এবার ব্রাজিলকে হারাল মরক্কো



স্পোর্টস ডেস্ক
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

বিশ্ব ফুটবলের প্রথাগত বড় শক্তি নয় মরক্কো। তবে গত বিশ্বকাপ তারা ছিল আলোচিত এক দল। গোটা বিশ্বকে চমকে দিয়ে আফ্রিকার প্রথম দল হিসেবে তারা জায়গা করে নেয় সেমি-ফাইনালে। এদিকে কাতার বিশ্বকাপে কোয়ার্টার ফাইনাল থেকে বাদ পড়ার পর প্রথমবারের মতো মাঠে নামে পাঁচবারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন ব্রাজিল। আন্তর্জাতিক প্রীতি ম্যাচে তাদের প্রতিপক্ষ কাতার বিশ্বকাপে চমক দেওয়া মরক্কো।

বিশ্বকাপের সাফল্যের ধারা অব্যাহত রাখলো মরক্কো। এবার উত্তর আফ্রিকার দলটি ইতিহাস গড়ে হারিয়ে দিল পাঁচবারের বিশ্বচ্যাম্পিয়ন ও হেভিওয়েট ব্রাজিলকে। রোববার (২৬ মার্চ) ভোররাতে ঘরের মাঠ ইবনে বতুতা স্টেডিয়ামে ২-১ গোলে জয় তুলে নিয়েছে মরক্কানরা। লাতিন জায়ান্টদের বিপক্ষে এটাই তাদের প্রথম জয়। বিশ্বকাপে রূপকথার গল্প লেখা নায়কদের দেখতে ৬৫ হাজার দর্শক গ্যালারিতে ছিলেন। তাদের সামনে উজ্জীবিত পারফরম্যান্স করে মরক্কো।

এদিকে প্রীতি ম্যাচ হলেও, পূর্ণশক্তির দল নিয়েই মাঠে নামে মরক্কো। ম্যাচের শুরু থেকেই একের পর এক আক্রমণে ব্রাজিল রক্ষণভাগকে ব্যস্ত রাখে এটলাস লায়ন্সরা। ম্যাচের দশম মিনিটে সুফিয়ান বৌফালের বাড়ানো বলে হাকিম জিয়াচের বাঁ পায়ের জোরালো শট ঠেকিয়ে দেয় ব্রাজিলের রক্ষণভাগ। ম্যাচের ১৩তম মিনিটে গোলের সুবর্ণ সুযোগ পেয়েছিল ব্রাজিল। তবে লুকাস পাকেতার বাড়ানো বলে নবাগত রনির ডান পায়ের শট বারের ওপর দিয়ে চলে গেলে গোল বঞ্চিত হয় ব্রাজিল। এরপর ম্যাচের ২৪তম মিনিটে ফের একবার রনির শট ঠেকিয়ে দেন মরক্কোর গোলরক্ষক ইয়াসিন বুনো। একই মিনিটে আন্দ্রে সান্তোসের ডান‌ পায়ের শট রুখে দিয়ে জাল অক্ষত রাখেন বুনো। তবে প্রথমার্ধের সবচেয়ে বড় চমক দেয় মরক্কো। ব্রাজিল না পারলেও ম্যাচের ২৯ তম মিনিটে গোল করে বসে স্বাগতিকরা। বিলাল আল খানাউসের বাড়ানো বলে ডি বক্সের মাঝামাঝি অবস্থান থেকে বৌফালের জোরালো শট জালে জড়ালে ১-০ গোলে এগিয়ে যায় মরক্কো।

