নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের দাম না কমলে সচিবালয় ঘেরাও: নূর



স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, ঢাকা
গণঅধিকার পরিষদের সদস্য সচিব নুরুল হক নূর

গণঅধিকার পরিষদের সদস্য সচিব নুরুল হক নূর

  • Font increase
  • Font Decrease

নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসপত্রের দাম না কমলে সচিবালয় ঘেরাও কর্মসূচি দেয়া হবে বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছেন গণঅধিকার পরিষদের সদস্য সচিব নুরুল হক নূর।

শুক্রবার (১৩ মে) সকালে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে এক প্রতিবাদ সমাবেশে তিনি এ হুঁশিয়ারি দেন।

ভোজ্যতেল ও নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যমূল্যের লাগামহীন ঊর্ধ্বগতির প্রতিবাদে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। বাংলাদেশ যুব অধিকার পরিষদ এ সমাবেশের আয়োজন করে।

গণঅধিকার পরিষদ এর সদস্য সচিব ও ডাকসুর সাবেক ভিপি নুরুলহক নুর বলেন, এই সরকার গত ১৩ বছের দেশকে মুমূর্ষু অবস্থায় নিয়ে গেছে, দেশ এখন আইসিইউতে রয়েছে। আপনারা যদি খেয়াল করেন দেখবেন সব জিনিস পত্রের দাম বাড়াছে।

তিনি বলেন, সংসদের ৬২% এমপি ব্যবসায়ী। তারা ব্যবসায়ী সিন্ডিকেটের সাথে তারা জড়িত। আমরা দেখেছি মানুষ যেখানে খেতে পারে না, সেখানে সরকার উন্নয়ন প্রচার করার জন্য জেলায় জেলায় এলইডি বোর্ড স্থাপন করছে। এই সরকার এতো দিন ক্ষমতায় থাকায় পরও গণমাধ্যমের স্বাধীনতা নিশ্চিত করতে পারে নাই।

সরকারের এমপি মন্ত্রীদের উদ্দেশ্যে নুরুলহক নুর বলেন, সময় থাকতে ভালো হয়ে যান। সরকার যদি নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসপত্রের দাম না কমায় তাহলে আমাদের পরবর্তী কর্মসূচি সচিবালয় ঘেরা।

বাংলাদেশ যুব অধিকার পরিষদের সভাপতি মুনজুর মোর্শেদ মামুন বলেন, বাংলাদেশের মানুষের যে করুণ দুর্দশা, শুধু তেলে দাম বাড়ছে তা নয়। নিত্যপ্রয়োজনীয় সকল পণ্যে দাম বেড়েছে। এই অবস্থায় সরকার বাজার নিয়ন্ত্রণ করতে সম্পূর্ণভাবে ব্যর্থ।

তিনি বলে, বর্তমান সরকার ক্ষমতায় আসার আগে বিভিন্ন সময় এই দেশের মানুষকে রূপকথার গল্প শুনিয়ে ছিলো। ১০ টাকায় চাল খাওয়াবে, ঘরে ঘরে চাকরি দিবে, গ্রামকে শহরে রূপান্তর করবে। কিন্তু এখন ১০ টাকা চালে বদলে ঘরে ঘরে হাহাকার ছাড়া কিছু দেয়নি। চাকরি বদলে ঘরে ঘরে দলীয় ক্যাডার বাহিনী দিয়ে সন্ত্রাস সৃষ্টি করছে।

বাজার নিয়ন্ত্রণ ও বাজারকে সিন্ডিকেট মুক্ত করতে বর্তমান বাণিজ্য মন্ত্রী সম্পূর্ণভাবে ব্যর্থ হওয়ার অনতিবিলম্বে বাণিজ্য মন্ত্রী পদত্যাগের দাবি জানাচ্ছি।

বাংলাদেশ যুব অধিকার পরিষদের সাধারণ সম্পাদক নাদিম হাসান বলেন, বর্তমান সরকার, সিন্ডিকেটের পাহারাদার হয়ে জনগণের জীবন দূর্বিসহ করে তুলেছে। সরকার যদি জনগণের দুঃখ কষ্ট অনুধাবন করতে না পারে, তবে সরকারকে বিদায় করতে জনগণ বাধ্য হবে। সিদ্ধান্ত সরকারের কাছে, তারা কী চায়।

বাংলাদেশ যেন পাচারকারীদের স্বর্গরাজ্য: জিএম কাদের



স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, ঢাকা
বাংলাদেশ যেন পাচারকারীদের স্বর্গরাজ্য: জিএম কাদের

বাংলাদেশ যেন পাচারকারীদের স্বর্গরাজ্য: জিএম কাদের

  • Font increase
  • Font Decrease

জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যান ও বিরোধী দলীয় উপনেতা জিএম কাদের বলেছেন, বাংলাদেশ যেনো পাচারকারীদের স্বর্গরাজ্য। একটি চক্র অবৈধভাবে অর্থ আয় করে আবার অবৈধভাবে বিদেশে পাচার করা হচ্ছে।

