ছাত্রলীগ-ছাত্রদল সংঘর্ষের ঘটনায় ঢাবি প্রশাসনের মামলা



ঢাবি করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, ঢাকা
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে (ঢাবি) ছাত্রলীগ ও ছাত্রদলের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনায় অজ্ঞাত অন্তত ৪০০ জনকে আসামি করে মামলা করেছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় (ঢাবি) প্রশাসন।

বুধবার (২৫ মে) সাংবাদিকদের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ড. একেএম গোলাম রব্বানী।

এর আগে দুটি ছাত্র সংগঠনের মধ্যকার সংঘর্ষের ঘটনার পর গতকাল মঙ্গলবার বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী এস্টেট ম্যানেজার মো. আলী আশ্রাফ বাদী হয়ে শাহবাগ থানায় মামলাটি দায়ের করেন। এ মামলায় এখন পর্যন্ত ২ জনকে আটক করেছে শাহবাগ থানা পুলিশ।

প্রক্টর গোলাম রব্বানী বলেন, অজ্ঞাত ৩০০-৪০০ জনকে আসামি করে বিশ্ববিদ্যালয়ের এস্টেট অফিস থেকে গতকাল মামলা করা হয়েছে। বুধবার ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আতাউল্লাহ মামলার এজাহার গ্রহণ করে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের জন্য ৩০ জুন দিন ধার্য করেন।

মামলার এজাহারে বলা হয়েছে, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় সিনেটের ৩৫ জন শিক্ষক প্রতিনিধি নির্বাচন হচ্ছিল। এ সময় একদল দুষ্কৃতকারী লাঠি, রড ও নানা ধরনের দেশীয় অস্ত্র নিয়ে ঢাকা মেডিকেলের বহির্বিভাগের সামনে এক জোট হয়ে নির্বাচন বানচাল ও বিশ্ববিদ্যালয়ের চলমান শিক্ষার স্বাভাবিক পরিবেশ বিঘ্নিত করতে অপতৎপরতা শুরু করে। বিষয়টি আইন প্রয়োগকারী সংস্থাকে জানালে, আইনশৃঙ্খলা বাহিনী সেখান থেকে তাদের ছত্রভঙ্গ করে দেয়।

এতে আরও বলা হয়, গত ২৪ মে বেলা সাড়ে ১১টার দিকে পুনরায় শিক্ষা ভবনের সামনের দিক থেকে ৩০০-৪০০ জন দুষ্কৃতকারী কার্জন হলের গেট দিয়ে জোরপূর্বক প্রবেশের চেষ্টা করে। এ সময় গেটের নিরাপত্তা প্রহরী কামাল হোসেন তাদের বাধা দেওয়ার চেষ্টা করলে তার মাথায় লাঠি ও রড দিয়ে আঘাত করতে গেলে তিনি হাত দিয়ে তা ঠেকানোর চেষ্টা করেন। এতে তার হাত জখম হয়। এছাড়া শিক্ষার্থীদের বহনে ব্যবহার করা দুটি বিআরটিসি বাস ভাঙচুর করে জাতীয় সম্পদ নষ্ট করা হয়।

শাহবাগ থানার ভারপ্রাপ্ত (ওসি) মওদূত হাওলাদার বলেন, বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ ৪০০ জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছে। তবে তাদের সবাই অজ্ঞাতনামা। আমরা শিগগিরই তদন্ত শুরু করবো। তদন্তের পর প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করবো। এ মামলায় আটক ২ জনকে কোর্টে চালান করেছি।

এদিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ড. একেএম গোলাম রব্বানী বলেন, সংঘর্ষে যারা জড়িত ছিলো ভিডিও ফুটেজ দেখে তাদের শনাক্ত করে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী আমাদের কাছে প্রতিবেদন জমা দেবে। ‘হামলাকারীদের মধ্যে যারা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী তাদের বিরুদ্ধে আমরা একাডেমিক ব্যবস্থা গ্রহণ করব।’

ঢাবি ‘খ’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষায় সেরাদের সেরা যারা