এরপর ম্যাচের ৩৫তম মিনিটেও ভালো সুযোগ পেয়েছিল ব্রাজিল। তবে রনির অ্যাসিস্ট করা বলে রদ্রিগোর ডান পায়ের শট বারের ওপর দিয়ে চলে যায়। এরপর বাকি সময়ে আর তেমন কোনো জোরালো আক্রমণ করতে না পারায় ১-০ গোলের লিড নিয়ে বিরতিতে যায় মরক্কো। প্রথমার্ধের মতো দ্বিতীয়ার্ধেও একের পর এক আক্রমণ করতে থাকে ব্রাজিল। ম্যাচের ৪৮ তম মিনিটে রদ্রিগের শট ঠেকিয়ে দেয় মরক্কোর রক্ষণভাগ। ৫৪তম মিনিটে ফের একবার এগিয়ে যাওয়ার সুযোগ পেয়েছিল মরক্কো। তবে ব্রাজিল রক্ষণভাগের দৃঢ়তায় সে যাত্রায় বেঁচে যায় সেলেসাওরা। এরপর ম্যাচের ৫৬তম মিনিটে কাসেমিরোর ক্রস থেকে ডি বক্সের বাইরে থেকে ভিনিসিয়াস জুনিয়রের শট রুখে দেয় মরক্কো। তবে ব্রাজিলকে বেশিক্ষণ আটকে রাখতে পারেনি মরক্কোর রক্ষণভাগ। ম্যাচের ৬৭তম মিনিটে সমতায় ফেরে পাঁচবারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়নরা। লুকাস পাকেতার বাড়ানো বলে কাসেমিরোর ডান পায়ের শট জালে জড়ালে ১-১ গোলে সমতায় ফেরে সেলেসাওরা।

তবে ব্রাজিলকে খুব বেশিক্ষণ স্বস্তিতে থাকতে দেয়নি মরক্কোও। ম্যাচের ৭৯তম মিনিটে ব্যবধান ২-১ করে আবদেল হামিদ সাবেরি। ডি বক্সের মাঝামাঝি অবস্থান থেকে তার ডান পায়ের শট জালে জড়ালে হতাশ হতে হয় সেলেসাওদের। এরপর ম্যাচের বাকি সময়ে আর তেমন কোনো জোরালো আক্রমণ করতে না পারায় ২-১ গোলে হার নিয়েই মাঠ ছাড়তে হয় ব্রাজিলকে।

মরকেলকে ভারতের বোলিং কোচ হিসেবে চান গম্ভীর 



স্পোর্টস ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

সব জল্পনা-কল্পনা উড়িয়ে গত ৯ জুলাই গৌতম গম্ভীরকেই ভারতীয় দলের প্রধান কোচ বানায় গৌতম গম্ভীর। ভারতীয় এই সাবেক তারকা ক্রিকেটার দায়িত্ব নিয়েই বলেছিলেন রোহিত-কোহলিদের দায়িত্বে নেওয়ার পর বেতনাদির চুক্তি হচাপিয়ে তার চিন্তা সাপোর্টিং স্টাফ খোঁজাতে। গম্ভীর যেন এগোচ্ছেন সেই পথেই। ভারতীয় গণমাধ্যমগুলোর সূত্রমতে, কেকেআর একাডেমির প্রধান ও সাবেক ক্রিকেটার অভিষেক নায়ারকে সহকারী কোচ হিসেবে নিতে পারেন গম্ভীর। এবার জানা গেল বোলিং কোচ হিসেবে পছন্দের তালিয়ায় সবার ওপরে সাবেক প্রোটিয়া পেসার মরনে মরকেলকে রেখেছেন তিনি। 

খবরটি ক্রিকেটবিষয়ক ওয়েবসাইট ক্রিকবাজের। তাদের এক প্রতিবেদনের সূত্রমতে জানা যায়, মরকেলকে বোলিং কোচ হিসেবে ভারতের দলে ভেড়ানোর জন্য বিসিসিআইয়ের নিকট অনুরোধ করেছেন গম্ভীর। এমনকি মরকেলের সঙ্গে ইতিমধ্যে বিসিসিআইয়ের প্রাথমিক আলাপও হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছে ক্রিকবাজ। 

