প্রযুক্তিগত সমস্যা সমাধানে পুরস্কার পেল ১০টি দল



স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, ঢাকা
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

জনগণের দৈনন্দিন জীবনের বিভিন্ন সমস্যার প্রযুক্তিগত সমাধান দেওয়ায় পুরষ্কার পেয়েছে ১০টি দল। 'ন্যাশনাল হ্যাকাথন অন ফ্রন্টিয়ার টেকনোলজিস' শীর্ষক প্রতিযোগিতার সমাপনী অনুষ্ঠানে তাদের পুরস্কার দেওয়া হয়।

শনিবার (২৯ ফেব্রুয়ারি) রাজধানীর বসুন্ধরা আবাসিক এলাকায় ইন্ডিপেন্ডেন্ট ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশের (আইইউবি) ক্যাম্পাসে দুই দিনব্যাপী এ প্রতিযোগিতার সমাপনী অনুষ্ঠান হয়।

সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন স্থানীয় সরকারমন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম। এছাড়াও তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক এবং ঢাকায় ভারতের উপ-হাইকমিশনার বিশ্বদীপ দে আয়োজিত অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।

সারাদেশ থেকে নির্বাচিত হয়ে আসা মোট ৫১টি দল ১০টি গুরুত্বপূর্ণ সমস্যার তথ্যপ্রযুক্তিভিত্তিক উদ্ভাবনী সমাধানের লক্ষ্যে এই প্রতিযোগিতায় অংশ নেয়। পরে সেরা ১০টি দলকে বিজয়ী ঘোষণা করে তাদের হাতে সনদ তুলে দেওয়া হয়।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে স্থানীয় সরকারমন্ত্রী তাজুল ইসলাম বলেন, আমরা বিশ্বাস করি তরুণরা তাদের উদ্ভাবনী চিন্তা-চেতনা ও সাহস দিয়ে বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন বাস্তবায়ন করবে। ঢাকা শহরের বর্জ্য ব্যবস্থাপনার প্রযুক্তিগত উদ্ভাবন দরকার। গ্রামীণ অবকাঠামো ও রাস্তা নির্মাণে প্রযুক্তিকে কীভাবে কাজে লাগানো যায় সেটির উদ্ভাবনও দরকার।

এসময় তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন, সারাবিশ্বে বাংলাদেশকে একটি উদ্ভাবনী জাতি হিসেবে পরিচিত করাতে চাই আমরা। প্রযুক্তিখাতে নতুন নতুন উদ্ভাবনে সরকার বদ্ধপরিকর।