ্বুদ্ধ করতে জার্মানির চ্যান্সেলর অ্যাঙ্গেলা মেরকেলও দুই দফায় দু'রকমের টিকা নিয়েছেন। তবে এই প্রবণতা ভয়ংকর বিপদ ডেকে আনতে পারে বলে সতর্ক করেছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। খবর বিবিসি ও এএফপির।

স্বাস্থ্যবিধি মেনে পশুহাট বসবে সারাদেশেই
ডিজিটাল হাটেরও উদ্বোধন
আসন্ন ঈদুল আজহা উপলক্ষে দেশে কোরবানির পশুর হাট বসাতে কোনো বাধা থাকছে না। তবে করোনা মহামারির কারণে ক্রেতা-বিক্রেতাদের স্বাস্থ্যবিধি ও সরকারি নির্দেশনাগুলো কঠোরভাবে মেনে চলতে হবে। সরকার চায়, দেশবাসী যেন হাটে না গিয়ে অনলাইনভিত্তিক ডিজিটাল পশুহাট থেকে পশু কেনে। আসন্ন ঈদুল আজহা উপলক্ষে পশুহাট বসানো ও বর্জ্য ব্যবস্থাপনা বিষয়ে গতকাল মঙ্গলবার অনলাইনে আয়োজিত আন্তঃমন্ত্রণালয় সভায় স্থানীয় সরকারমন্ত্রী তাজুল ইসলাম এ কথা বলেন। তিনি বলেন, মুসলিমদের সর্ববৃহৎ ধর্মীয় উৎসব ঈদুল আজহা। এর সঙ্গে মানুষের আবেগ-অনুভূতি জড়িত। তাই বিভিন্ন প্রতিকূলতা, দুর্যোগ-দুর্বিপাকেও এগুলোকে পরিহার করা সম্ভব হয় না। গত বছর করোনা মহামারির মধ্যেও পশুর হাট বসানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছিল। এবারও করোনার প্রাদুর্ভাব বেশি থাকা সত্ত্বেও সাধারণ মানুষের কথা বিবেচনায় নিয়ে স্বাস্থ্যবিধি এবং সামাজিক দূরত্ব মেনে পশুহাট বসানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

পান্তাভাতে বিশ্বজয়
'মাস্টারশেফ অস্ট্রেলিয়া'য় আমাদের কিশোয়ার
পান্তাভাত শুধু বিচারকের মন জয় করেনি, এ যেন পান্তাভাতের বিশ্বজয়। 'মাস্টারশেফ অস্ট্রেলিয়া' প্রতিযোগিতায় কিশোয়ার চৌধুরী গ্রামবাংলার মানুষের নিত্যদিনের খাবার পান্তাভাত আর আলুভর্তা তুলে ধরলেন নতুন আঙ্গিকে। এটি বাঙালির কাছে গরিবের খাবার হিসেবে পরিচিত হলেও কিশোয়ার সেটিকে নিয়ে এসেছেন আন্তর্জাতিক অঙ্গনে। 'মাস্টারশেফ অস্ট্রেলিয়া'র চূড়ান্ত আসরে স্থান মিলেছে খাবারটির। ৩৮ বছর বয়সী বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত কিশোয়ার চৌধুরী অস্ট্রেলিয়ার জনপ্রিয় এই মাস্টারশেফ প্রতিযোগিতায় অর্জন করেছেন তৃতীয় স্থান। প্রতিযোগিতায় চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন ভারতীয় বংশোদ্ভূত জাস্টিন নারায়ণ এবং প্রথম রানারআপ হয়েছেন পিট ক্যাম্পবেল। দু'দিন ধরে অনুষ্ঠিত হয় এই চূড়ান্ত পর্ব। গতকাল মঙ্গলবার বাংলাদেশ সময় বিকেল সাড়ে ৫টায় বিজয়ীদের নাম ঘোষণা করে 'মাস্টারশেফ অস্ট্রেলিয়া'।

বাসের টিকিট কাউন্টারে
অনলাইনে আজ থেকে ট্রেনের টিকিট
ঘোষণা দিয়েও গতকাল মঙ্গলবার ঈদযাত্রার ট্রেনের টিকিট বিক্রি করতে পারেনি রেলওয়ে। আজ বুধবার সকাল ৮টা থেকে 'রেলসেবা' অ্যাপ এবং ওয়েবে টিকিট বিক্রি শুরু হওয়ার কথা। আজ পাওয়া যাবে ১৫, ১৬, ১৭ এবং ১৮ জুলাইয়ের টিকিট। এদিকে, ঈদের আর বেশিদিন বাকি না থাকায় এবার বাসের আগাম টিকিট বিক্রি হবে না। আজ যেসব পরিবহন কাউন্টার খুলবে, তারা সরাসরি বাসের টিকিট বিক্রি করবে।

 

দ্য ডেইলি স্টার

Govt’s New Stimulus Packages: For the poor made poorer
Questions hang over targeting of poor; experts voice concern about the new poor
The government yesterday announced a Tk 3,200 crore relief package for the ultra-poor and destitute families and the tourism sector -- segments that were dealt a fresh blow by the latest round of hard lockdown to contain the second wave of Covid-19 cases.
The country would be entering into another two weeks of strict lockdown from July 23, so the latest package would provide some relief to the poor, who were hit the hardest by the global coronavirus pandemic that began in earnest in Bangladesh from March last year.

Covid-19 Surge: As if Eid will give it a break
Govt announces 8-day pause in lockdown; stricter curbs for 14 days from July 23
Relaxing the ongoing restrictions for eight days from tomorrow for the Eid-ul-Azha, the government yesterday decided to enforce a stricter lockdown across the country for two weeks from July 23 to rein in Covid infections.
The decision came at a time when the country logged 12,198 daily Covid cases and 203 deaths. A total of 1.34 lakh people got infected with the virus and 2,339 died in only 13 days from July 1.