মরকেলের সঙ্গে এর আগেও কাজ করেছেন গম্ভীর। আইপিএলে কলকাতা নাইট রাইডার্সের মেন্টর হবার আগে লক্ষ্ণৌ সুপার জায়ান্টের হয়ে দুই আসরে মেন্টর হিসেবে দুই বছর কাজ করেছেন তিনি। সেখানেই ফ্রাঞ্চাইজিটির বোলিং কোচ ছিলেন মরকেল।

প্রোটিয়াদের হয়ে তিন ফরম্যাটেই মাত মাতিয়েছেন মরকেল। তার এক যুগের আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ারে খেলেছেন ৮৬টি টেস্ট, ১১৭টি ওয়ানডে ও ৪৪টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ। 

এদিকে মরকেল ছাড়াও ভারতের বোলিং কোচ হিসেবে শোনা গেছে আরও কয়েক নাম। তবে সেই নামগুলো দেশটির সাবেক ক্রিকেটারদের। সেই তালিকার আছেন লক্ষ্মীপতি বালাজি, বিনয় কুমার ও জহির খান। 

;

টিভিতে যা দেখবেন আজ



স্পোর্টস ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

জিম্বাবুয়ে-ভারত সিরিজের চতুর্থ টি-টোয়েন্টি আজ (শনিবার)। এছাড়াও টিভিতে যা যা থাকছে।

৪র্থ টি-টোয়েন্টি

জিম্বাবুয়ে-ভারত

বিকেল ৫টা, সনি স্পোর্টস টেন ৫

উইম্বলডন (নারী এককের ফাইনাল)

ক্রেইচিকোভা-পাওলিনি

সন্ধ্যা ৭টা, স্টার স্পোর্টস সিলেক্ট ১

লঙ্কা প্রিমিয়ার লিগ

জাফনা-ক্যান্ডি

রাত ৮টা, টি স্পোর্টস

মেজর লিগ ক্রিকেট

লস অ্যাঞ্জেলেস-সান ফ্রান্সিস্কো

রাত ১টা, সনি স্পোর্টস টেন ১

;

আর্জেন্টিনার চিন্তার কারণ ব্রাজিলিয়ান রেফারি



স্পোর্টস ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

কোপার ফাইনালে না থেকেও আছে ব্রাজিল। কারণ কোপায় আর্জেন্টিনার শিরোপা ধরে রাখার মিশনে ম্যাচে পরিচালনার দায়িত্বে থাকবেন ব্রাজিলিয়ান রেফারি রাফায়েল ক্লাউস।

সোমবার সকাল ছয়টায় মায়ামির হার্ড রক স্টেডিয়ামে মাঠে গড়াবে ফাইনাল। ম্যাচের দিন দুয়েক আগে এক অফিশিয়াল বিবৃতিতে কোপার ফাইনালের জন্য ম্যাচ অফিশিয়ালদের তালিকা প্রকাশ করেছে সাউথ আমেরিকার ফুটবলের সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক সংস্থা কনমেবল।

ফাইনালে রাফায়েল ক্লাউসের সহকারির দায়িত্বেও দুই ব্রাজিলিয়ান। ব্রুনো পিরেস ও রদ্রিগো কোরেয়া। চতুর্থ ও পঞ্চম রেফারির দায়িত্বে থাকবেন প্যারাগুয়ের হুয়ান বেনিতেজ ও এদুয়ার্দো কারদোজা। ভিডিও রেফারির দায়িত্বে আরেক ব্রাজিলিয়ান রডোলফো টস্কি। এবং সহকারী ভিএআর রেফারির দায়িত্বেও থাকবেন ব্রাজিলের দানিলো মানিস।

ক্লাউসের অধীনে খেলা ম্যাচগুলোতে এখন পর্যন্ত ৯ বার হলুদ কার্ড দেখেছেন কলম্বিয়ান ফুটবলাররা। টানা ২৮ ম্যাচে অপরাজিত থাকা এই কলম্বিয়া শেষবার হেরেছিল ২০২২ সালে আর্জেন্টিনার বিপক্ষেই। সে ম্যাচেও রেফারি ছিলেন রাফায়েল ক্লাউস। এবার প্রতিশোধ নিয়েই চাইবে কলম্বিয়ানরা।