ঢাবি করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম
ঢাবি ‘খ’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষায় সেরাদের সেরা যারা

ঢাবি ‘খ’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষায় সেরাদের সেরা যারা

  • Font increase
  • Font Decrease

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) ২০২১-২০২২ শিক্ষাবর্ষে কলা অনুষদভুক্ত ‘খ’ ইউনিটের অধীনে প্রথম বর্ষ স্নাতক (সম্মান) শ্রেণিতে ভর্তি পরীক্ষায় ১ হাজার ৭৮৮টি আসনের বিপরীতে ৫ হাজার ৬২২ জন উত্তীর্ণ হয়েছেন।

সোমবার (২৭ জুন) দুপুর ১টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনস্থ অধ্যাপক আব্দুল মতিন চৌধুরী ভার্চুয়াল ক্লাসরুমে সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে আনুষ্ঠানিকভাবে এ ফলাফল প্রকাশ করেন।

কলা অনুষদভুক্ত ‘খ’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষায় মোট নম্বর ৯৬ দশমিক ৫০ (মূল পরীক্ষায় ১০০ নম্বরের মধ্যে ৭৬ দশমিক ৫০) পেয়ে প্রথম হয়েছেন ফরিদপুরের সরকারি রাজেন্দ্র কলেজের ছাত্র নাহনুল কবীর নুয়েল। তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ব্যাংকিক অ্যান্ড ইনসুরেন্স বিভাগে কেন্দ্র হতে ভর্তি পরীক্ষায় অংশ গ্রহণ করেছিলেন।

এদিকে যারা দ্বিতীয় ও তৃতীয় হয়েছেন তাদের দুইজনের পাস মার্ক একই। বিশ্ববিদ্যালয়ের নীতিমালা অনুযায়ী ইংরেজিতে যে বেশি নম্বর পেয়েছে তাকে দ্বিতীয় ঘোষণা করা হয়।

সেই দিক বিবেচনায় ৯৬ দশমিক ২৫ (মূল পরীক্ষায় ১০০ নম্বরের মধ্যে ৭৬ দশমিক ২৫) পেয়ে দ্বিতীয় হয়েছেন বরিশাল সরকারি মহিলা কলেজের ছাত্রী তাবিয়া তাসনিম। তিনি বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ‘খ’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষায় অংশ নেন।

অন্যদিকে মোট নম্বর ৯৬ দশমিক ২৫ (মূল পরীক্ষায় ১০০ নম্বরের মধ্যে ৭৬ দশমিক ২৫) পেয়ে তৃতীয় হয়েছেন মাদারিপুরের সরকারি নাজিমুদ্দিন কলেজের ছাত্রী সাবরীন আক্তার কেয়া। তিনিও বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্র থেকে ভর্তি পরীক্ষায় অংশ নেন।

উল্লোখ্য, উত্তীর্ণ সকল শিক্ষার্থীকে আগামী ৪ জুলাই বিকেল ৩টা থেকে ২১ জুলাই বিকাল ৩টা পর্যন্ত ভর্তি পরীক্ষার ওয়েবসাইটে বিস্তারিত ফরম ও বিষয়ের পছন্দক্রম ফরম পূরণ করতে হবে।

ভর্তি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ বিভিন্ন কোটায় আবেদনকারীদের ১৭ জুলাই হতে ২৪ জুলাই তারিখের মধ্যে সংশ্লিষ্ট কোটার ফরম কলা অনুষদের ডিন অফিস হতে সংগ্রহ করতে হবে এবং যথাযথভাবে পূরণ করে উক্ত সময়ের মধ্যে ডিন অফিসে জমা দিতে হবে।

ফলাফল নিরীক্ষণের জন্য নির্ধারিত ফি প্রদান সাপেক্ষে আগামী ২৯ জুন হতে ৬ জুলাই পর্যন্ত কলা অনুষদের ডিন অফিসে আবেদন করা যাবে। ভর্তি সংক্রান্ত গুরুত্বপূর্ণ তথ্য ভর্তি পরীক্ষার ওয়েবসাইটে খ-ইউনিটের নোটিশে পাওয়া যাবে।

