ভারতের সামনে টার্গেট ৪০৭ রানের



স্পোর্টস এডিটর, বার্তা২৪.কম
এবার হাফ-সেঞ্চুরি পেলেন স্মিথ

এবার হাফ-সেঞ্চুরি পেলেন স্মিথ

  • Font increase
  • Font Decrease

ব্যাট হাতে ঠিক যেমন করার ইচ্ছে নিয়ে চতুর্থদিন সকালে নেমেছিল অস্ট্রেলিয়া, করলও তারা ঠিক তাই। ৬ উইকেটে ৩১২ রান তুলে দ্বিতীয় ইনিংস ঘোষণা দিল। সিডনি টেস্ট জিততে ভারতের সামনে তারা দিয়েছে ৪০৭ রানের বড় টার্গেট। শেষ ইনিংসে সিডনির স্পিন সহায়ক উইকেটে ভারত এই চ্যালেঞ্জ জেতার পথে হাঁটবে নাাকি কোনমতো ব্যাট হাতে ম্যাচের বাকি দেড়দিন কাটিয়ে দেবে- সেটাই এখন দেখার বিষয়। তবে ম্যাচ পরিস্থিতি জানাচ্ছে অস্ট্রেলিয়া সিরিজে আরেকবার এগিয়ে যাওয়ার স্বপ্ন দেখছে। 

৪ ম্যাচের সিরিজ এখন ১-১ এ ড্র। অ্যাডিলেডে সিরিজের প্রথম টেস্ট জিতেছিল অস্ট্রেলিয়া। মেলবোর্নে পরের টেস্ট জিতে সিরিজে সমতা আনে ভারত। সিডনিতে যে জিততে তারাই আবার সিরিজে এগিয়ে যাবে। সিরিজের চতুর্থ এবং শেষ টেস্টের ভেন্যু ব্রিসবেন।

স্টিভেন স্মিথ, মারনাস লাবুসানে এবং লেটঅর্ডারে ক্যামেরুণ গ্রিন-অস্ট্রেলিয়ার এই তিন ব্যাটসম্যানের হাফসেঞ্চুরির সুবাদে দ্বিতীয় ইনিংসে তিনশ’র ওপর রান তুলে দান ছেড়ে দেয় স্বাগতিকরা। লাবুসানে ও স্মিথ দুজনেই যেভাবে ব্যাট করছিলেন মনে হচ্ছিল সেঞ্চুরির পথেই হাঁটছেন তারা। কিন্তু লাবুসানে ৭৩ রানে সাইনির বলে উইকেটের পেছনে ক্যাচ তুলে দেওয়ার পর স্মিথও যেন ধের্য্য হারালেন। অস্ট্রেলিয়ার সাবেক অধিনায়ক স্মিথকে এই ইনিংসে সেঞ্চুরি বঞ্চিত করেন রবিচন্দ্র অশ্বিন। ১৬৭ বলে ৮১ রান করে অশ্বিনের স্পিনে বোল্ড হন স্মিথ। মিডলঅর্ডারে ম্যাথু ওয়েড ব্যর্থ হন। পরের ব্যাটিংয়ের গল্প সাজান অধিনায়ক টিম পাইন ও ব্যাটসম্যান ক্যামেরুণ গ্রিন। দুজনে ওয়ানডে স্টাইলে ব্যাট চালান। টিম পাইন ৩৯ রানে অপরাজিত ছিলেন। গ্রিন ১৩২ রানে ৮ বাউন্ডারি ও ৪ ছক্কায় ৮৪ রান করে আউট হতেই অস্ট্রেলিয়া ইনিংস ঘোষণা করে। 

টেস্ট ক্রিকেটে ৪০৬ রানের টার্গেট তাড়া করে ভারতের ম্যাচ জয়ের ইতিহাস আছে। ১৯৭১ সালে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে ত্রিনিদাদে ভারত এই টার্গেট টপকে গিয়েছিল। ত্রিনিদাদের সেই ইতিহাস কি ভারত সিডনিতে ফিরিয়ে আনতে পারবে? 

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

অস্ট্রেলিয়া: ৩৩৮ ও ৩১২/৬ ডিক্লেয়ার্ড।

ভারত: ২৪৪।