জাবি ন্যায়ের পথে স্লোগান দিলে লোকে স্বীকৃতি দিবে: জাবি উপাচার্য

জাবি করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, ঢাকা
বক্তব্য রাখছেন জাবি উপাচার্য

বক্তব্য রাখছেন জাবি উপাচার্য

  • Font increase
  • Font Decrease

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ফারজানা ইসলাম বলেন, ‘জাহাঙ্গীরনগর যখন ন্যায়ের পথে স্লোগান দেয়, প্রগতির পথে বক্তব্য রাখে, যখন নারী নির্যাতনের বিরুদ্ধে অবস্থান নেয় তখন জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়কে লোকে অবশ্যই স্বীকৃতি দিবে।’

শনিবার (২৯ ফেব্রুয়ারি) রাতে বিশ্ববিদ্যালয়ের বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর হল শাখা ছাত্রলীগ আয়োজিত বঙ্গবন্ধু কাপ ও বঙ্গবন্ধু কর্নারের উদ্ধোধনী ও পুরস্কার বিতরনী অনুষ্ঠানে এ কথা বলেন তিনি।

অধ্যাপক ফারজানা ইসলাম বলেন, ‘আমরা গত একটি বছর এমন সময় পার করেছি যে বছরটিতে শুধু ছাত্রলীগ নয় এ বিশ্ববিদ্যালয়ের সকল শিক্ষক-শিক্ষার্থী তাদের কর্মতৎপরতা, শিক্ষা গবেষণার সর্বোচ্চ কাজটুকু করতে পারেনি। এখানে রাজনৈতিক সমস্যা। রাজনীতি চলছিলো উপাচার্যের বিরুদ্ধে। উপাচার্যের বিরুদ্ধে তোলা অভিযোগের সত্যতা আছে কি নেই সেটা না ভেবেই কয়েকজন মিলে পুরো বিশ্ববিদ্যালয়কে ধসিয়ে দেওয়ার ব্যবস্থা করেছিলো। আমি সকলের কাছে কৃতজ্ঞ যে তারা বুঝতে পেরেছিলো এবং নিজের মতো করে বিষয়টি মোকাবিলা করেছিলো।’

আসন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের নতুন শিক্ষার্থীদের ক্লাস শুরু হওয়া ও আসন সংকট নিয়ে অধ্যাপক ফারজানা ইসলাম বলেন, ‘আমাদের হলে হলে গণরুম আছে, র‌্যাগিং হয়। কিন্তু আমরা গণরুম করেছি গণরুমে কাউকে নির্যাতন করার জন্য নয়। আসন স্বল্পতার জন্য আমরা সবাইকে হলে আসন দিতে পারছি না। আমরা মাফ চেয়ে এসএমএস পাঠাচ্ছি প্রথমবর্ষে কোন সিট দেওয়া যাবে না, এটা হতেই পারে। কিন্তু যদি সবকিছু ঠিকঠাকমত চলে তবে প্রথম বর্ষ পার হওয়ার পর আমরা আশা করি আগামী বছরের মধ্যে ছয় হাজার সিট পাওয়া যাবে। আগামী বছরের পর আমরা আর দুঃস্বপ্ন দেখছি না যে গণরুমে মেয়েদেরকে বা ছেলেদেরকে থাকতে হবে।’

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশত বার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত বঙ্গবন্ধু কাপ ও বঙ্গবন্ধু কর্নারের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য রাখেন বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ফরহাদ হোসেন, বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর হলের প্রাধ্যক্ষ অধ্যাপক আব্দুল্লাহ হেল কাফী, শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক এ এ মামুন, অধ্যাপক হানিফ আলী প্রমুখ।

বক্তব্য শেষে ব্যাডমিন্টন খেলায় বিজয়ী খেলোয়াড়দের হাতে পুরস্কার তুলে দেন উপাচার্য অধ্যাপক ফারজানা ইসলাম।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন অধ্যাপক সোহেল আহমেদ, অধ্যাপক মোতাহার হোসেন, অধ্যাপক আলমগীর কবীর, ভারপ্রাপ্ত প্রক্টর সহযোগী অধ্যাপক আ স ম ফিরোজ-উল-হাসান প্রমুখ। এছাড়া অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ও বিভিন্ন হল ইউনিট শাখা ছাত্রলীগের নেতা কর্মীরা।

আপনার মতামত লিখুন :