;

ঢাবি ‘খ’ ইউনিটের ফল প্রকাশ, পাসের হার ৯.৮৭ শতাংশ



ঢাবি করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) ২০২১-২০২২ শিক্ষাবর্ষে কলা অনুষদভুক্ত ‘খ’ ইউনিটের অধীনে প্রথম বর্ষ স্নাতক (সম্মান) শ্রেণিতে ভর্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হয়েছে। এতে পাসের হার ৯ দশমিক ৮৭ শতাংশ।

সোমবার (২৭ জুন) দুপুর ১টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনস্থ অধ্যাপক আব্দুল মতিন চৌধুরী ভার্চুয়াল ক্লাসরুমে সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে আনুষ্ঠানিকভাবে এ ফলাফল প্রকাশ করেন।

এবছর ‘খ’ ইউনিটে আবেদন করেন ৫৮ হাজার ৫৭৩ জন। ভর্তি পরীক্ষায় অংশ নিয়েছেন ৫৬ হাজার ৯৭২ জন প্রার্থী। যেখানে ভর্তির যোগ্য বিবেচিত হয়েছেন ৯ দশমিক ৮৭ শতাংশ পরীক্ষার্থী। ভর্তির যোগ্য বিবেচিত এই ৫ হাজার ৬২২ জনের মধ্যে শেষ পর্যন্ত ১ হাজার ৭৮৮ জন মেধাক্রম অনুযায়ী কলা অনুষদের বিভিন্ন বিভাগে ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষের স্নাতক (সম্মান) শ্রেণিতে ভর্তি হওয়ার সুযোগ পাবেন।

ফলাফল জানতে ঢাবির ওয়েবসাইটে (admission.eis.du.ac.bd) গিয়ে শিক্ষার্থীর উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষার রোল নম্বর, বোর্ডের নাম, পাসের সাল ও মাধ্যমিক পরীক্ষার রোল নম্বর দিলে জানা যাবে। এ ছাড়াও, রবি, এয়ারটেল, বাংলালিংক অথবা টেলিটক নম্বর থেকে 'DU KHA <roll no>' টাইপ করে ১৬৩২১ নম্বরে পাঠালো ফিরতি এসএমএসে ফল পাওয়া যাবে।

গত ৪ জুন সকাল ১১টা থেকে সাড়ে ১২টা পর্যন্ত (দেড় ঘণ্টা) এই ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষা ঢাকা ও ঢাকার বাইরে সাতটি বিভাগীয় শহরে এ পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। যেখানে ১ হাজার ৭৮৮ আসনের বিপরীতে এবার আবেদন করেছিলেন ৫৮ হাজার ৫৬৫ জন। সেই হিসাবে এবার প্রতি আসনের বিপরীতে পরীক্ষায় অংশ নিয়েছিল প্রায় ৩৩ জন শিক্ষার্থী।

;

১৬ দিনের বন্ধে যাচ্ছে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়



কুবি করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম
কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়

কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়

  • Font increase
  • Font Decrease

পবিত্র ঈদুল আজহা উপলক্ষে আগামী ৩ জুলাই থেকে ১৮ জুলাই পর্যন্ত বন্ধ থাকবে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়।

সোমবার (২৭ জুন) ডেপুটি রেজিস্ট্রার মো. আমিরুল হক চৌধুরী এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, ঈদুল আজহা উপলক্ষে আগামী ৩ জুলাই থেকে ১৮ জুলাই পর্যন্ত কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের একাডেমিক কার্যক্রম বন্ধ থাকবে। তবে, প্রশাসনিক কার্যক্রম বন্ধ থাকবে ১৬ জুলাই পর্যন্ত।

আবাসিক হল বন্ধ প্রসঙ্গে কাজী নজরুল ইসলাম হলের প্রভোস্ট ড. মিহির লাল ভৌমিক বলেন, হলসমূহ বন্ধের বিষয়ে এখনও কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি। আজ-কালের মধ্যে একটি মিটিং হবে। সেখানে এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

;

