লিটনের পর মুশফিকের সেঞ্চুরি



স্পোর্টস ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
মুশফিকুর রহিম ও লিটন দাস

মুশফিকুর রহিম ও লিটন দাস

  • Font increase
  • Font Decrease

প্রথম টেস্টে সেঞ্চুরির আভাস দিয়েছিলেন লিটন দাস। কিন্তু দুর্ভাগ্য জাদুকরী তিন অঙ্ক ছোঁয়া হয়নি তার চট্টগ্রামে। তবে মিরপুরে আর সে ভুল হয়নি। এবার ঠিকই শতক ছিনিয়ে নিয়েছেন এ তারকা ব্যাটসম্যান। তার সঙ্গে সেঞ্চুরি পেলেন মুশফিকুর রহিমও। ১২৭* রান নিয়ে ব্যাটিং করে যাচ্ছেন লিটন। এটি তার টেস্ট ক্যারিয়ারের তৃতীয় সেঞ্চুরি এবং ক্যারিয়ারসেরা ইনিংস। ১০১* রানে তাকে সঙ্গ দিয়ে যাচ্ছেন মুশফিক। এটি তার টেস্ট ক্যারিয়ারের নবম সেঞ্চুরি।

শুরুতেই ভয়ংকর বোলিং আক্রমণ করে বসেছিল শ্রীলঙ্কা। পেস তোপটা দাগান কাসুন রাজিথা ও আসিথা ফার্নান্দো। তাতেই মহাবিপর্যয়ের মুখোমুখি দাঁড়িয়ে গিয়েছিল টাইগাররা। দলীয় মাত্র ২৪ রানেই হারিয়ে ফেলেছিল ৫ উইকেট। মিরপুর টেস্টের খেলা হয়েছে তখন মাত্র ৬.৫ ওভার। 

উদ্বোধনী জুটি কোনো রানই যোগ করতে পারেনি দলীয় স্কোরে। দুই ওপেনার তামিম ইকবাল ও মাহমুদুল হাসান জয় দুজনেই ফিরেছেন শূন্য রানে। ক্যাপ্টেন মুমিনুল হক এবারও ব্যাট হাতে ব্যর্থ। তার কল্যাণে দল পেয়েছে মাত্র ৯ রান। ওয়ানডাউনে নামা নাজমুল হোসেন শান্ত করেন ৮ রান। সাকিব আল হাসান বিদায় নেন শূন্য হাতে।

চরম বিপদের দলের ব্যাটিং লাইনআপের হাল ধরেন মুশফিকুর রহিম ও লিটন দাস। প্রথম টেস্টের মতো দুজনে মিলে লঙ্কান বোলারদের বিরুদ্ধে ব্যাট হাতে গড়ে তুলেছেন তীব্র প্রতিরোধ। 

মুশফিক ও লিটন মিলে ব্যাটিং লড়াইটা বেশ ভালোই চালিয়ে যাচ্ছেন। এগিয়ে নিচ্ছেন সামনের দিকে তথা বড় ইনিংসের পথে। ষষ্ঠ উইকেটে এরমধ্যে ২২৫* রানের পার্টনারশিপ গড়ে ফেলেছেন। 

এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত শ্রীলঙ্কা বিপক্ষে প্রথম ইনিংসে ৫ উইকেট হারিয়ে সংগ্রহ করেছে ২৪৯ রান। শ্রীলঙ্কার হয়ে তিনটি উইকেট শিকার করেছেন কাসুন রাজিথা। দুটি উইকেট পেয়েছেন আসিথা ফার্নান্দো।

কোভিডে আক্রান্ত রোহিত শর্মা



স্পোর্টস ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
রোহিত শর্মা

রোহিত শর্মা

  • Font increase
  • Font Decrease

ইংল্যান্ডের উদ্দেশে দেশ ছাড়ার আগে করোনায় আক্রান্ত হয়েছিলেন রবিচন্দ্রন অশ্বিন। এবার ভারত পেল আরও একটি খারাপ খবর।

শনিবার রাতে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন রোহিত শর্মা। র‍্যাপিড অ্যান্টিজেন টেস্ট থেকে জানা গেছে এ খবর। 

বিসিসিআই জানিয়েছে, ভারতীয় ক্যাপ্টেন এখন আইসোলেশনে আছেন। তবে আজ রোববার নিশ্চিত হওয়ার জন্য ফের পিসিআর টেস্ট করা হবে।

লেস্টারশায়ারের বিপক্ষে প্রস্তুতি ম্যাচ খেলার সময় করোনা পজিটিভ হলেন রোহিত। তবে গতকাল তৃতীয় দিনে ব্যাট হাতে নামেননি তিনি। প্রথম ইনিংসে তার ব্যাট থেকে আসে ২৫ রান।

ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ভারতের একমাত্র টেস্টটি মাঠে গড়াবে ১ জুলাই। তার আগে রোহিত কোভিড পজিটিভ হওয়ায় দুশ্চিন্তায় রয়েছে টিম ম্যানেজমেন্ট।

;

মেয়ার্সের সেঞ্চুরি, রান পাহাড়ের পথে উইন্ডিজ



স্পোর্টস ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
সাকিব আল হাসান ও খালেদ আহমেদ

সাকিব আল হাসান ও খালেদ আহমেদ

  • Font increase
  • Font Decrease

ব্যাট হাতে আলো ছড়ালেন কাইল মেয়ার্স। টাইগারদের ক্ষুরধারহীন বোলিংয়ের সুযোগ নিয়ে হাঁকালেন দাপুটে এক সেঞ্চুরি। তার শতকের ওপর ভর করে দ্বিতীয় দিন শেষে ওয়েস্ট ইন্ডিজ ৫ উইকেট হারিয়ে তুলেছে ৩৪০ রান। সুবাদে ১০৬ রানে এগিয়ে রয়েছে ক্যারিবিয়ানরা।

ইনিংস উদ্বোধন করে দারুণ ব্যাটিং করে যাচ্ছিলেন জন ক্যাম্পবেল ও ক্রেইগ ব্রাথওয়েট। ক্যাম্পবেল (৪৫ রান) ফিফটি করতে না পারলেও ব্রাথওয়েট ঠিকই পেয়েছেন (৫১ রান)।

পরে ব্যাট হাতে ঝলক দেখিয়েছেন জার্মেইন ব্ল্যাকউড। তার ব্যাট থেকে এসেছে ৪০ রান। ওয়েস্ট ইন্ডিজের দলীয় ১৩১ রানে হঠাৎ আগুনে বোলিংয়ে জ্বলে উঠেন মেহেদী হাসান মিরাজ। তার ঘূর্ণি জাদুতে ফিরিয়ে দেন ফিফটি ছুঁয়ে সেঞ্চুরির দিকে ছোটা ক্রেইগ ব্রাথওয়েটকে। পরে ঝড় তুলে ক্যারিবিয়ান ব্যাটিং লাইন আপ নাড়িয়ে দেন খালেদ আহমেদ। এক রানের ব্যবধানে নাই করে দেন দুই উইকেট। ফিরিয়ে দেন রেমন রেইফার ও এনক্রুমাহ বোনারকে। তবে পরে বোলিং দাপটটা ধরে রাখতে পারেননি তারা। 

১৮০ বলে ১৫ বাউন্ডারি ও ২ ফিফটিতে ১২৬ রান নিয়ে ব্যাটিং করে যাচ্ছেন মেয়ার্স। টেস্ট ক্যারিয়ারে এটি তার দ্বিতীয় শতক। ২৬ রান নিয়ে তাকে সঙ্গ দিচ্ছেন জোশুয়া ডি সিলভা।

বাংলাদেশের হয়ে দুটি করে উইকেট নেন খালেদ আহমেদ। বাকি উইকেটটি পান শরিফুল ইসলাম।

সেন্ট লুসিয়ার ড্যারেন স্যামি ন্যাশনাল ক্রিকেট স্টেডিয়ামে তার আগে কোনো উইকেট না হারিয়ে ৬৭ রান নিয়ে দ্বিতীয় দিনের খেলা শুরু করে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। বাংলাদেশ প্রথম ইনিংসে গুটিয়ে যায় ২৩৪ রানে।

;

স্বপ্নের পদ্মা সেতু নিয়ে গর্ব করছেন ক্রিকেটাররা



স্পোর্টস ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
পদ্মা সেতু

পদ্মা সেতু

  • Font increase
  • Font Decrease

স্বপ্নের পদ্মা সেতু পেয়ে সারা দেশ আজ আনন্দের জোয়ারে ভাসছে। সেই খুশির জোয়ার ছুঁয়ে গেছে দেশের ক্রিকেটারদেরও। গর্বের পদ্মা সেতু পেয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন ক্রিকেট তারকারা। 

খুলনার ছেলে সাকিব আল হাসান প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানালেন, ‘মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে অসংখ্য অসংখ্য ধন্যবাদ, বিশেষ করে দক্ষিণাঞ্চলের মানুষের পক্ষ থেকে। কারণ আমার কাছে মনে হয়, এটা দক্ষিণাঞ্চলের উন্নয়নের জন্য সবচেয়ে বড় অবদান। এবং এটা পুরো বাঙালি জাতির একটা স্বপ্ন ছিল, যেটা মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর জন্য সম্ভব হয়েছে।’