আর্জেন্টিনার বিপক্ষে আরও তিনটি ম্যাচে রেফারির দায়িত্বে ছিলেন ক্লাউস। যার মধ্যে সবচেয়ে আলোচিত হয়েছিল ইকুয়েডরের বিপক্ষে ম্যাচটা। সেখানে ক্লাউসের বাজানো বাঁশিতেই পেনাল্টি পায় ইকুয়েডর। ম্যাচটা হয়েছিল ড্র। যদিও পেনাল্টির সে সিদ্ধান্ত নিয়ে আর্জেন্টাইন সমর্থকরা আজও নাখোশ।
;

নিজের বহিষ্কার প্রসঙ্গে প্রথমবার কথা বললেন ওয়াহাব



স্পোর্টস ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

হতাশাজনক বিশ্বকাপ সফর শেষ হওয়ার পর থেকেই সমালোচনার মুখোমুখি হচ্ছিল পাকিস্তান ক্রিকেট দল। ২০২৩ ওয়ানডে বিশ্বকাপের পর সদ্য শেষ হওয়া টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপেও ভরাডুবি দেখেছেন বাবর আজমরা। দলের এমন শোচনীয় অবস্থায় কঠোর পদক্ষেপ নিয়ে বুধবার নির্বাচক কমিটি থেকে বহিষ্কার করা হয়েছিল ওয়াহাব রিয়াজ ও আবদুল রাজ্জাককে। গতকাল (বৃহস্পতিবার) নতুন দুই সদস্যকে কমিটিতে অন্তর্ভুক্ত করেছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের (পিসিবি)।

ওয়াহাবের বহিষ্কার প্রসঙ্গে এই প্রথমবার মুখ খুললেন সাবেক এই পাকিস্তানি ক্রিকেটার। নিজের সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে একটি পোস্ট দিয়ে এ বিষয়ে নিজের অনুভূতি ও মতামত জানালেন তিনি। পোস্টের শুরুতেই তিনি কিছুটা ইঙ্গিতপূর্ণ বাক্য দিয়ে নিজের কথা শুরু করেছেন, ‘আমি অনেককিছুই বলতে পারি। তবে আমি দোষের অংশ হতে চাই না।’

তার এই কথা দ্বারা ওয়াহাব ঠিক কোন বিষয়কে ইঙ্গিত করেছেন তা স্পষ্টভাবে জানাননি। তবে এর পরে তিনি বোর্ডকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন তাকে এই সুযোগটি দেয়ার জন্য। ওয়াহাব বলেন, ‘পিসিবিতে নির্বাচক কমিটির সদস্য হিসেবে আমার সময় শেষ হতে যাচ্ছে। আমি আমার ভক্তদের জানাতে চাই যে খেলাটি আমি পছন্দ করি, সেটা বিশ্বাস এবং ভরসার সঙ্গে পাকিস্তান ক্রিকেটের উন্নতির জন্য শতভাগ দিয়েছি।’

পাকিস্তান ক্রিকেটের সুন্দর ভবিষ্যৎ কামনা করে ওয়াহাব আরও বলেন, 'নির্বাচক প্যানেলে কাজ করা আমার জন্য সম্মানের। সাত সদস্যের এই নির্বাচক প্যানেলে সম্মিলিতভাবে সিদ্ধান্ত নেয়াটা সম্মানের বিষয়। সবার ভোটকেই সেখানে সমান গুরুত্ব দেয়া হয়েছে। যারা আমার জন্য দোয়া করেছেন তাদের প্রতি আমি কৃতজ্ঞ। আমি পাকিস্তান ক্রিকেটের সুন্দর ভবিষ্যৎ কামনা করি।'

;