বন্যার্তদের সহযোগিতায় টিএসসিতে দুই দিনের কনসার্ট



ঢাবি করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম
বন্যার্তদের সহযোগিতায় টিএসসিতে দুই দিনের কনসার্ট

বন্যার্তদের সহযোগিতায় টিএসসিতে দুই দিনের কনসার্ট

  • Font increase
  • Font Decrease

সিলেট-সুনামগঞ্জসহ দেশের বিভিন্ন অঞ্চলের বন্যাদুর্গত মানুষের পাশে দাঁড়ানোর লক্ষ্যে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) টিএসসিতে ‘বন্যার্তদের জন্য কনসার্ট’ অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। কনসার্ট থেকে প্রাপ্ত পুরো অর্থ বন্যাদুর্গতদের সহযোগিতায় ব্যয় করা হবে।

সোমবার ও মঙ্গলবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থী, কর্মকর্তা-কর্মচারী এবং বিভিন্ন সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠন সমন্বিত উদ্যোগ ও বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সহযোগিতায় টিএসসির সবুজ চত্বরে এ কনসার্ট অনুষ্ঠিত হবে।

কনসার্টে ওয়ারফেজ, আর্ক, অ্যাশেজ, ভাইকিং, সোনার বাংলা সার্কাস, সহজিয়া-সহ আরও অনেক ব্যান্ড দল গান পরিবেশন করবে। কনসার্টটি সর্বসাধারণের জন্য উন্মুক্ত থাকবে। দুই দিনের কনসার্টের জন্য টিকিটের শুভেচ্ছা মূল্য ৩০০ টাকা। চাইলে টিকেটের মূল্য থেকেও বেশি অর্থ প্রদান করার সুযোগ থাকছে। যার পুরোটাই বন্যার্তদের সহায়তায় ব্যবহার করা হবে। টিকেট অনলাইনে ও অফলাইনে কেনা যাবে। অফলাইনে টিকিট সংগ্রহ করা যাবে।

এর আগে রোববার (২৬ জুন) দুপুরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় সাংবাদিক সমিতির কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলন করেন আয়োজকরা। এসময় আয়োজকরা বলেন, ত্রাণ শব্দটা আমাদের পাল্টাতে হবে। জনগণের টাকায় দেশ চলে। জনগণের টাকাতেই আমাদের বেতন হয়, আমরা হলে থাকতে পারি। এখানে সুনামগঞ্জের মানুষসহ সবার টাকা আছে। তাদের একটা অংশ বিপদে পড়েছে। তাদের টাকায় তাদের সহযোগিতা করতে হবে। এটা করুণা বা দয়া নয়, এটা তাদের অধিকার। কাজেই ত্রাণ শব্দটা বাদ দিতে হবে। আমাদের মূল শক্তি কিন্তু ছাত্র-ছাত্রীরা। আমরা তাদের সহায়তা করছি এবং পরামর্শ দিচ্ছি। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় সবসময় সংকটে সবার পাশে দাঁড়িয়েছে। এখনও আমাদের তাদের পাশে দাঁড়াতে হবে।

তারা আরও বলেন, অতীতেও বন্যাসহ যেকোনো দুর্যোগে বা সংকটে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় বড় ভূমিকা রেখেছে। সেই জায়গা থেকে এবারের বন্যাদুর্গত মানুষের পাশে দাঁড়াতে গান-কবিতা, শিল্প-সাহিত্যসহ বিভিন্ন মাধ্যমের সাহায্যে আমরা টাকা তুলছি। এরই ধারাবাহিকতায় আমাদের এই কনসার্টের আয়োজন। আমরা সবার স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণের প্রত্যাশা করছি।

কনসার্টটি পরিচালনার জন্য সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক সিনেট সদস্য গোলাম কুদ্দুছকে আহ্বায়ক, বিশ্ববিদ্যালয়ের গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের অধ্যাপক রোবায়েত ফেরদৌসকে সদস্য সচিব এবং ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড. মো. নিজামুল হক ভূঁইয়াকে উপদেষ্টা করে একটি পরিচালনা কমিটি করা হয়েছে।

;