নাটোরে আশ্রয় কেন্দ্রগুলোতে ভাত-মাংস পাঠালেন পলক

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, নাটোর
রান্না করা মাংস ও ভাত

রান্না করা মাংস ও ভাত

  • Font increase
  • Font Decrease

নাটোরের সিংড়া উপজেলার বিভিন্ন আশ্রয়কেন্দ্রে বন্যায় দুর্গত মানুষদের রান্না করা মাংস ও ভাত দিয়েছেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক। তার পক্ষে বন্যাদুর্গত ইউনিয়নগুলোর প্রতিটি আশ্রয়কেন্দ্রে রান্না খাবারগুলো পৌঁছে দেন সংশ্লিষ্ট ইউপি চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ। একই সঙ্গে সিংড়া পৌর এলাকার অন্তর্গত আশ্রয়কেন্দ্র গুলোতেও পাঠানো হয়েছে খাবার।

শনিবার (১ আগস্ট) পবিত্র ঈদুল আজহা উপলক্ষে আশ্রয়কেন্দ্র গুলোতে ভাত ও মাংস পাঠানো হয়।

বন্যাদুর্গত কলম ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মইনুল হক চুনু বলেন, কলম ইউনিয়নের আশ্রয়কেন্দ্রে অবস্থান করা দুই শতাধিক পরিবারের কাছে রান্না খাবার পাঠিয়েছেন প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক। বানভাসি মানুষদের সাথে ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি করে আমরাও তাদের সাথে খাবার খেয়েছি।

প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন, আশ্রয়কেন্দ্রে থাকা পরিবারগুলো এবং তাদের শিশুরা যেনো ঈদের আনন্দ থেকে বঞ্চিত না হয় সেজন্য দুর্গত ইউনিয়নগুলোতে কোরবানির রান্না করা মাংস ও ভাত পাঠানো হয়েছে। যতদিন বন্যা দুর্যোগ থাকবে চলনবিলের বানভাসি কোনো পরিবার না খেয়ে থাকবে না।

প্রসঙ্গত, চলনবিল অধ্যুষিত নাটোরের সিংড়া উপজেলার ১২ ইউনিয়নের মধ্যে ১০টি ইউনিয়ন বন্যার পানিতে প্লাবিত। যেখানে প্রায় এক লাখ মানুষ পানিবন্দী রয়েছেন।

আপনার মতামত লিখুন :