৪৩ হজ এজেন্সির জন্য সৌদি আরবের বিশেষ নির্দেশনা

ইসলাম ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
৪৩ হজ এজেন্সির জন্য সৌদি আরবের বিশেষ নির্দেশনা

৪৩ হজ এজেন্সির জন্য সৌদি আরবের বিশেষ নির্দেশনা

  • Font increase
  • Font Decrease

‘ভবিষ্যতে কোনো ধরনের অনিয়ম না ঘটানোর শর্তে হজ কার্যক্রম চালিয়ে যাওয়ার জন্য এবারের মতো বিষয়টি সংরক্ষণ হলো।’ ‘ভবিষ্যতের জন্য সতর্ককরণ ও হজ ব্যবস্থাপনা নির্দেশনাবলী মেনে চলার শাস্তি প্রদত্ত হয়েছে। আবার কাউকে ‘অধিকতর মনোযোগী’ হওয়ার পরামর্শ দিয়ে সতর্ক করা হয়েছে।

এভাবেই ২০১৭ সালের হজ মৌসুমে সৌদি আরবে নানা কারণে অভিযুক্ত ৪৩ হজ এজেন্সির বিষয়ে সৌদি আরবের হজ ও উমরা মন্ত্রণালয় কর্তৃপক্ষের কাছ থেকে মতামত পাওয়া গেছে। ওই মতামতে বর্ণিত হজ এজেন্সিগুলোকে ভষ্যিতে কোনো ধরনের অনিয়ম থেকে বিরত থাকার জন্য নির্দেশক্রমে সতর্ক করা হয়। এই নির্দেশনার ফলে ভবিষ্যতে অনিয়ম না করার শর্তে এসব এজেন্সি হজ কার্যক্রম চালিয়ে যেতে পারবে।

যদিও সৌদি আরব ৪৩ এজেন্সির প্রত্যেকটির ব্যাপারে আলাদা আলাদা মতামত বা নির্দেশনা দিয়েছে সৌদি। এসব নির্দেশনার মূল হলো- ভবিষ্যতের জন্য সতর্ককরণ ও হজ ব্যবস্থাপনার নির্দেশনা মেনে চলার শাস্তি।

রোববার (২৮ অক্টোবর) ধর্ম মন্ত্রণালয়ের সহকারী সচিব এস এম মনিরুজ্জামান স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানানো হয়।

ধর্ম মন্ত্রণালয়ের ওই বিজ্ঞপ্তিকে বলা হয়, এসব এজেন্সিকে ভবিষ্যতে এ ধরনের অনিয়ম থেকে বিরত থাকার নির্দেশক্রমে সতর্ক করা হলো।

হজ এজেন্সি ও ধর্ম মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, ২০১৭ সালের হজ মৌসুমে বাংলাদেশের ৪৬টি হজ এজেন্সির বিরুদ্ধে হজ ব্যবস্থাপনায় অনিয়মের অভিযোগ আনে সৌদি আর কর্তৃপক্ষ। অভিযোগগুলো ছিলো- হজযাত্রীদের সঙ্গে প্রতারণা, অবৈধভাবে বাসায় রান্না করে খাওয়ানো, মুয়াসসাসা অফিসের অর্থ পরিশোধ না করা, নিয়ম না মেনে বাসা পরিবর্তনসহ ইত্যাদি। এসব অভিযোগ আমলে নিয়ে সৌদি কর্তৃপক্ষ এই নির্দেশনা দিলো হজ এজেন্সিগুলোকে।

এজেন্সির নামের তালিকা দেখতে এখানে ক্লিক করুন