সাকিব আরও বলেন, ‘সে কারণে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানাই। আর আশা করি এই পদ্মা সেতু বাংলাদেশের অর্থনীতিকে আরও সামনের দিকে এগিয়ে নিয়ে যাবে।’

দেশের বিশাল অর্জন পদ্মা সেতু উদ্বোধনের পর তামিমও ধন্যবাদ দিলেন প্রধানমন্ত্রীকে, ‘আমার মনে হয় বাংলাদেশের জন্য বিশাল বড় একটা অর্জন। একটা সময় এমন ছিল যখন আমরা নিশ্চিত ছিলাম না যে পদ্মা সেতু হবে কি হবে না। কিন্তু মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে অনেক অনেক ধন্যবাদ। ওনার নিবেদনের কারণে, ওনার চেষ্টার কারণে আজকে আমরা পদ্মা সেতু পেয়েছি।’

তামিম আরও যোগ করেন, ‘সাথে এটাও বলব, পদ্মা সেতুর প্রকল্পের সঙ্গে যারাই যুক্ত ছিল, তাদেরকেও অসংখ্য অসংখ্য ধন্যবাদ। বিশেষ করে যারা কর্মী ছিলেন, আপনাদের একটা কথাই বলতে চাই যে আপনারা এমন একটা কাজ করেছেন, যেটা বাঙালি জাতি আজীবন মনে রাখবে। আমার ও বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের পক্ষ থেকে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে অনেক অনেক ধন্যবাদ।’

উচ্ছ্বাস প্রকাশ করে মুশফিকুর রহিম ফেসবুকে লিখেছেন, 'আমরা দীর্ঘদিন ধরে যা স্বপ্ন দেখছিলাম তা অবশেষে বাস্তবে পরিণত হয়েছে। আমাদের নিজস্ব পদ্মা সেতু নিয়ে গর্ববোধ করছি। মাশাল্লাহ।' 

স্বপ্নের পদ্মা সেতু পেয়ে যারপরনাই খুশি মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, 'স্বপ্নের পদ্মা সেতু, আমাদের গর্বের পদ্মা সেতু। অসংখ্য ধন্যবাদ মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, স্বপ্নকে বাস্তবে পরিণত করার জন্য।'

তারকা ক্রিকেটার জাহানারা আলম ফেসবুকে লিখেছেন,' স্বপ্নের পদ্মা সেতু। আমার দেশ, আমার গর্ব।'

;

কেক কেটে পদ্মা সেতু উদ্বোধনের উচ্ছ্বাসে সামিল ক্রিকেটাররা



স্পোর্টস ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
টাইগার ক্রিকেটাররা

টাইগার ক্রিকেটাররা

  • Font increase
  • Font Decrease

স্বপ্নের পদ্মা সেতু আজ সত্যি। প্রমত্তা পদ্মা জয়ের ইতিহাস রচিত হলো বাঙালির অনন্য সাহসিকতায়। দেশের দখিনের দুয়ার আজ খোলা। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশবাসীকে উচ্ছ্বাসে ভাসিয়ে জাকজমকপূর্ণ অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে উদ্বোধন করলেন নিজের সাহস আর একান্ত প্রচেষ্টায় গড়া পদ্মা সেতু। 

এমন মাহেন্দ্রক্ষণে সুদূর ওয়েস্ট ইন্ডিজের সেন্ট লুসিয়া থেকে বাংলাদেশের এ বিজয়ের উৎসবে শামিল হলেন টাইগাররা। কেক কেটে পদ্মা সেতু উদ্বোধনের শুভক্ষণ উদযাপন করলেন সাকিব আল হাসানের বাহিনী।

বাংলাদেশ-ওয়েস্ট ইন্ডিজের টেস্ট সিরিজের মাঝেই উদ্বোধন হলো স্বপ্নের পদ্মা সেতু। গতকাল শুক্রবার ২৪ জুন সেন্ট লুসিয়ায় মাঠে গড়িয়েছে দ্বিতীয় টেস্ট। আজ শনিবার ২৫ জুন দ্বার খুলে গেল পদ্মা সেতুর। পদ্মা নদীর দুই পাড়ের মাঝে চালু হলো ঐতিহাসিক সড়ক যোগাযোগ।

ব্যাপারটা মাথায় রেখেই দুই ম্যাচের এই সিরিজের নাম রাখা হয়েছে পদ্মা সেতুর নামে। আইসিসি টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের অংশ হিসেবে খেলতে যাওয়া সিরিজের নামকরণ করা হয়েছে ‘পদ্মা ব্রিজ ড্রিম ফুলফিলড ফ্রেন্ডশিপ টেস্ট সিরিজ, প্রেজেন্টেড বাই ওয়ালটন।’

;