সোমবার (১৬ মে) এক বিবৃতিতে তিনি এমন মন্তব্য করেছেন।

তিনি বলেন, বছরে গড়ে দেশ থেকে ৬৪ হাজার কোটি টাকা পাচার হচ্ছে। গ্লোবাল ফিনান্সিয়াল ইন্টেগ্রিটির সর্বশেষ প্রতিবেদনে এই তথ্য তুলে ধরা হয়েছে। সংস্থাটির তথ্য অনুযায়ী গেলো ২০১৬ থেকে ২০২০ সাল পর্যন্ত ৫ বছরে দেশ থেকে পাচার হয়েছে ৩ লাখ ২০ হাজার কোটি টাকা। প্রতিষ্ঠানটির দেয়া তথ্যে ২০০৯ থেকে ২০১৫ সাল (২০১৪ সাল বাদে) ৬ বছরে পাচার হয়েছে প্রায় সাড়ে ৪ লাখ কোটি টাকা পাচার হয়েছে। এরমধ্যে ২০১৫ সালেই পাচার হয়েছে ১ লাখ কোটি টাকার বেশি।

তিনি বলেন, বিভিন্ন গণমাধ্যমের তথ্য অনুযায়ী প্রতিবছর দেশ থেকে হাজার হাজার কোটি টাকা সিঙ্গাপুর, মালয়েশিয়া, কানাডা, যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য, সুইজারল্যান্ড, আরব আমিরাত ও থাইল্যান্ড সহ ১০টি দেশে পাচার হচ্ছে। দেশের মানুষ জানতে চাচ্ছে, কিভাবে দায়িত্বশীলদের চোখ ফাঁকি দিয়ে দেশের টাকা বিদেশে পাচার হচ্ছে। দেশের মানুষ জানতে চায় কারা দেশের টাকা পাচারে সহযোগিতা করছে। সংশ্লিষ্টদের দায়িত্ব পালনে অনীহা আছে কিনা তাও খতিয়ে দেখতে হবে। কারা দেশের টাকা বিদেশে পাচার করছে তাদের তালিকা প্রকাশ করতে হবে। দেশের মানুষ পাচারকারীদের বিরুদ্ধে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দেখতে চায়।

বিবৃতিতে বলেন, দেশের টাকা পাচারকারী ও পাচারে সহায়তাকারীদের বিরুদ্ধে কঠোর শাস্তির বিধান করতে হবে। পাচারকারীদের বিরুদ্ধে শাস্তি নিশ্চিত করতে না পারলে, কখনোই পাচার রোধ করা সম্ভব হবে না।

;

মেহেরপুর জেলা আ.লীগের সভাপতি ফরহাদ, সম্পাদক খালেক



ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, মেহেরপুর
মেহেরপুর জেলা আ.লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন, সভাপতি ফরহাদ, সম্পাদক খালেক

মেহেরপুর জেলা আ.লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন, সভাপতি ফরহাদ, সম্পাদক খালেক

  • Font increase
  • Font Decrease

মেহেরপুর জেলা আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন সম্পন্ন হয়েছে। এতে সভাপতি হয়েছেন জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন এবং সাধারণ সম্পাদক গাংনী উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এমএ খালেক। তারা দু'জনই দ্বিতীয়বারের মতো এ দায়িত্বে আসলেন। ‌

সোমবার (১৬ মে) বিকেল সাড়ে চারটায় মেহেরপুর শহীদ শামসুজ্জোহা পার্কে সম্মেলনস্থলে সভাপতি, সাধারণ সম্পাদক, সহ সভাপতি ও যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক পদে কয়েকজনের নাম ঘোষণা করা হয়। বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম কাউন্সিলরদের মতামতের ভিত্তিতে এই ঘোষণা দেন।

এর আগে বেলা সাড়ে ১১ টায় সম্মেলনের আনুষ্ঠানিকতা শুরু হয়।

জাতীয় সঙ্গী‌তের সা‌থে পতাকা উ‌ত্তোলন এবং শান্তীর প্রতীক পায়রা উ‌ড়ি‌য়ে অনুষ্ঠা‌নের উ‌দ্বোধন ক‌রে বাংলা‌দেশ আওয়ামী লী‌গের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম। এরপ‌রে জা‌তির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মু‌জিবুর রহমা‌নের প্রতিকৃ‌তি‌তে পুষ্পার্ঘ অর্পণ ক‌রে ম‌ঞ্চে‌ প্রবেশ করেন নেতৃবুন্দ।

অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে আরও উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী সাংগঠনিক সম্পাদক বিএম মোজাম্মেল হক,  নির্বাহী সদস‌্য পারভীন জামান কল্পনা, অ‌্যাড গ্লো‌রিয়া ঝর্ণাসহ কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ।

অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করেন মেহেরপুর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হসেন।

অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন মেহেরপুর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এম এ খালেক। অনুষ্ঠা‌নে উপ‌স্থিত ছিলেন কেন্দ্রীয় ও স্থানীয় নেতৃবৃন্দ।

প্রথম পর্বে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। ভার্চুয়াল বক্তৃতায় নেতাকর্মীদের দিক নি‌র্দেশনা দেন বাংলাদেশ লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবাইদুল কাদের।

বিকেলে দ্বিতীয় পর্বে জেলা আওয়ামী লীগের নতুন নেতৃত্ব নির্বাচনের জন্য শুধুমাত্র কাউন্সিলরদের নিয়ে অধিবেশন শুরু হয়।

২০১৫ সালের ২৮ ফেব্রুয়ারি সর্বশেষ সম্মেলনে ফরহাদ হোসেন সভাপতি এবং এম এ খালেক সাধারণ সম্পাদক মনোনীত হয়েছিলেন।

;

লক্ষ্মীপুরে শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসে কোরআন খতম



ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, লক্ষ্মীপুর
লক্ষ্মীপুরে শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসে কোরআন খতম

লক্ষ্মীপুরে শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসে কোরআন খতম

  • Font increase
  • Font Decrease

১৭ মে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে লক্ষ্মীপুরে কোরআন খতম, দোয়া মাহফিল ও র‌্যালি করেছে যুবলীগ।

সোমবার (১৬ মে) জেলা যুবলীগের সাবেক যুগ্ম আহবায়ক বায়েজীদ ভূঁইয়ার উদ্যোগে আবু বকর সিদ্দিক (রা:) মাদ্রাসা প্রাঙ্গণে কোরআন খতম ও দোয়া মাহফিলের আয়োজন করা হয়। পরে একটি বর্ণাঢ্য র‌্যালি বের হয়ে গুরুত্বপূর্ণ সড়ক প্রদক্ষিণ করে। এতে যুবলীগের বিভিন্ন ইউনিটের নেতৃবৃন্দ অংশ নেয়।

যুবলীগের চেয়ারম্যান শেখ ফজলে শামস পরশ ও সাধারণ সম্পাদক মাইনুল হোসেন খান নিখিলের নির্দেশে মানবিক যুবলীগের ব্যানারে এসব কর্মসূচির আয়োজন করা হয়েছে।

এছাড়া দিবসটি উপলক্ষে বিভিন্ন মসজিদে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দীর্ঘায়ু কামনা করে বিশেষ দোয়া অনুষ্ঠিত হবে বলে জানিয়েছে যুবলীগ নেতা বায়েজীদ।

;

পি কে হালদার আওয়ামী লীগের কেউ না: কাদের



স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, ঢাকা
আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের

  • Font increase
  • Font Decrease

অর্থপাচার মামলায় ভারতে আটক বহুল আলোচিত এনআরবি গ্লোবাল ব্যাংকের সাবেক ব্যবস্থাপনা পরিচালক প্রশান্ত কুমার হালদার (পি কে হালদার) আওয়ামী লীগের কেউ নয় বলে জানিয়েছেন দলটির সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের দাবির প্রতিবাদ করে তিনি বলেন, অর্থপাচারের তালিকা করতে হলে আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের নয়, আগে বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানসহ দলটির যেসব নেতা অর্থপাচার করেছেন তাদের তালিকা প্রকাশ করার দাবি করেন তিনি।

মেহেরপুর শহীদ শামসুজ্জোহা পার্কে সোমবার (১৬ মে) বেলা সাড়ে ১১টায় আওয়ামী লীগের ত্রিবার্ষিক সম্মেলনে ভার্চুয়াল বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন।

ওবায়দুল কাদের মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরসহ বিএনপি নেতাদের সংযত হয়ে কথা বলার জন্য সতর্ক করে বলেন, আপনারা প্রধানমন্ত্রীকেও অসম্মান করে কথা বলেন। যা চরম শিষ্টাচার বহির্ভূত। ‌

খারাপ লোকদের আওয়ামী লীগে জায়গা নেই উল্লেখ করে তিনি বলেন, মাদক কারবারি, দুর্নীতিবাজ, অর্থ পাচারকারীদের আওয়ামী লীগে জায়গা নেই। সারাদেশে চলমান আওয়ামী লীগের কাউন্সিলে এ ধরনের মানুষ যাতে দলে প্রবেশ না করতে পারে সেজন্য নেতাকর্মীদের পরামর্শ দেন তিনি।

মেহেরপুর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত রয়েছেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম। ‌বিশেষ অতিথি আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক বিএম মোজাম্মেল হকসহ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ।

দীর্ঘ ৭ বছর পর মেহেরপুর জেলা আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হচ্ছে। ২০১৫ সালের ২৮ ফেব্রুয়ারি সর্বশেষ সম্মেলনে ফরহাদ হোসেন সভাপতি এবং এম এ খালেক সাধারণ সম্পাদক মনোনিত হয়েছিলেন। ‌

;